কালুখালীতে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ

ফজলুল হক ॥ প্রনোদনা কর্মসূচীর আওতায় রবি-২০১৯-২০ অর্থ বছরের ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে গতকাল সোমবার রাজবাড়ী জেলাধীন কালুখালীতে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ করা হয়েছে। উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর কালুখালী এর আয়োজনে এ উপলক্ষ্যে সকাল ১১টায় উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) শেখ নুরুল আলম এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন কালুখালী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলিউজ্জামান চৌধুরী (টিটো)। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন কালুখালী উপজেলা কৃষি অফিসার মো. মাছিদুর রহমান, কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা সুজিত কুমার নন্দী, উপ-সহকারী কৃষি অফিসার হাবিবুর রহমানসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা শেষে ২২০জন কৃষকের মাঝে ডিএপি ১০ কেজি, পটাশ ১০ কেজি, মুগ বীজ ০৫ কেজি এবং ১৩০ জন কৃষকের মাঝে ডিএপি ২০ কেজি, এমওপি ১০ কেজি ও তিল বীজ ১ কেজি করে বিতরণ করা হয়।

ঝিনাইদহে মরমী কবি পাগলা কানাইয়ের জন্মজয়ন্তী উৎসব শুরু

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ॥ ঝিনাইদহে নানা আয়োজনের মধ্যদিয়ে পালিত হচ্ছে মরমী কবি পাগলা কানাই-এর ২১০তম জন্মবার্ষিকী। সোমবার সকালে কবির মাজারে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে ৫ দিনব্যাপী এ অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করা হয়। পরে মাজার প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয় আলোচনা সভা। এতে জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ, পাগলা কানাই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নজরুল ইসলামসহ অন্যান্যরা বক্তব্য রাখেন। পরে, লাঠি খেলা, চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, অনুষ্ঠিত হয়। সদর উপজেলার বেড়াবাড়ি গ্রামের পাগলা কানাই স্মৃতি সংরক্ষণ সংসদ’র আয়োজনে সোমবার থেকে শুরু হওয়া এ উৎসব চলবে আগামী ১৩ মার্চ পর্যন্ত। প্রতিনিধি পরিবেশিত হবে কবি রচিত গান, পালাগান, লোকনৃত্যসহ নানা পরিবেশনা। বাংলা ১২২৬ সালের ২৫ ফাল্গুন ঝিনাইদহের সদর উপজেলার বেড়বাড়ি গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন পাগলা কানাই।

১ কোটি ৬০ লাখ মানুষকে কোয়ারেন্টিনে রেখেছে ইতালি

ঢাকা অফিস ॥ করোনাভাইরাস মোকাবেলায় হিমশিম ইতালি ১কোটি ৬০ লাখ মানুষকে কোয়ারেন্টিনে রেখেছে। ইতালি রোববার উত্তরাঞ্চলের অর্থনৈতিক রাজধানী মিলানসহ বিস্তীর্ণ জায়গাজুড়ে সবকিছু বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে। নিজিরবিহীন এই কড়াকড়ি থাকবে ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত। লোম্বার্ডি ও অন্যান্য ১৪ টি মধ্য ও উত্তরের প্রদেশে যারা বাস করে তাদের ভ্রমণ করতে বিশেষ অনুমতি লাগবে। মিলান এবং ভেনিসেও এর প্রভাব পড়বে। ইউরোপে ইতালিতেই করোনাভাইরাস সংক্রমণ সবচেয়ে বেশি। আক্রান্তের সংখ্যা শনিবার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫ হাজার ৮৮৩ জনে।

করোনাভাইরাস

বন্ধ হল সৌদি আরবের সব স্কুল, বিশ্ববিদ্যালয়

ঢাকা অফিস ॥ নভেল করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়তে পারে শঙ্কায় স্কুল, বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে সৌদি আরব। পূর্বাঞ্চলীয় তেল সমৃদ্ধ প্রদেশ কাতিফে কয়েকজনের দেহে ভাইরাসটির সংক্রমণ শনাক্ত হওয়ার পর রোববার প্রদেশটিতে অস্থায়ী অবরোধ জারি করেছে কর্তৃপক্ষ, জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। ইতালি ও ফিলিপিন্স ভ্রমণ করে আসা এক মার্কিন নাগরিকসহ নতুন করে চার জনের দেহে সংক্রমণ শনাক্ত হওয়ার পর সোমবার দেশটিতে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১৫ জনে দাঁড়ায়। প্রতিবেশী আরব আমিরাত, বাহরাইন, কুয়েত, ইরাক ও আঞ্চলিক প্রতিবেশী ইরান ও মিশরসহ নয়টি দেশের সঙ্গে সব ধরনের ভ্রমণ স্থগিত করেছে রিয়াদ। সৌদি আরব নতুন করে চার জনের আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করার পর শিয়া সংখ্যাগরিষ্ঠ কাতিফে অবরোধ আরোপের ঘোষণা দেয় দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তবে এতে সৌদির তেল উৎপাদনে কোনো প্রভাব পড়বে না বলে ধারণা করছেন উৎপাদন সংশি¬ষ্ট কর্মকর্তারা। সৌদি আরবের সংখ্যালঘু শিয়ারা অনেকদিন ধরেই সুন্নি নেতৃত্বাধীন সরকারের বিরুদ্ধে বৈষম্যের অভিযোগ করে আসছে। এখন সরকারের এ সিদ্ধান্তে কাতিফের বাসিন্দা শিয়ারা অসন্তুষ্ট হতে পারে বলে মন্তব্য রয়টার্সের। এক বিবৃতিতে দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে, “রোগটি ছড়িয়ে পড়া রোধ করতে পূর্বসতর্কতা হিসেবে সরকারি ও বেসরকারি সব প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম বন্ধ থাকবে।” নিরাপত্তা ও জরুরি সরবরাহ ব্যবস্থার মতো প্রয়োজনীয় সেবা কার্যক্রম এ ঘোষণার আওতার বাইরে থাকবে বলে জানিয়েছে তারা। মন্ত্রণালয়টি বলেছে, কাতিফে চলাফেরার এই নিষেধাজ্ঞা বাসিন্দাদের বাড়িতে ফিরে যাওয়ার সুযোগ দিলেও ব্যাণিজ্যিক সরবরাহ অব্যাহত রাখবে। অবরোধ শুরু হওয়ার পর কাতিফের প্রধান সড়কে সিমেন্টের ব¬ক বসিয়ে রাস্তা বন্ধ করা হয়েছে বলে স্থানীয় এক বাসিন্দা জানিয়েছেন। অবরোধ শুরু হওয়ার পর থেকে মুদি দোকানগুলোতে ভিড় লেগে গেছে বলে জানিয়েছেন অন্যান্যরা। শনাক্ত হওয়া আক্রান্তরা ইরান অথবা ইরাকে গিয়েছিল অথবা এসব দেশ ভ্রমণ করে আসা লোকদের সংস্পর্শে এসেছিল বলে এর আগে সৌদি কর্তৃপক্ষগুলো জানিয়েছিল। শিয়া প্রধান কাতিফের বাসিন্দাদের চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের ঘটনায় সৌদি আরব ও ইরানের উত্তেজনা আরও বাড়তে পারে বলে ধারণা রয়টার্সের। প্রাদুর্ভাবের এই সময়েও সৌদি নাগরিকদের ইরানে প্রবেশের অনুমতি দেওয়ায় বৃহস্পতিবার তেহরানের সমালোচনা করেছে রিয়াদ। সৌদির নতুন আক্রান্তদের মধ্যে থাকা মার্কিন পর্যটককে সোমবার রাজধানী রিয়াদের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকি তিন জনের মধ্যে একজন সৌদি নাগরিক ও অপর দুই জন বাহরাইনের নাগরিক দুই নারী। আক্রান্ত সৌদি কাতিফে আক্রান্ত এক ব্যক্তির সংস্পর্শে গিয়ে ভাইসরাটিতে সংক্রমিত হন আর ওই দুই নারী ইরাক থেকে সৌদি আরবে আসার পর তাদের সংক্রমণ ধরা পড়ে। দেশটির বিনোদন কর্তৃপক্ষ সোমবার রিয়াদ বুলেভার্ড ও উইন্টার ওয়ান্ডারল্যান্ড বন্ধ ঘোষণা করেছে। পূবসতর্কতা হিসেবে রোববার যেসব পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে তার মধ্যে সৌদি আরবের মসজিদগুলোতে চলা কোরান শরীফ কেন্দ্রিক সব ধরনের কার্যক্রম ও শিক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। রাষ্ট্রায়ত্ত গণমাধ্যম জানিয়েছে, পরবর্তী ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত সোমবার থেকে দেশটির সব সরকারি ও বেসরকারি স্কুল এবং বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকবে। পরবর্তীতে দূরবর্তী শিক্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানানো হয়েছে। সৌদি আরবের বৃহত্তম ক্রীড়া ইভেন্ট বলে ঘোষিত ‘সৌদি গেমস’ ২৩ মার্চ থেকে শুরু হওয়ার কথা থাকলেও তা স্থগিত করা হয়েছে বলে আল আরাবিয়া টেলিভিশন জানিয়েছে। রোববার সৌদি আরব বাহরাইন, কুয়েত ও আরব আমিরাতের সঙ্গে ল্যান্ড ক্রসিংয়ে বাণিজ্যিক ট্রাকের চলাচল সীমাবদ্ধ করেছে। এর পাশাপাশি দেশটির তিনটি বিমানবন্দরে যাত্রীদের আগমণও সীমিত করেছে। সৌদির প্রতিবেশী কাতারে ১৫ জনের সংক্রমণ শনাক্ত হওয়ার পর সোমবার থেকে ১৪টি দেশের ভ্রমণকারীদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে দেশটি। বাহরাইনে আক্রান্তের সংখ্যা ৮৫ জনে দাঁড়ানোর পর ফর্মুলা ওয়ান গ্রান্ড প্রিক্স মোটর রেস কোনো দর্শক ছাড়াই আয়োজনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। রোববার নতুন দুই আক্রান্তসহ কুয়েতে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা ৬৪ জনে দাঁড়িয়েছে। সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়তে এক কোটি দিনারের তহবিল করার ঘোষণা দিয়েছে দেশটির কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

 

কুষ্টিয়ায় ধর্মীয় ভাবগাম্ভির্য্যরে মধ্যদিয়ে দোল উৎসব অনুষ্ঠিত

নিজ সংবাদ ॥ কুষ্টিয়ায় ধর্মীয় ভাবগাম্ভির্য্যরে মধ্যদিয়ে দোল উৎসব অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৯ মার্চ সোমবার বিকেল থেকে কুষ্টিয়া শহরের কেন্দ্রীয় মন্দির শ্রী শ্রী গোপীনাথ জিউর মন্দিরে শতশত ভক্তবৃন্দ এ উৎসবে অংশ গ্রহণ করেন। এ সময় ভক্তবৃন্দ রাধা-গোবিন্দকে আবির লাগিয়ে একে অপরের মুখে আবির লাগান ও মিষ্টি মুখ করেন। এদিকে কুষ্টিয়া শহরের চর আমলাপাড়া ১৭ হাঁত উচ্চতা বিশিষ্ট কালি পূজা মন্দির প্রাঙ্গনে প্রথম বারের মত উত্তর আমলাপাড়া হরি সংঘ’র উদ্যোগে এ দোল উৎসব অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়াও বিভিন্ন মন্দিরে এ দোল উৎসব অনুষ্ঠিত হয়।

করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা ৩৮২৮

ঢাকা অফিস ॥ চীন থেকে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে বিশ্বজুড়ে মারা গেছে ৩ হাজার ৮২৮ জন। শুধু চীনেই মৃতের সংখ্যা ৩ হাজার ১১৯ জন। চীনের বাইরে বাংলাদেশসহ আরও ১০৭ দেশে ছড়িয়ে পড়েছে এ ভাইরাস। এসব দেশে মারা গেছে আরও ৭০৯ জন। খবর বিবিসি, রয়টার্স ও আলজাজিরার। এ ভাইরাসে বিশ্বজুড়ে আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ৯ হাজার ৯৭৭ জনে দাঁড়িয়েছে। চীনে আক্রান্তের সংখ্যা ৮০ হাজার ৭৩৫ জন। চীনের বাইরে ২৯ হাজার ২৪২ জন। আক্রান্তদের মধ্যে ৬ হাজার ১২৯ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। এখন পর্যন্ত ৬২ হাজার ২৪০ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। চীনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশন জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছে ৪০ জন এবং মারা গেছে ২২ জন। চীনের হুবেইপ্রদেশের রাজধানী উহানের একটি জীবন্ত বুনোপ্রাণী বিক্রির বাজার থেকে ভাইরাসটির উৎপত্তি হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। চীনের হুবেইপ্রদেশকে পুরো দেশ থেকে বিচ্ছিন্ন করে রাখা হয়েছে। ওই অঞ্চলের সঙ্গে সব ধরনের যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। চীনের সব প্রদেশসহ বর্তমানে বিশ্বের ১০৭ দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। চীনের বাইরে এ পর্যন্ত ২৯ হাজার ২৪২ জন শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ইতালিতে ৭ হাজার ৩৭৫ জন, যা চীনের বাইরে সর্বোচ্চ। ভাইরাস সংক্রমণের কারণে চীন ভ্রমণে সতর্কতা, নিষেধাজ্ঞা জারি এবং কড়াকড়ি আরোপ করেছে বিশ্বের প্রায় সব দেশ। ভাইরাসের কারণে বিশ্বের অনেক দেশ তাদের নাগরিকদের চীন ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে। চীনে অধিকাংশ বিমান সংস্থার ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে। এ ছাড়া বাংলাদেশেও করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। তিনজন এই ভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে বলে রোববার জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতরের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর)। এদের মধ্যে দুই পুরুষ ও একজন নারী। রবিবার দুপুরে এ তথ্য জানিয়েছেন আইইডিসিআর পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা। তিনি জানান, রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করে তাদের শরীরে এই ভাইরাসের উপস্থিতি নিশ্চিত হওয়া গেছে। এদের মধ্যে দুজন ইতালি থেকে এসেছেন। এদের বয়স ২০-৩৫ বছরের মধ্যে। এ তিনজন ছাড়াও আরও দুজনকে করোনা আক্রান্ত সন্দেহে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। তিনি জানান, আক্রান্ত রোগীদের হাসপাতালে রেখে লক্ষণ-উপসর্গভিত্তিক চিকিৎসা প্রদান করা হচ্ছে। তারা বর্তমানে ভালো আছেন। এই বিষয়ে আতঙ্কিত হওয়ার কোনো কারণ নেই। রাস্তাঘাটে চলাফেরায় সাবধানতা অবলম্বনের পরামর্শ দেন তিনি। এদিকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে সৌদি আরবে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

স্থানীয় সময় সোমবার থেকে এ নির্দেশনা কার্যকর হবে। পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত দেশটির বিদ্যালয়, বিশ্ববিদ্যালয়সহ সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছে দেশটির সরকার। একই দিন দেশটির পূর্ব কাতিফ রাজ্য পুরোপুরি কোয়ারেন্টাইন করে রাখার ঘোষণা দেয়া হয়েছে। ওই এলাকায় একদিনে ৪ জন করোনাভাইরাস আক্রান্তের পরিপ্রেক্ষিতে এ ঘোষণা দেয়া হয়েছে। এই ৪ জনসহ সৌদি আরবে মোট ১১ জন আক্রান্ত হয়েছে। সৌদি আরবের শিক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরামর্শ মোতাবেক ‘প্রতিরোধ ও সতর্কতামূলক’ পদক্ষেপ হিসেবে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। যাতে ছাত্র ও কর্মকর্তাদের এই ভাইরাসের হাত থেকে রক্ষা করা যায়। পাবলিক ও প্রাইভেট, কারিগরি ও ভোকেশনালসহ সব রকমের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এই নির্দেশনার আওতায় থাকবে বলে এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে। অন্যদিকে করোনাভাইরাসে ব্যাপকভাবে আক্রান্ত হয়েছে ইউরোপের দেশ ইতালি। এ অবস্থায় দেশটির সরকার দেশের উত্তরাঞ্চলের অধিকাংশ এলাকাকে লকডাউন (অরুুদ্ধ) করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। উত্তর ইতালির লম্বার্দি অঞ্চলসহ এবং ১৪ প্রদেশে অন্তত ১ কোটি ৬০ লাখ মানুষকে বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী। এপ্রিল মাসের প্রথম দিক পর্যন্ত এ অবস্থা বিদ্যমান থাকবে। দেশটিতে করোনাভাইরাস দ্রুত ছড়িয়ে পড়ায়- জিম, পুল, মিউজিয়াম এবং স্কি রিসোর্টও বন্ধ করে দেয়া হবে। এই ভাইরাসে ইতালিতে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে ৩৬৬ জনে দাঁড়িয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় সেখানে নিহত হয়েছে ১৩৩ জন এবং আক্রান্ত হয়েছে ১ হাজার ৪৯২ জন। এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্ত হয়েছে ৭ হাজার ৩৭৫।

 

করোনাভাইরাস 

মুজিববর্ষের ১৭ মার্চের মূল অনুষ্ঠান স্থগিত

ঢাকা অফিস ॥ প্রায় একশ দেশে ছড়িয়ে পড়ার পর বাংলাদেশেও নভেল করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঘটায় মুজিববর্ষের অনুষ্ঠান কাটছাঁট করা হয়েছে। আগামী ১৭ মার্চ জাতীয় প্যারেড স্কয়ারের মূল অনুষ্ঠান স্থগিতের সিদ্ধান্ত নিয়েছে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় কমিটি। সেদিন ছোট আকারে সীমিত পরিসরে উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আয়োজন করা হবে বলে জানিয়েছেন কমিটির সদস্য সচিব কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “১৭ মার্চের প্রোগ্রাম আপাতত স্থগিত। তা পরে করা হবে।” রোববার বিকালে বাংলাদেশে তিনজন কভিড-১৯ রোগী ধরা পড়ার কথা আইইডিসিআর জানানোর পর রাতে বৈঠকে বসে জাতীয় কমিটি। গণভবনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় কমিটি ও বাস্তবায়ন জাতীয় কমিটির এই সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয় কমিটির সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। জাতীয় কমিটির সদস্য শেখ রেহানাও বৈঠকে ছিলেন। ওই সভায় অনুষ্ঠান সীমিত করার নির্দেশনা আসে জানিয়ে কামাল চৌধুরী বলেন, “বর্তমানে করোনাভাইরাসের কারণে যে বিশ্ব পরিস্থিতি, সে পরিস্থিতি বিবেচনায়  এনে….।” “আপনারা জানেন যে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জনস্বার্থকে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেন। জনগণ যেন কষ্ট না পায়, সেজন্যই সামগ্রিক বিষয় বিবেচনা করে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।” বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ১৭ মার্চ জাতীয় প্যারেড স্কয়ারে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপনে মুজিববর্ষ উদ্বোধনের মূল অনুষ্ঠান হওয়ার কথা ছিল। ১৭ মার্চ উদ্বোধন অনুষ্ঠানটি জাতীয় প্যারেড স্কয়ারে না হয়ে অন্য স্থানে হবে। শেখ হাসিনা কখন, কোথায় এই আয়োজন উদ্বোধন করবেন, তা পরে জানানো হবে বলে জানান কামাল নাসের। প্যারেড স্কয়ারের অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পাশাপাশি বিদেশি অতিথিদেরও যোগ দেওয়ার কথা ছিল। বিদেশি অতিথিদের যোগ দেওয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে কামাল চৌধুরী বলেন, “প্রোগ্রামটি পরে বড় আকারে হবে। এই আয়োজনটি পরে ভিন্নমাত্রায় করা হবে।” মুজিববর্ষে অনুষ্ঠান কাটছাঁটের সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। মুজিববর্ষে অনুষ্ঠান কাটছাঁটের সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। তিনি বলেন, “ব্যাপক জনসমাগম এড়িয়ে উদযাপন করা হবে মুজিববর্ষের অনুষ্ঠান। ছোট আকারে সীমিত পরিসরে আয়োজন করা হবে। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সীমিত আকারে আয়োজন করা হবে।” ১৭ মার্চ সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে ঢাকা শহর ও বিভিন্ন স্থানে ৩১ বার তোপধ্বনি, সব সরকারি, বেসরকারি ভবনে জাতীয় পতাকা উত্তোলন দিয়ে দিবসের কর্মসূচি শুরুর কথা। ধানমন্ডিতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন, টুঙ্গীপাড়ায় জাতীয় শিশু দিবসের অনুষ্ঠানের পাশাপাশি দেশব্যাপী বিশেষ দোয়া ও প্রার্থনা আয়োজন করা হবে। এদিন জেলা ও উপজেলায় বিভিন্ন দপ্তর, সংস্থা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সমন্বয়ে জন্মশতবার্ষিকীর উদ্বোধন অনুষ্ঠান আয়োজন করা হবে। কামাল চৌধুরী বলেন, “আমরা বছরব্যাপী অনুষ্ঠানমালা তৈরি করেছি। ১৭ মার্চে যে অনুষ্ঠান এবং সারা বাংলাদেশে যে অনুষ্ঠানগুলো হবে। তবে সেখানে বড় আকারে জনসমাগম পরিহার করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। অন্যান্য কর্মসূচি চলবে সীমিত আকারে।”

পোড়াদহে আর্ন্তজাতিক নারী দিবস উপলক্ষে উঠান বৈঠক

“নারীর অধিকার প্রতিষ্ঠা করি, সমতার সমাজ গড়ে তুলি” প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে আর্ন্তজাতিক নারী দিবস উপলক্ষে গতকাল বিকালে সাফ’র আয়োজনে কুষ্টিয়ার পোড়াদহের  চিথলিয়া গ্রামে এক উঠান  বৈঠক ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সাফ’র নির্বাহী পরিচালক মীর আব্দুর রাজ্জাকের পরিচালনায় মহিমা খাতুনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন হোমিও ডাক্তার মোছা: আফরোজা খাতুন। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন পুলিশ সদস্য তহমিনা খাতুন, বীমা কর্মকর্তা মিনোতি রাণী দে, সফল উদ্যোক্তা মমতাজ নাহার মিনু। বক্তাগণ আজকের প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে নিজ নিজ কর্মক্ষেত্রের সফলতা তুলে ধরে বলেন, জানা শেখার কোন বয়সমীমা নেই, আমরা নারী আমরা মায়ের জাত আমাদের অনেক দায়িত্ব। নিজ অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে হলে নিজের দায়িত্ববোধও জাগ্রত করতে হবে, শাণিত করতে হবে। আমাদের আত্বপ্রত্যয়ী ও আত্মনির্ভশীল হতে হবে। আত্বশক্তিতে বলিয়ান হয়ে পরিবার ও সমাজে মাথা উচুঁ করে দাড়াতে হবে। পুরুষের সাথে সমতার মর্যাদার সমাজ গড়ে তুলায় ভূমিকা রাখতে হবে। আধিকার কেউ দেয় না যোগ্যতা অর্জনের মাধ্যমে অধিকার আদায় করে নিতে হয়। তামাকজাত ও মাদক দ্রব্যের ক্ষতি সর্ম্পকে ক্ষতি সর্ম্পকে সচেতন করা হয়। বর্তমানে করোনা ভাইরাস সর্ম্পকে ভীত না হয়ে সবার মধ্যে সচেতনতাবোধ জাগ্রত করার মাধ্যমে প্রতিরোধী মানুসিকতা গড়ে তুলতে হবে। বাল্যবিবাহ না বলতে হবে। আলোচনা শেষে সবাইকে সাফ‘র পক্ষ থেকে নারী দিবসের পোষ্টার ও ধূমপান বিরোধী স্টিকার ও মাদক বিরোধী পতাকা প্রদান করা হয়। ছাত্রীদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, কামরুন্নাহার ক্যামি ও তামান্না খাতুন। সার্বিক সহযোগিতা করেন মোছা: ইতি খাতুন ও মিসু খাতুন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

রোহিঙ্গাদের নিজদেশে প্রত্যাবাসনে মিয়ানমারের ওপর আন্তর্জাতিক চাপ বাড়ানোর আহ্বান ফ্রান্সের

ঢাকা অফিস ॥ সফররত ফ্রান্সের সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের মন্ত্রী ফ্লোরেন্স পারলি রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে ফেরত নিয়ে যাওয়ায় মিয়ানমারের ওপর আন্তর্জাতিক চাপ বৃদ্ধির ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন। ফ্লোরেন্স পারলি গতকাল সোমবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে তাঁর তেজগাঁওস্থ কার্যালয়ে (পিএমও) সৌজন্য সাক্ষাতকালে আরো বলেন, ‘তাঁর দেশ রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের প্রতি সমর্থন অব্যাহত রাখবে।’ ‘আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের উচিত মিয়ানমারের ওপর আরো চাপ সৃষ্টি করা, যাতে, তারা বাংলাদেশ থেকে নিজেদের রোহিঙ্গা নাগরিকদের দেশে ফিরিয়ে নেয়,’ প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বৈঠকের পরে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে ফ্রান্সের মন্ত্রীর এই বক্তব্য উদ্ধৃত করেন। প্রেস সচিব বলেন, রোহিঙ্গাদেরকে বাংলাদেশে আশ্রয়দানসহ বিভিন্ন সহায়তা দেয়ায় সরকারের উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেছেন ফ্লোরেন্স পারলি। বাংলাদেশের সঙ্গে ফ্রান্সের বিভিন্ন ইস্যুতে মতৈক্য থাকার উল্লেখ করে ফ্রান্সের মন্ত্রী বলেন, আন্তর্জাতিক ফোরামে বাংলাদেশ ও ফ্রান্স বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিশেষ করে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে একযোগে কাজ করছে। ফ্লোরেন্স পারলি লালমনিরহাটের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন অ্যান্ড অ্যারোস্পেস ইউনিভার্সিটিতে শিক্ষার্থীদেরকে প্রশিক্ষণ প্রদানের বিষয়ে তাঁর দেশের আগ্রহ ব্যক্ত করেন। জবাবে প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ ও ফ্রান্স এর মধ্যে বিদ্যমান সামরিক সহযোগিতায় সন্তোষ প্রকাশ করেন এবং এক্ষেত্রে আরো সহযোগিতা জোরদারে গুরুত্বারোপ করেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা এই খাতে ফ্রান্সের সঙ্গে আরো সহযোগিতা দেখতে চাই।’ শেখ হাসিনা বলেন, তাঁর সরকার প্রতিরক্ষা খাতে প্রশিক্ষণের ওপর সর্বাধিক গুরুত্বারোপ করেছে। তাঁর দেশের কোম্পানী থ্যালেস অ্যালানিয়া স্পেস স্থাপিত বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর প্রসঙ্গে ফ্রান্সের মন্ত্রী বলেন, এটি প্রত্যাশা অনুযায়ী কাজ করছে। জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর লাইফটাইম ১৫ বছর এবং তার সরকার বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ উৎক্ষেপণ করবে। আলোচনাকালে করোনাভাইরাসের প্রসঙ্গ উঠলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে ইতালি ফেরত দুইজনসহ মোট তিনজনকে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত চিহ্নিত করা হয়েছে। তাদেরকে ইতোমধ্যেই হাসপাতালে আলাদাভাবে (কোয়ারান্টাইনে) রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে বলেও জানান শেখ হাসিনা। এ সময় ফ্লোরেন্স পারলিও ফ্রান্সে করোনা ভাইরাসের পরিস্থিতির কথা তুলে ধরেন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকী উদযাপন প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনা ভাইরাসের কারণে উদ্ভূত পরিস্থিতি এবং জনস্বাস্থ্যের কথা বিবেচনা করে এটি ভিন্ন আঙ্গিকে উদযাপন করা হবে। প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে ফ্রান্সের সরকার, জনগণ এবং আঁন্দ্রে মাঁরলো’র মত নেতৃস্থানীয় বুদ্ধিজীবীদের সমর্থনের কথা কৃতজ্ঞতার সঙ্গে স্মরণ করেন। প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউস, প্রতিরক্ষা সচিব আব্দুল্লাহ আল মহসিন চৌধুরি, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসার (পিএসও) লেফটেন্যান্ট জেনারেল মো. মাহফুজুর রহমান এবং বাংলাদেশে নিযুক্ত ফ্রান্সের রাষ্ট্রদূত জ্যাঁ মারিও সুশোও এ সময় উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া ফরাসি মন্ত্রীর কূটনৈতিক উপদেষ্টা জেভিয়ার চ্যাটেল, সামরিক উপদেষ্টা ক্যাপ্টেন ক্রিস্টোফার ক্লুজেল এবং শিল্প উপদেষ্টা হার্ভে গ্র্যানজিঁয়ে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন।

দৌলতপুরে দুর্নীতি বিরোধী জাতীয় বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

দৌলতপর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে দুর্নীতি বিরোধী জাতীয় বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষার্থীদের মধ্যে এ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। ‘দুর্নীতি বিরোধী মনোভাব সৃষ্টিতে পরিবারের ভূমিকাই মুখ্য’ শীর্ষক বিতর্ক প্রতিযোগিতা উদ্বোধন করেন দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তার। সভাপতিত্ব করেন, দৌলতপুর দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি আলহাজ¦ নজরুল ইসলাম। এসময় উপস্থিত ছিলেন, দৌলতপুর মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সরদার মো. আবু সালেক, দৌলতপুর দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক উপাধ্যক্ষ আবু সাঈদ মো. আজমল হোসেন, দৌলতপুর কলেজের বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সরকার আমিরুল ইসলামসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, শিক্ষকবৃন্দ ও বিতর্ক প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়া বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। দৌলতপুর উপজেলা প্রশাসনের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় দুর্নীতি দমন কমিশন দেশব্যাপী এ বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজন করে।

কুষ্টিয়া বড় বাজার সার্বজনীন পূজা মন্দির’র নবনির্বাচিত কমিটি অনুমোদন

নিজ সংবাদ ॥ কুষ্টিয়া বড় বাজার সার্বজনীন পূজা মন্দির’র নবনির্বাচিত ত্রি-বার্ষিক কমিটি অনুমোদিত হয়েছে। ৭ মার্চ ২০২০ তারিখ সন্ধ্যায় কুষ্টিয়া বড় বাজার সার্বজনীন পূজা মন্দির প্রাঙ্গনে মন্দির কমিটির এক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বিশ্বনাথ সাহাকে সভাপতি এবং উত্তম কুমার সাহাকে সাধারণ সম্পাদক করে সর্বসম্মতিক্রমে এ কমিটি অনুমোদিত হয়। পূর্ণাঙ্গ কমিটির নেতৃবৃন্দরা হলেন, প্রধান উপদেষ্টা অশোক সাহা, উপদেষ্টা মন্ডলী বৈদ্যনাথ সাহা, শ্যামল কুমার সাহা, বিদ্যুৎ কুমার সাহা, পবন সরাফ (পাপ্পু), দিব্য জ্যোতি পাল, দিলীপ কুমার সাহা, পিযুষ সাহা, শৈলেন্দ্রনাথ সাহা, বুদ্ধু কুন্ডু, বিজয় কাশেরা, সুভাষ চন্দ্র পাল, অসিম কুমার সাহা (কালা), সুভাষ চন্দ্র সাহা (বাঁশি), অসিম সাহা (বাণিজ্য বিতান), জগন্নাথ সাহা ও প্রনব কুমার সাহা। আইন উপদেষ্টা ব্যারিস্টার গৌরব চাকী। সভাপতি বিশ্বনাথ সাহা, সহ-সভাপতি স্বপন কুমার সাহা, বিশ্বনাথ সাহা, অজয় সুরেকা, ডাঃ বিশ্বনাথ পাল, ভজন কুমার সাহা, অনন্ত সাহা, সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমার সাহা, যুগ্ম-সম্পাদক প্রবীর কুমার সাহা, রমেন পোদ্দার (টিটু), সঞ্জয় সাহা (মিঠু), সহ-সম্পাদক উত্তম খৈতান (লাল), ডিম্পল ক্যাশেরা, তপন ঘোষ, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রমদ আগরওয়াল, বিজন সাহা, কৃষ্ণ সাহা, উজ্জ্বল দত্ত, প্রচার সম্পাদক সঞ্জীব সাহা (ঝন্টু), সত্য দাস (ফাল্গুনী সু ষ্টোর), দপ্তর সম্পাদক মনোজ সাহা, কার্ত্তিক সাহা, ধর্মীয় সম্পাদক রাম চন্দ্র দেবরায়, নির্বাহী সদস্য প্রভাষ চন্দ্র পাল, প্রকাশ কুমার সাহা, তপন পাল, বরেন পোদ্দার, স্বপন সাহা, রাজীব সাহা, মনোজ আগরওয়ালা, বিনোদ আগরওয়ালা, উত্তম পাল, রাজ কুমার পাল (বাণী), শ্যামল পাল, ভোলানাথ বসু, বিশু সাহা, কাঞ্চন সাহা, আকাশ সাহা, দীনেশ সাহা, মনোজ সেন, শাওন সাহা, মিলন ঘোষ, জয়দেব পোদ্দার ও শিশির সাহা।

স্মৃতির পাতায় খোকন বিশ্বাস

গত ৮ মার্চ ছিলো বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ এসিদুর রহমান খোকন বিশ্বাসের ২১তম শাহাদৎ বার্ষিকী। তিনি ছিলেন একজন নির্ভিক  দেশ প্রেমিক ও সমাজসেবক। মুক্তিযোদ্ধা এসিদুর রহমান খোকন বিশ্বাস ১৯৯৯ সালের ১৬ ফেব্র“য়ারী জাতীয় পতাকার রুপকার নিউক্লিয়াসের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা জাতীয় বীর কাজী আরেফ আহামেদ সহ বীর মুক্তিযোদ্ধা লোকমান হোসেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক দৌলতপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ্যাডঃ ইয়াকুব আলী, স্থানীয় নেতা শহীদ শমসের আলী মন্ডল ও ইসরাইল হোসেন তফসেরকে এক সন্ত্রাস বিরোধী সমাবেশে প্রকাশ্যে দিনের বেলায় সন্ত্রাসীরা ব্রাশফায়ার করে হত্যা করে। এই ৫ জন দেশ প্রেমিক ও জাতীয় নেতাকে হত্যার ঠিক ২১ দিনের মাথায় ৮ মার্চ ১৯৯৯ এই সন্ত্রাসীরাই বীর মুক্তিযোদ্ধা এসিদুর রহমান খোকন বিশ্বাসকে দিনের বেলায় গ্রামের বাড়ী  মিরপুর উপজেলার পুটিমারী গ্রাম থেকে তাকে অপহরণ করে নিয়ে যায় এবং হত্যা করে। কোথাই তার লাশ আছে কেউ বলতে পারত না। দীর্ঘ ৭ মাস পরে পরিবারের লোকজন জানতে পারে আলমডাঙ্গা থানার আঠারখাদা মাঠের ভিতর পুতে রাখে সন্ত্রাসীরা। সেখানে পুলিশের সহযোগিতায় তার পরিবারের লোকজন লাশটি উদ্ধার করে। মজার ব্যাপার লাশটি একটুও নষ্ট হয়নি। যেমন মানুষ  সেমনই ছিল। বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলাতে দীর্ঘসময় ধরে এই চরমপন্থী সন্ত্রাসীরা হত্যা খুন গুমের খেলায় মত্ত ছিল। এখানে পুলিশ প্রশাসন সাধারন মানুষের জানমালের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ ছিল। মানুষ অসহায় হয়ে নিরবে দেখতো। হত্যা খুন, চাঁদাবাজী, গ্রামের সুন্দরী মেয়েদের উপর অত্যাচারসহ বসবাসের উপায় ছিলোনা। জনপদ ছিল রক্তস্নাত। রাত হলেই মানুষ পুলিশ ক্যাম্পে আশ্রয় নিতো, গ্রাম ছেড়ে চলে যেত কাছাকাছি শহরের দিকে। কেউ আলমডাঙ্গায় কেউ মিরপুর। সকাল হলে আবার গ্রামের বাড়ীতে মাঠের কাজে আবার সন্ধ্যায় আবার শহরে। এতকষ্ট মানুষের ছিল ওই সময়গুলো। তারই প্রতিবাদকারী ছিল বীর মুক্তিযোদ্ধা এসিদুর রহমান খোকন বিশ্বাস। যে কারনেই তাকে জীবন দিতে হয়েছে এই খুনি সন্ত্রাসীদের হাতে।  গত ৮ মার্চ ছিলো তার ২১তম শাহাদৎ বার্ষিকী। একজন দেশ প্রেমিক মুক্তিযোদ্ধাকে যারা হত্যা করলো তারা সেই সময় কোন না কোনভাবে রাষ্ট্র ক্ষমতার পৃষ্ঠপোষকতা পেয়েছে। রাষ্ট্র ক্ষমতা ব্যবহার করেই প্রশাসনের নাকের ডগাই বসেই এই অপকর্মগুলো করেছে। দুঃখজনক হলেও সত্য সেই সময় রাষ্ট্রের ক্ষমতায় ছিল মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের দল আওয়ামীলীগ। অথচ এতবড় ঘটনা ঘটালো জাতীয় নেতা কাজী আরেফ আহামেদসহ এতগুলো মুক্তিযোদ্ধাকে জীবন দিতে হলো নিশ্চয়ই এখানে কেউ কেউ এই অপশক্তির সাথে কাজ করেছে। আজ ২১ বৎসর পরেও আমরা দেখতে পাই সমাজের দুষ্ট লোকেরা সমাজকে আতংকিত করে, সমাজের ভদ্র মানুষ, ভালো মানুষগুলো নির্যাতনের কাতারেই আছে। আমরা সেই সময় দক্ষিন-পশ্চিমাঞ্চলের সমস্ত সন্ত্রাসীদের বন্দুকের গুলির সামনে দাঁড়িয়ে, রাজপথে লড়াই সংগ্রাম করেছিলাম। সন্ত্রাসীদের কবর দাও মানুষকে মুক্তি দাও। আজ বিভিন্নভাবে আমাদের সেই মানুষগুলোকে পুলিশ দিয়ে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানীসহ নানাভাবে সমাজে হেনস্ত করা হচ্ছে। আর ঐ অপশক্তির সাঙ্গ-পাঙ্গরা সমাজের ক্ষমতাধর হয়েছে। যে কারনে এখনও গ্রামের মানুষরা দখলদারিত্বের বাইরে বের হতে পারেনি। মানুষ তার নিরাপত্তার আলো এখনও শতভাগ নিশ্চিত করতে পারেনি, খুনিরা প্রকাশ্যে বন্দুক উচিয়ে নিয়ে না বেড়াতে পারলেও তাদের অপকর্ম বন্ধ হয়নি। তারা হাট দখল, ঘাট দখল,  টেন্ডার দখল করে কোটি কোটি টাকা লুটপাট করে গুন্ডাবাহিনী লালন পালন করছে শুধুমাত্র দখলদারিত্ব টিকিয়ে রাখার জন্য। এই সমস্ত অপকর্মের বিরুদ্ধে দাড়িয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধা এসিদুর রহমান খোকন বিশ্বাস সমাজকে দখলমুক্ত করতে চেয়েছিলেন, সন্ত্রাসমুক্ত সমাজ প্রতিষ্ঠা করতে  চেয়েছিলেন। তার সেই ত্যাগের বিনিময়ে সমাজ তাকে স্মরণ করবে অনন্ত কাল। শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা এসিদুর রহমান খোকন বিশ্বাসের আত্মার শান্তি কামনা করি।

কারশেদ আলম, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক, জাসদ, মিরপুর উপজেলা শাখা

 

দৌলতপুরে আইন-শৃঙ্খলা উন্নয়ন কমিটির সভা

দৌলতপর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে চোরাচালান নিরোধ, নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ এবং আইন-শৃঙ্খলা উন্নয়ন কমিটির সভা গতকাল সোমবার বেলা ১১টায় দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তারের সভাপতিত্বে উপজেলা পরিষদ কনফারেন্স রুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বক্তব্য রাখেন, দৌলতপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. এজাজ আহমেদ মামুন, দৌলতপুর সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আজগর আলী, জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার ও দৌলতপুর দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি আলহাজ¦ মো. নজরুল ইসলাম, প্রাগপুর ইউপি চেয়ারম্যান আশরাফুজ্জামান মুকুল মাষ্টার, মরিচা ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলমগীর, দৌলতপুর থানার প্রতিনিধি, মহিষকুন্ডি বিজিবি কোম্পানী কমান্ডার সুবেদার জাহাঙ্গীর আলম ও দৌলতপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শরীফুল ইসলাম। সভায় উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সাক্কির আহমেদ, বোয়ালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন বিশ^াস মহি, দৌলতপুর মৎস্য অফিসার খন্দকার সহিদুর রহমান ও মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা ইশরত জাহানসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, শিক্ষকবৃন্দ ও সুধীজন উপস্থিত ছিলেন। সভায় বিগত সভার সার্বিক বিষয় তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন, দৌলতপুর সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আজগর আলী। সভাপতির বক্তব্যে দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তার আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক ও মাদক চোরাচালান বন্ধে বিজিবিসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আরও সক্রিয় ভূমিকা পালনের নির্শেদনা প্রদান করেন।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আইজিপি

সাইবার ক্রাইম দমনে ট্রেনিং, জনবল বৃদ্ধি ও ইকুপমেন্ট সংগ্রহ করা হচ্ছে

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ॥ সাইবার ক্রাইম দমনে পুলিশের জনবল বৃদ্ধি ট্রেনিং ও ইকুপমেন্ট সংগ্রহ করা হচ্ছে। জেলায় জেলায় সাইবার ক্রাইম সেল গঠন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশের আইজি ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী। গতকাল সোমবার সকালে ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর মডেল থানা ভবন উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, ভবিষ্যতে আমাদের বড় চ্যালেঞ্জ হবে সাইবার ক্রাইম। শুধু বাংলাদেশ নয় বর্তমান বিশ্বে সাইবার ক্রাইম সবথেকে আলোচিত ক্রাইম। আমরা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি সাইবার ক্রাইম রোধে জনবল বৃদ্ধির। সেই সাথে ইক্যুপমেন্ট সংগ্রহ করা হচ্ছে। পুলিশের জনবল বৃদ্ধির ব্যাপারে আইজিপি বলেন, আমাদের আশপাশের দেশগুলোতে জনসংখ্যার তুলনায় পুলিশের সংখ্যা বেশি। কিন্তু বাংলাদেশে প্রায় সাড়ে ৮’শ লোকের জন্য একজন পুলিশ। এজন্য আমরা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি পুলিশের জনবল বৃদ্ধির জন্য। প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমরা আবেদন করেছি। উনি নিশ্চয় এটি বিবেচনা করে জনবল বৃদ্ধির চেষ্টা করবেন। এর আগে নব-র্নিমিত কোটচাঁদপুর মডেল থানা ভবন উদ্বোধন করেন। পরে থানায় একটি এ্যাম্বুলেন্স ও একটি পিকআপ ভ্যান প্রদাণ করেন। এসময় ঝিনাইদহ-১ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুল হাই, ঝিনাইদহ-৩ আসনের সংসদ সদস্য শফিকুল আজম খান চঞ্চল, ঝিনাইদহ-৩ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনার, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য খালেদা খানম, খুলনা রেঞ্জ ডিআইজি ড. খঃ মহিদ উদ্দিন, ঝিনাইদহের জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ, পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামানসহ পুলিশ কর্মকর্তা ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

করোনাভাইরাস 

বাংলাদেশের অর্থনীতিতেও ঝুঁকি দেখছে এডিবি

ঢাকা অফিস ॥ চীনে প্রথম দেখা দেওয়া নভেল করোনাভাইরাস বিশ্বের প্রায় একশ দেশে ছড়িয়েছে, সেই তালিকায় রোববারই যোগ হয়েছে বাংলাদেশের নাম। চীনে প্রথম দেখা দেওয়া নভেল করোনাভাইরাস বিশ্বের প্রায় একশ দেশে ছড়িয়েছে, সেই তালিকায় রোববারই যোগ হয়েছে বাংলাদেশের নাম। বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়া নভেল করোনাভাইরাস সম্ভাব্য সবচেয়ে খারাপ দিকে গেলে বাংলাদেশ ৩০২ কোটি ১০ লাখ ডলার পর্যন্ত অর্থনৈতিক ক্ষতির মুখে পড়তে পারে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক-এডিবি। তাদের এক পর্যালোচনায় বলা হয়েছে, বিশ্ববাসী সবচেয়ে ভালোভাবে এই ভাইরাস সংক্রমণ সামাল দিতে পারলে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক ক্ষতি হবে ৮০ লাখ ডলার। আর মোটামুটি ভালোভাবে অর্থাৎ সংক্রমণ তীব্র হওয়ার তিন মাসের মাথায় পরিস্থিতি স্বাভাবিক করা গেলে বাংলাদেশের ক্ষতির পরিমাণ দাঁড়াবে এক কোটি ৬০ লাখ ডলার, যা জিডিপির দশমিক ০১ শতাংশ। এডিবি বলছে, প্রাণঘাতী এই ভাইরাসের বিস্তার এশিয়ার উন্নয়নশীল দেশগুলোর অর্থনীতির ওপর উল্লেখযোগ্য নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে। পর্যটন, ভ্রমণ, বাণিজ্য ও উৎপাদন ব্যবস্থায় ধাক্কা, অভ্যন্তরীণ চাহিদা হ্রাস, সরবরাহ ব্যাহত ও স্বাস্থ্যগত প্রভাবে এই ক্ষতি হবে। “অর্থনৈতিক ক্ষতির মাত্রা কী হবে তা নির্ভর করছে ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব কতটা বিস্তৃত হবে তার ওপর, যা এখনও খুবই অনিশ্চিত।” এডিবির পর্যালোচনায় নভেল করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্ব অর্থনীতির ক্ষতির পরিমাণ ৭৭ বিলিয়ন থেকে ৩৪৭ বিলিয়ন ডলার পর্যন্ত, যা জিডিপির দশমিক ১ থেকে দশমিক ৪ শতাংশ হবে। পরিস্থিতি খুব বেশি খারাপ না হলে, ভাইরাস সংক্রমণ তীব্র মাত্রায় পৌঁছানোর তিন মাসের মাথায় পূর্ব সতর্কতামূলক ব্যবস্থা ও ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার মতো বিধি-নিষেধ কাটতে শুরু করলে বৈশ্বিক ক্ষতির পরিমাণ দাঁড়াবে ১৫৬ বিলিয়ন ডলার, যা বৈশ্বিক জিডিপির দশমিক ২ শতাংশ। ভাইরাস সংক্রমণের এই ধাক্কায় চীন ১০৩ বিলিয়ন ডলার বা জিডিপির দশকি ৮ শতাংশ ক্ষতির মুখে পড়তে পারে। এশিয়ার বাকি উন্নয়নশীল দেশগুলো ২২ বিলিয়ন ডলার বা জিডিপির দশমিক ২ শতাংশ ক্ষতির মুখে পড়বে বলে এডিবির পূর্বাভাস। সংস্থার প্রধান অর্থনীতিবিদ ইয়াসুউকি সয়াডা বলেছেন, “কভিড-১৯ নিয়ে অর্থনৈতিক প্রভাবসহ অনেক দিক দিয়ে অনিশ্চয়তা রয়েছে। ক্ষতির স্পষ্ট চিত্রের জন্য নানা দিক দেখতে হবে। আমরা আশা করছি, এই পর্যালোচনা সরকারগুলোকে প্রাদুর্ভাবের মানবিক ও অর্থনৈতিক ক্ষতি কমিয়ে আনার জন্য যথাযথ প্রস্তুতি ও কার্যকর ব্যবস্থা নিতে সহায়তা করবে।”

দৌলতপুরে মুজিববর্ষ উপলক্ষে দরিদ্র মহিলাদের মাঝে বিজিবি’র সেলাই মেশিন বিতরণ

দৌলতপর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে মুজিববর্ষ উপলক্ষে গরীব, দুস্থ ও দরিদ্র মহিলাদের মাঝে বিজিবি সেলাই মেশিন বিতরণ করেছে। গতকাল সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টায় প্রাগপুর বিজিবি কোম্পানী সদরে সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন, কুষ্টিয়া সেক্টর কমান্ডার কর্ণেল জিয়া সাদাত খান, ৪৭ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্ণেল রফিকুল আলম পিএসসি, উপ-অধিনায়ক মেজর ফয়সাল আহমেদ, দৌলতপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. এজাজ আহমেদ মামুন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, আদাবাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান মকবুল হোসেন, প্রাগপুর ইউপি চেয়ারম্যান আশরাফুজ্জামান মুকুল মাষ্টার, প্রাগপুর বিজিবি কোম্পানী কমান্ডার সুবেদার কাউছার আহমেদ ও মহিষকুন্ডি বিজিবি কোম্পানী কমান্ডার সুবেদার জাহাঙ্গীর আলমসহ আমন্ত্রিত সুধীজন। ৫জন গরীব, দুস্থ ও দরিদ্র মহিলাদের মাঝে বিজিবি সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়।

করোনাভাইরাস

বাংলাদেশ থেকে কাতারে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা

ঢাকা অফিস ॥ বিশ্বজুড়ে প্রাণঘাতী নভেল করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের মধ্যে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে বাংলাদেশসহ ১৪ দেশের নাগরিকদের আপাতত কাতারে প্রবেশ করতে দেবে না দেশটির সরকার। রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়,সোমবার থেকেই এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে বলে রোববার এক ঘোষণায় জানিয়েছে কাতার সরকার। বাংলাদেশ ছাড়াও চীন, মিশর, ভারত, ইরান, ইরাক, লেবানন, নেপাল, পাকিস্তান, ফিলিপিন্স, দক্ষিণ কোরিয়া, শ্রীলংকা, সিরিয়া ও থাইল্যান্ডের নাগরিকরা আপাতত মধ্যপ্রাচ্যের দেশ কাতারে প্রবেশ করতে পারবেন না। বাংলাদেশে প্রথমবারের মত তিনজনের দেহে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হওয়ার পর কাতার সরকারের এ ঘোষণা এলো। কাতারেও রোববার আরও তিনজন নতুন রোগী ধরা পড়েছে। সব মিলিয়ে মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটিতে মোট ১৫ জন এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন বলে আলআরাবিয়ার এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।  কাতার এয়ারওয়েজ ইতোমধ্যে ইতালির সঙ্গে সব ফ্লাইট চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে। এছাড়া চীনের বেশ কিছু বিমানবন্দরের সঙ্গে কাতারের বিমান যোগাযোগ আপাতত বন্ধ। গতবছরের শেষে চীনের উহান থেকে ছড়াতে শুরু করা নভেল করোনাভাইরাস ইতোমধ্যে শতাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়েছে, আক্রান্ত হয়েছে এক লাখ আট হাজারের বেশি মানুষ। এ ভাইরাসের সংক্রমণে ফ্লুর মত উপসর্গ নিয়ে যে রোগ হচ্ছে, সেই কভিড-১৯ এ এ পর্যন্ত মারা গেছেন তিন হাজার আটশর বেশি মানুষ।

ধরা পড়েছিল আগেই, সরকার চেপে রেখেছিল – ফখরুল

ঢাকা অফিস ॥ বাংলাদেশে নতুন করোনাভাইরাসের সংক্রমণের ঘটনা আগেই শনাক্ত হলেও মুজিববর্ষের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিদেশি অতিথিদের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে সরকার এতদিন খবরটি গোপন রেখেছিল বলে মনে করেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। রাজধানীতে সোমবার দুপুরে এক অনুষ্ঠানে কোভিড-১৯ নামে নতুন এ রোগ প্রতিরোধে সরকার যথাযথ ব্যবস্থা নেয়নি বলেও বিএনপি মহাসচিব অভিযোগ তুলেন। মির্জা ফখরুল বলেন, “আমাদের সরকার এই করোনাভাইরাস নিয়ে এতোদিন কোনো কিছুই বলেনি এবং তারা খুঁজেও পায়নি। কী কারণে খুঁজে পায়নি জানি না। হঠাৎ করে কালকে খোঁজে পেয়েছে। এটা কী এমন যে যখন বিদেশি অতিথিরা আসতে অপরাগতা প্রকাশ করলেন তখনই এই তিন জনের নাম আসল? আমি জানি না। “তবে আমার ধারণা, তারা পুরো জিনিসটাকে গোপন করার চেষ্টা করেছে। আমাদের এই রোগ বাংলাদেশে অনেক আগেই এসেছে বলে অনেকেরই ধারণা এবং সেই ধারণাগুলো সত্যিকার অর্থে এখন প্রমাণিত হতে যাচ্ছে।” গত ডিসেম্বরের শেষদিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান শহর থেকে নভেল করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শুরু হয়, যা ইতোমধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে প্রায় ১০০ দেশ ও অঞ্চলে। বিশ্বজুড়ে ১ লাখ ৫ হাজারের বেশি মানুষ এ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন; মৃত্যু হয়েছে ৩ হাজার ৫৯৫ জনের। এর মধ্যে রোববার বিকালে বাংলাদেশে প্রথম নভেল করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঘটনা নিশ্চিত করেছে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান-আইইডিসিআর। আক্রান্ত তিনজনের মধ্যে দুজন ইতালির দুটি শহর থেকে সম্প্রতি দেশে ফিরেছেন। তাদের একজনের সংস্পর্শে আসায় পরিবারের এক সদস্য আক্রান্ত হয়েছেন। আইইডিসিআরের পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা বলেছেন, তাদের সবার অবস্থাই স্থিতিশীল। তিনজনকেই হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এরপর সন্ধ্যায় আগামী ১৭ মার্চ জাতীয় প্যারেড স্কয়ার অনুষ্ঠেয় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠান কাটছাঁটের ঘোষণা আসে। সেদিন ছোট আকারে সীমিত পরিসরে অনুষ্ঠানে আয়োজন করা হবে। ওই অনুষ্ঠানে প্রতিবেশী ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীসহ বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রনায়কদের আমন্ত্রণ করেছিল সরকার। বিএনপি মহাসচিব বলেন, “আমরা মনে করি যে, এই বিষয়ে যথাযথ যেসব ব্যবস্থা নেওয়া দরকার সেই ব্যবস্থাগুলো নেওয়া হয়নি। সকল বন্দরে পর্যাপ্ত ‘স্ক্যানিংয়ের’ ব্যবস্থা রাখার পাশাপাশি মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরিতে বিশেষ উদ্যোগ নেওয়ার দাবি জানান তিনি। “একইসঙ্গে এই রোগের ট্রিটমেন্টের জন্য বিশেষায়িত হাসপাতাল সুনির্দিষ্ট করে দেওয়া দরকার যাতে করে কেউ এই রোগে আক্রান্ত হলে সেখানে গিয়ে উপস্থিত হতে পারেন। আমরা মনে করি যে, এটাকে অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে নিয়ে সরকারের ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিত।” বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সাবেক মন্ত্রী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের লেখা ‘প্রগতি ও সত্যের সন্ধানে’ ও ‘মূল্যবোধ ও অবক্ষয়ের খ-চিত্র’ নামে দুটি বইয়ের প্রকাশনা উপলক্ষে জাতীয় প্রেস ক্লাবের আব্দুস সালাম হলে এ অনুষ্ঠান হয়। ‘দি ইউনিভার্সেল একাডেমি’ বই দুটি প্রকাশ করেছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক এমাজউদ্দীন আহমদের সভাপতিত্বে ও সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার খন্দকার মারুফ হোসেনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে লেখক ছাড়াও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক আনোয়ারউল্লাহ চৌধুরী, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক খন্দকার মুসতাহিদুর রহমান, দি ডেইলি ফাইন্যান্সিয়াল হেরাল্ডের সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ, জাতীয় প্রেস প্রেস ক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আবদাল আহমেদ ও প্রকাশক শিহাব উদ্দীন ভুঁইয়া বক্তব্য দেন।

আক্রান্ত একজনের সংস্পর্শে আসা ৪০ জন পর্যবেক্ষণে

ঢাকা অফিস ॥ বাংলাদেশে যে তিনজন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন তাদের একজনের সংস্পর্শে এসেছেন এমন ৪০ জনকে তাদের বাড়িতেই পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব আসাদুল হক। সোমবার মন্ত্রিসভার বৈঠকের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নে তিনি এ তথ্য জানান। তবে আক্রান্ত বাকি দুইজনের সংস্পর্শে আসায় কতজনকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে, সে বিষয়ে কোনো তথ্য দিতে পারেননি তিনি। মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সোমবার আসাদুলকে সঙ্গে নিয়েই মন্ত্রিসভার বৈঠকের সিদ্ধান্ত জানাতে আসেন। তারা দুজনেই বলেন, উদ্ভূত পরিস্থিতিতে বড় ধরনের জন সমাগমের অনুষ্ঠান এড়ানোর নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত তিনজন রোগী সনাক্ত হয়েছে বলে রোববার সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়। তাদের মধ্যে দুজন পুরুষ সম্প্রতি ইতালির দুটি শহর থেকে দেশে ফিরেছেন। আর তাদের একজনের সংস্পর্শে এসে পরিবারের আরেক নারী সদস্য আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের সবার অবস্থাই স্থিতিশীল এবং তিনজনকেই হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে বলে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান-আইইডিসিআর জানিয়েছে। ওই দুইজনের সংস্পর্শে আসা আরও তিনজনকে আইসোলেশনে এবং একজনকে হাসপাতালে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন আইইডিসিআরের পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা। বাংলাদেশে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে কি না জানতে চাইলে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব আসাদুল হক সোমবার সাংবাদিকদের বলেন, “অবশ্যই আছে। এই আশঙ্কা রোধের জন্য আমরা ব্যবস্থাও করেছি। তাদের কন্ট্রাক্ট ট্র্যাকিং করে কোথায় গেছে, কাদের সঙ্গে মিশেছে, সবকিছু করে আমরা প্রথম জনের জন্য ৪০ জনকে ট্র্যাক করেছি, কোয়ারেন্টিনের ব্যবস্থা করেছি। প্রটোকল অনুযায়ী ব্যবস্থা হয়েছে। কোয়ারেন্টাইনের ব্যবস্থা হয়েছে, ট্রিটমেন্টের ব্যবস্থা হয়েছে।” বিমানবন্দরে হেলথ স্ক্রিনিংয়ে শিথিলতার অভিযোগ নিয়ে প্রশ্ন করা হলে সচিব বলেন, “এই ভাইরাসের প্রকৃতিটা একটু জানা দরকার। ভাইরাস যদি থাকে তবে সঙ্গে সঙ্গে জ্বর আসবে না, ধরা পড়বে না বা উপসর্গ দেখা দেবে না। ১৪ দিন পর্যন্ত এটা উপসর্গ দেখা নাও দিতে পারে। যখন উনি দেশে এসেছেন কোনো উপসর্গ ছিল না। এটা শনাক্ত করার কোনো ব্যবস্থা নেই। “স্ক্যানিংয়ে তার জ্বর ধরা পড়বে নাÑ তাই যে কেউ চলে আসতে পারবে। আমরা ব্যবস্থা করেছি যে, তাদের (বিদেশ ফেরতযাত্রী) একটা লোকেটর ফর্ম দিয়ে দেওয়া হয়েছে। সেখানে সে কোথায় থাকবে কীভাবে থাকবে সেটা লেখা থাকবে। যদি কোনো উপসর্গ দেখা দেয় সে যোগাযোগ করবে। “এর ভিত্তিতে মোবাইল ট্র্যাক করি, কোন দেশ থেকে এল, কোথায় আছেৃ তারাও যোগাযোগ করে হটলাইনে যে, জ্বর আসছে, কাশি হচ্ছে। এভাবে আমরা ১০০ জনের মতো লোককে টেস্ট করেছি। এর মধ্যে বিদেশ থেকে আসা দুইজনের শরীরে ধরা পড়েছে।” শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করা হবে কি না- এ প্রশ্নে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব বলেন, “এভাবে আতঙ্ক ছড়ানোর কোনো যুক্তি ও ভিত্তি নেই। হাজার হাজার লোক আক্রান্ত হয়েছে, গেলেই বিপদে পড়বে এমন কিছু নয়।” এ বিষয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, “শিক্ষামন্ত্রী মহোদয়ও গতকাল মিটিংয়ে ছিলেন। অলরেডি শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে নির্দেশনা দিয়ে দেওয়া হয়েছে, যাতে তারা এই জিনিসগুলো লুক আফটার করে, যথাযথ ব্যবস্থা নেয়।”

কুষ্টিয়া পৌরসভার ১৬নং ওয়ার্ডে রফিক মোল্লা মাল্টিপারপাস কমিউনিটি রিসোর্স সেন্টারের উদ্বোধন করলেন মেয়র আনোয়ার আলী

গতকাল সোমবার দুপুরে কুষ্টিয়া পৌরসভার ১৬ নং ওয়ার্ডে বাড়াদী স্কুল পাড়ায় রফিক মোল্লা মাল্টিপারপাস কমিউনিটি রিসোর্স সেন্টারের উদ্বোধন করলেন কুষ্টিয়া পৌরসভার জননন্দিত মেয়র আনোয়ার আলী। উদ্বোধনকালে মেয়র আনোয়ার আলী বলেন, কুষ্টিয়া পৌরসভায় বাস্তবায়নাধীন প্রান্তিক জনগোষ্ঠির জীবনমান উন্নয়ন প্রকল্পের আর্থিক সহযোগীতায়  এই কমিউনিটি সেন্টার স্থাপন করা হচ্ছে। এর নামকরন করা হয়েছে অত্রাঞ্চলের কৃতি সন্তান রফিক মোল্লা’র নামে কারন  তিনি এই কমিউনিটি সেন্টারের জন্য জমি দান করেছেন । মেয়র আরো বলেন, এই কমিউনিটি সেন্টার নির্মাণ কাজ শেষ হলে অত্রাঞ্চল ও আশেপাশের মানুষের বিভিন্ন অনুষ্ঠান করার জন্য  শহরে কমিউনিটি সেন্টারে আসার দরকার হবে না। পৌরসভা পরিচালিত রফিক মোল্লা মাল্টিপারপাস রিসোর্স সেন্টারে বিভিন্ন অনুষ্ঠান করতে পারবে। তিনি আরো বলেন, এই প্রকল্পের মাধ্যমে শিক্ষাবৃত্তি, মাতৃদুগ্ধভাতা, অবকাঠামো উন্নয়ন, ব্যবসা অনুদান সহ নারীর ক্ষমতায়নের জন্য বিভিন্ন ট্রেনিং সহ নানামুখী কার্যক্রম পরিচালিত করে আসছি। এছাড়াও মহিলাদের ট্রেনিংয়ের মাধ্যমে দক্ষতা বৃদ্ধি করে ব্যক্তি জীবন সম্পর্কে সচেতনতার বৃদ্ধি করার জন্য কাজ করা হচ্ছে। মেয়র মায়েদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনার সন্তানকে মানুষের মত মানুষ করে সুন্দর সমাজ বিনির্মানে সবাইকে কাজ করার আহবান জানান। এসময় উপস্থিত ছিলেন পৌরসভার প্যানেল অব মেয়র-০১ মতিয়ার রহমান মজনু, কাউন্সিলর আনিছ কোরাইশী, পিয়ার আলী জোমারত, হেলাল উদ্দিন, পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী ও সদস্য সচিব টিপিবি প্রান্তীক জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়ন প্রকল্প’ কুষ্টিয়া পৌরসভা, সহকারী প্রকৌশলী ওয়াহেদুর রহমান, বস্তি উন্নয়ন কর্মকর্তা একেএম মঞ্জুরুল ইসলাম, উপ-সহকারী প্রকৌশলী সাবিনা ইসলাম, প্রান্তীক জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়ন প্রকল্প’র টাউন ম্যানেজার সেলিম মোড়ল, কমিউনিটি  সেন্টারের জমিদারকারী রফিক মোল্লা ও তার স্ত্রী, সিডিসির ফেডারেশন ও সিডিসির নেতৃবৃন্দসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

প্রথম বারের মত কুষ্টিয়া জেলা আইনজীবী সমিতির উদ্যোগে আন্তর্জাতিক নারী দিবস উদ্যাপন

নিজ সংবাদ ॥ প্রথম বারের মত কুষ্টিয়া জেলা আইনজীবী সমিতির উদ্যোগে আন্তর্জাতিক নারী দিবস উদ্যাপন করা হয়েছে। এ উপলক্ষ্যে দিনব্যাপী নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এর মধ্যে ছিল র‌্যালি, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। জেলা আইনজীবী সমিতির কার্যালয় থেকে সকালে বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি ম্যাজিষ্ট্রেট কোর্ট, ডিসি কোর্ট চত্বরসহ বিভিন্ন স্থান প্রদক্ষিণ করে। র‌্যালি শেষে প্রথম বারের মত দিবসটি পালনের অভিব্যাক্তি লিখে মহিলা আইনজীবীগন একটি রেজিস্ট্রারে স্বাক্ষর করেন।

এরপর বিকেলে এক আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এ্যাডঃ অনুপ কুমার নন্দী। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন কুষ্টিয়ার বিজ্ঞ জিপি এ্যাডঃ আ.স.ম আখতারুজ্জামান মাসুম। নারী দিবসের রূপরেখা পাঠ করেন এ্যাডঃ শীলা বসু (এ.জি.পি)।

বক্তব্য রাখেন জেলা আইনজীবী সমিতির যুগ্ম-সম্পাদক এস.এম মনোয়ার হোসেন মুকুল, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এ্যাডঃ জহুরুল ইসলাম, ব্লাস্ট কুষ্টিয়া ইউনিটের কো-অর্ডিনেটর এ্যাডঃ শংকর মজুমদার, জেলা প্রকল্প অফিসার শ্রাবন্তী মুখার্জী, এ্যাডঃ রোজী প্রমুখ।

অনুষ্ঠানের সার্বিক তত্ত্বাবধান ও অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন জেলা আইনজীবী সমিতির সাংস্কৃতিক সম্পাদক এ্যাডঃ নাজমুন নাহার (এ.জি.পি)। এর আগে আলোচনা সভার শুরুতে কোরআন থেকে তেলাওয়াত ও শ্রীশ্রী গীতা থেকে পাঠ করা হয়। অনুষ্ঠানে নারী আইনজীবীদেরকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান জেলা আইনজীবী সমিতির সম্মানিত সভাপতি এ্যাডঃ অনুপ কুমার নন্দী।

আলোচনা সভা শেষে অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে মহিলা আইনজীবীগনের পরিবেশনায় এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়।