সুষ্ঠু নির্বাচন দাবিতে আন্দোলন চলবে – মির্জা ফখরুল

ঢাকা অফিস ॥ অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের দাবিতে বিএনপির আন্দোলন চলছে এবং এটি অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।বিএনপির ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের চন্দ্রিমা উদ্যানে দলের প্রতিষ্ঠাতা সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মাজার জিয়ারত শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ কথা বলেন।বিএনপি মহাসচিব বলেন, দেশে গণতন্ত্র নেই। মানুষের মতপ্রকাশ করার অধিকার নেই। গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে ও একটি অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচন দাবিতে বিএনপির চলমান আন্দোলন চলবে। ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে এটিই আমাদের প্রত্যয়।মির্জা ফখরুল বলেন, বিরোধী রাজনীতি ও ভিন্ন মতকে সরকার নিশ্চিহ্ন করতে চায়। সে জন্য সব ধরনের চক্রান্ত ও ষড়যন্ত্র অব্যাহত রেখেছে। ভিন্ন মতকে দমনে সরকার সচেষ্ট।এর আগে মির্জা ফখরুল দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতার মাজারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, ড. আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান মো. শাহজাহান, ডা. জেডএম জাহিদ হোসেন, অ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান, মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন, শাহজাহান ওমর, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নুল আবদিন ফারুক, ডা. সিরাজউদ্দীন আহমেদ, যুগ্ম মহাসচিব ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, হাবিব-উন নবী খান সোহেল, খায়রুল কবির খোকন, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, শহীদুল ইসলাম বাবুল, যুবদলের সভাপতি সাইফুল আলম নীরব, সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাহউদ্দিন টুকু, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আবদুল কাদির ভূঁইয়া জুয়েল, মহিলা দলের সাধারণ সম্পাদক সুলতানা আহমেদ, ওলামা দলের সভাপতি মাওলানা শাহ মো. নেসারুল হক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন প্রমুখ।১৯৭৮ সালের ১ সেপ্টেম্বর তৎকালীন রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি প্রতিষ্ঠা করেন। দিনটি উপলক্ষে দলের পক্ষ থেকে নানা কর্মসূচি নেয়া হয়েছে।সকাল ৬টায় নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়সহ সারা দেশে বিএনপির সব কার্যালয়ে দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়েছে। বেলা ৩টায় বিএনপির উদ্যোগে রাজধানীর রমনা ইনস্টিটিউট অব ইঞ্জিনিয়ার্স-বাংলাদেশ মিলনায়তনে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হবে। সভায় বিএনপির সিনিয়র নেতাসহ দেশের বিশিষ্ট ব্যক্তিরা বক্তব্য রাখবেন।

গাংনীতে বিএনপির ৪১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত

গাংনী প্রতিনিধি ॥ মেহেরপুরের গাংনীতে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)র ৪১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে গতকাল রোববার সকাল ১০ টার দিকে গাংনী উপজেলা বিএনপির প্রধান কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন, দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। উপজেলা বিএনপি ও গাংনী পৌর বিএনপি প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালনের আয়োজন করে। আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন, গাংনী পৌর বিএনপির সভাপতি ও গাংনী উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মুরাদ আলী।  প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন সাবেক সংসদ সদস্য ও মেহেরপুর জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আমজাদ হোসেন। এসময় গাংনী উপজেলা বিএনপির সহ সভাপতি আব্দুর রউফ মাষ্টার, দপ্তর সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম,বিএনপি নেতা রবিউল ইসলাম, গাংনী উপজেলা যুবদল সভাপতি আক্তারুজ্জামান, সাধারণ সম্পাদক সাজেদুর রহমান বুলবুল, ছাত্রদল নেতা রবিউল ইসলাম রবিসহ জেলা, উপজেলা ও পৌর বিএনপির নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

দৌলতপুর সীমান্তে গাঁজা উদ্ধার

দৌলতপুর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুর সীমান্তে বিজিবি’র পৃথক অভিযানে ৮ কেজি গাঁজা উদ্ধার হয়েছে। শনিবার দিবাগত রাত ১টার দিকে মহিষকুন্ডি বিওপি’র টহল মহিষকুন্ডি কলেজপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে সাড়ে ৪ কেজি গাঁজা উদ্ধার করেছে। অপরদিকে ঠোটারপাড়া বিওপি’র টহল দল শনিবার রাত সোয়া ৮টার দিকে পাকুড়িয়া ভাঙ্গাপাড়া নামকস্থানে অভিযান চালিয়ে সাড়ে ৩ কেজি গাঁজা উদ্ধার করেছে। তবে উদ্ধার হওয়া মাদকের সাথে জড়িত কেউ আটক হয়নি।

সায়েন্স ল্যাবরেটরির ঘটনা বড় হামলার টেস্ট কেস হতে পারে – কাদের

ঢাকা অফিস ॥ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, রাজধানীর সায়েন্স ল্যাবরেটরি এলাকায় পুলিশের ওপর বোমা হামলার ঘটনা বড় কোনও হামলার টেস্ট কেস হতে পারে। তিনি বলেন, ‘এরা ছোটখাট ঘটনা দিয়ে বড় ধরনের হামলার টেস্ট কেস ঘটাতে পারে। পুলিশের ওপর তিন চারটি হামলার সিস্টেমকে পরবর্তীতে বড় ধরনের হামলার ঘটনার টেস্ট কেস হিসেবে নিতে পারে। তবে পুলিশ ও গোয়েন্দাদের তৎপরতা বেড়েছে।’ ওবায়দুল কাদের গতকাল রোববার সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে সমসাময়িক বিষয় নিয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, গোয়েন্দাদের কাছ থেকে জানা গেছে, এটি একটি রিমোর্ট কন্ট্রোল হামলা। বিষয়টি গোয়েন্দারা দেখছেন, তদন্ত চলছে। পুলিশের তৎপরতাও বেড়েছে। এটি টেস্ট কেস হতে পারে। আর আমাদের দেশে জঙ্গিরা হলি আর্টিজান, শোলাকিয়ায় হামলার পর আরো কিছু বিদেশির ওপর হামলা হয়েছে। দেশে জঙ্গি আছে কিনা, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘অবশ্যই জঙ্গি আছে। তবে তারা দুর্বল হয়েছে, নির্মূল হয়েছে এ কথা তো আমরা বলিনি। জঙ্গি সমস্যা শুধু বাংলাদেশের নয়, এটি একটি বৈশ্বিক সমস্যা।’ ‘বোমা হামলার ঘটনার আইএস দায় শিকার করেছে’ এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আইএস আছে কিনা বা এগুলো আইএসের নাম দিয়ে অপপ্রচার কিনা, তা দেখা দরকার। চূড়ান্ত প্রতিবেদন না পেলে এ বিষয়ে কিছু বলা যাবে না। কারা এ ধরনের হামলা চালাচ্ছে তাদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। জঙ্গি চক্রটি কথিত ইসলামিক স্টেট, আইএসের নাম ব্যবহার করছে কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সায়েন্স ল্যাবের হামলায় স্থানীয় সরকারমন্ত্রী টার্গেট ছিলেন কিনা, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, পুলিশ ও গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা আমাকে জানিয়েছেন কালকের (শনিবারের) ঘটনায় মন্ত্রী টার্গেট ছিলেন না। জঙ্গিরা এর আগেও পুলিশের ওপর হামলা চালিয়েছিল। তাদের হামলার টার্গেট মন্ত্রী ছিল না। সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, এর আগে মালিবাগ, গুলিস্থান, খেজুরবাগানে একই ধরনের ঘটনা ঘটেছে। জঙ্গি দমনে আমাদের পুলিশ এবং গোয়েন্দাদের ট্র্যাক রেকর্ড কিন্তু ভালো। তিনি বলেন, আমাদের গোয়েন্দারা জঙ্গি দমন ও নিয়ন্ত্রণে যথেষ্ট সফলতার পরিচয় দিয়েছে, আশা করি এ বিষয়টি তারা অচিরেই তদন্ত করে বের করতে সক্ষম হবেন। এখন আইএসের নামে অপপ্রচার চলছে, সেটা ভেবে দেখার বিষয় আছে। বিষয়টি নিশ্চিত না হয়ে কিছু বলছি না। আসামে চলমান পরিস্থিতি নিয়ে কাদের বলেন, নাগরিকত্ব বিষয়টি ভারতের অভ্যন্তরীণ ব্যাপার। এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করা ঠিক হবে না। বাংলাদেশকে নিয়ে দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্র চলছে। এ ব্যাপারে সরকার সতর্ক আছে। আওয়ামী লীগের কাউন্সিল নিয়ে তিনি বলেন, আমাদের জাতীয় সম্মেলন অক্টোবরেই হওয়ার কথা। নিয়মানুযায়ী তিন বছরে ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। অক্টোবরে এখনও ঠিক আছে। আমরা তো পরিবর্তন করিনি। পরিবর্তন করলে ওয়ার্কিং কমিটির মিটিং ডেকে তা করার বিষয় আসবে। সে বিষয়ে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। হবে না এ মুহূর্তে বলা যাবে না। আমরা এক মাসের নোটিশ দিয়েও জাতীয় সম্মেলন অতীতে করেছি। তবে আমাদের প্রস্তুতি চলছে। আজকে বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী, এত বছরে বিএনপিকে কীভাবে মূল্যায়ন করবেন- সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে কাদের বলেন, প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে তাদের শুভ কামনা করি। তারা নেতিবাচক রাজনীতি পরিহার করে ইতিবাচক রাজনীতিকে আলিঙ্গন করবেন এটাই আমাদের প্রত্যাশা।

পাটিকাবাড়ীতে ডেঙ্গু মোকাবিলায় ওষুধ ও প্রচারপত্র বিতরণ

নিজ সংবাদ ॥ কুষ্টিয়া সদর উপজেলার পাটিকাবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে ডেঙ্গু মোকাবিলায় ওষুধ ¯েপ্র ও ডেঙ্গু রোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রচারপত্র বিতরণ করা হয়েছে ৷ গতকাল রবিবার দুপুরে এডিস মশা নিধনে পাটিকাবাড়ীর ৯নং ওয়ার্ড নান্দিয়া-হারুরিয়া গ্রাম এলাকায় ওষুধ ¯েপ্র, ঝোঁড়-ঝাপ পরিস্কার ও জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রচারপত্র বিতরণ করেন ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সফর উদ্দিন ৷ এ বিষয়ে চেয়ারম্যান সফর উদ্দিন বলেন, ডেঙ্গু  রোগে সবাইকে সচেতন হতে হবে । সরকারের একার পক্ষে বাড়ি বাড়ি গিয়ে মশা নিধন করা সম্ভব নয় । সচেতনতা বৃদ্ধির মাধ্যমে জনসম্পৃক্ততা বাড়াতে হবে। তাহলেই ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব কমে যাবে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ইউপি সচিব এস এম সোহান উদ্দিন মাহিন, ৯নং ওয়ার্ড সদস্য রাজ্জাক আলী, ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতাউল হক জটু, ৮নং ওয়ার্ড সদস্য ডাঃ হাসান আলী, ৬ নং ওয়ার্ড সদস্য আবুল কাশেম, ৪,৫,৬ নং ওয়াডের্র সংরক্ষিত মহিলা সদস্য আয়েশা আক্তার, ৭,৮,৯ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা সদস্য সোনা ভানু প্রমূখ ৷

কুষ্টিয়ায় এলজিইডি’র প্রতিষ্ঠাতা প্রধান প্রকৌশলী কামরুল ইসলাম সিদ্দিকীর ১১তম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

নিজ সংবাদ ॥ গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়নের রূপকার ও পথিকৃৎ এলজিইডির প্রতিষ্ঠাতা প্রধান প্রকৌশলী, দেশের কৃতিসন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধা কামরুল ইসলাম সিদ্দিক’র ১১তম মৃত্যু বার্ষিকী ছিল গতকাল রবিবার। এ উপলক্ষ্যে বিকেল সাড়ে ৫টায় কামরুল ইসলাম সিদ্দিক’র নিজ জেলা কুষ্টিয়ায় এলজিইডি ভবনের নতুন মসজিদে এলজিইডি কুষ্টিয়ার আয়োজনে তার স্মৃতিচারণ ও রুহের মাগফেরাত কামনায় দোওয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে কামরুল ইসলাম সিদ্দিকীর জীবন ও তার মহত্ব তুলে ধরে স্মৃতিচারণ করেন কুষ্টিয়া এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী এ এস এম শাহেদুর রহিম, প্রয়াত কামরুল ইসলাম সিদ্দিক’র ছোট ভাই প্রকৌশলী ফখরুল ইসলাম সিদ্দিক, এলজিইডি কর্মকর্তা কামরুজ্জামান প্রমুখ। পরে মিলাদ মাহফিলে পবিত্র কোরআন  থেকে তেলাওয়াত শেষে কামরুল ইসলাম সিদ্দিকীর রুহের মাগফেরাত কামনায় দোওয়া করেন হাফেজ মাওলানা শাহাবুল ইসলাম। কুষ্টিয়া এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী এ এস এম শাহেদুর রহিম বলেন, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগে (এলজিইডি) কামরুল ইসলাম সিদ্দিক যে বীজ বপন করেছিলেন, তার ওপর ভিত্তি করেই আজ গ্রামীণ অবকাঠামোর এত উন্নয়ন হয়েছে। তিনি ছিলেন নিবেদিত প্রাণ ও কর্মবীর। আজ নিম্ন ও মধ্যবিত্ত মানুষের জন্য যে হাউজিং প্রকল্প, সেটা কামরুল ইসলাম সিদ্দিকী’র অবদান। তিনি কখনোই অন্যায়ের কাছে মাথা নত করেননি। কামরুল ইসলাম সিদ্দিক ছিলেন বিভিন্ন কারিগরি বিষয়ে অত্যন্ত বিজ্ঞ ব্যক্তি, তিনি ছিলেন একজন দক্ষ প্রশাসক ও দক্ষ ব্যবস্থাপক। সব মিলিয়ে একজন নিষ্ঠাবান, নিবেদিতপ্রাণ ও নিরলস কর্মী।

কুষ্টিয়া সদর উপজেলা সহকারী শিক্ষকদের পক্ষ হতে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে ফুলেল শুভেচ্ছা

গতকাল রবিবার বিকেলে কুষ্টিয়া জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারের কার্যালয়ের সভাকক্ষে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার বিভিন্ন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় হতে আগত শতাধিক সহকারী শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক নেতৃবৃন্দ’র উদ্যোগে নবাগত কুষ্টিয়া জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ তবিবুর রহমানকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়। এ সময় বক্তব্য রাখেন জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ তবিবুর রহমান, সহকারী জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ ছানাউল হাবিব। এছাড়া বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক সমিতি কুষ্টিয়া সদর উপজেলার আহবায়ক মোঃ গোলাম এরশাদ, সদস্য সচিব মোঃ আসাদুর রহমান, যুগ্ম আহবায়ক জান মোহাম্মদ, সৈয়দ ইমরান হক, মোঃ মানিয়ার  হোসাইন ও উপদেষ্টা এহসানুল করীম। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেন রবিউল ইসলাম। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় রপ্তানি ট্রফি প্রদান

ঢাকা অফিস ॥ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের রপ্তানি খাতে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ ২৮টি ক্যাটাগরিতে ৬৬টি প্রতিষ্ঠানের মাঝে জাতীয় রপ্তানি ট্রফি ২০১৬-১৭ বিতরণ করেছেন। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গতকাল রোববার সকালে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় এবং রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরো’র যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বিজয়ী স্ব-স্ব প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারী ও উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের হাতে এই ট্রফি এবং সনদ তুলে দেন। ২৯টি স্বর্ণ, ২১টি রৌপ্য এবং ১৬টি ব্রঞ্জ ট্রফি প্রদান করেন প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রী এ সময় তাঁর ভাষণে দেশের রপ্তানি খাতের সম্প্রসারণ এবং রপ্তানি বহুমুখীকরণসহ নতুন বাজার খুঁজে বের করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি বলেন, ‘রপ্তানি বৃদ্ধির জন্য নতুন বাজার ও পণ্য বহুমুখীকরণ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আমরা নতুন নতুন বাজার সৃষ্টি করতে কাজ করে যাচ্ছি। ব্যবসায়ী সম্প্রদায়কেও রপ্তানি বাণিজ্য বৃদ্ধিতে কাজ করতে হবে।’ তাঁর সরকার এ বিষয়ে সম্ভব সব ধরনের সহযোগিতা করবে বলেও উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ সরকার ব্যবসাবান্ধব সরকার। ব্যবসায়ীরাই ব্যবসা করবে, তাদের কাজে আমরা সহযোগিতা করব।’ ‘জাবের এন্ড জুবায়ের ফেব্রিক্স লিমিটেড’ টানা ৬ষ্ঠ বারের মত শ্রেষ্ঠ রপ্তানিকারক হিসেবে ২০১৬-১৭ সালের রপ্তানি স্বর্ণ ট্রফি জয় করে। ‘জাবের এন্ড জুবায়ের লিমিটেড’ ২০১৭ সালের সর্বোচ্চ রপ্তানি আয়ের জন্য আরো একটি স্বর্ণ ট্রফি লাভ করে। বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুন্সির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি তোফায়েল আহমেদ বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. মফিজুল ইসলাম এবং এফবিসিসিআই সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম ও অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন। রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর ভাইস চেয়ারম্যান বেগম ফাতিমা ইয়াসমিন অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তৃতা করেন। অনুষ্ঠানে মন্ত্রিপরিষদ সদস্যগণ, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টাবৃন্দ, সংসদ সদস্যবৃন্দ, পদস্থ সরকারি কর্মকর্তাবৃন্দ, বিভিন্ন ব্যবসায়িক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ এবং শিল্প সংস্থার প্রতিনিধি, উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার প্রতিনিধি সহ বিদেশি কূটনিতিক এবং আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

মিরপুরে কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ

আমলা অফিস ॥ কুষ্টিয়ার মিরপুরে কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ করা হয়েছে। গতকাল রোববার সকালে উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উদ্যোগে কৃষি প্রণোদণার আওতায় চলতি খরিপ-২/ ২০১৯-২০ মৌসুমে মাষকলাই উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষে ১৫০ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও সার বিতরণ করা হয়েছে। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা রমেশ চন্দ্র ঘোষের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থেকে বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এস এম জামাল আহমেদ। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদের ভাইস-চেয়ারম্যান আবুল কাশেম জোয়ার্দার, উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা সাবিহা সুলতানা, আমলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ারুল ইসলাম মালিথা চেয়ারম্যান, জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ প্রমুখ। এ সময়ে প্রতিজন কৃষককে ৫ কেজি মাসকলাই বীজ, ১০ কেজি ডিএপি ও ৫ কেজি এমওপি সার প্রদান করা হয়।

ঝিনাইদহে গাজাসহ নারী মাদক ব্যবসায়ী আটক

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ॥ ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর শহরের চৌগাছা বাসষ্ট্যান্ড এলাকা থেকে দুই কেজি গাজা সহ উমা রাণী দাস(৩৬) নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব। গতকাল রবিবার  সকালে অভিযান চালিয়ে এ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে। আটককৃত উমা রাণী কোটচাঁদপুর উপজেলার বাজেবান্ধা ঋষিপাড়ার মৃত সেন্টু দাসের স্ত্রী। র‌্যাব-৬, ঝিনাইদহ ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারি কোটচাঁদপুর শহরের চৌগাছা বাসষ্ট্যান্ড এলাকায় মাদক নিয়ে এক নারী মাদক ব্যবসায়ী অবস্থান করছে। এমন সময় সেখানে অভিযান চালিয়ে হাতে নাতে দুই কেজি গাজাসহ উমা রাণী দাসকে আটক করে। এ ঘটনায় মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইন ২০১৮ এর ৩৬(১) সারণির ১৯(ক) ধারার মামলা করা হয়।

কুষ্টিয়া হাউজিং ডি-ব্লকের খেলার মাঠ দখল করে অনুমতিবিহীন গড়ে তোলা হয়েছে মসজিদ

নিজ সংবাদ ॥ কুষ্টিয়া হাউজিং ডি-ব্ল¬কের খেলার মাঠ দখল করে অনুমোতি বিহীন গড়ে তোলা হয়েছে মসজিদ। মসজিদটি নির্মানের নেপথ্যে রয়েছে জামায়াতপন্থি এবং কঠোর সরকার বিরোধীরা। মসজিদটি হাউজিং ডি-ব্লকের খেলার মাঠে নির্মাণ করা হলেও  সাইবোর্ডে “মাসজিদ আত্ তাকওয়া” ই-ব্লক, কুষ্টিয়া ঠিকানা উল্লে¬খ করা হয়েছে। বিষয়টি আমলে এনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য কুষ্টিয়া পৌরসভার মেয়র আনোয়ার আলী স্বাক্ষরিত একটি পত্র কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক এবং পুলিশ সুপারের নিকট প্রেরণ করা হয়। যার স্বারক সংখ্যা-কুপৌ-২০১৯/৩০৯৬ (৫) তারিখ : ২৮/৭/২০১৯। পত্রে উল্লেখ করা হয় যে, হাউজিং এষ্টেট ডি-ব¬কের খেলার মাঠ দখল করে প্রকৃত ঠিকানা গোপন রেখে একটি টিনসেড মসজিদ নির্মাণ ও মাঠ দখল করে চাষাবাদ করা হচ্ছে। মসজিদটির পরিচালনা কমিটিতে যারা রয়েছেন তাদের অধিকাংশ জামায়াতপন্থি এবং কঠোর সরকার বিরোধী। মসজিদ নির্মাণ করার ফলে খেলার মাঠ একেবারে শেষ হওয়ার উপক্রম হয়েছে। নির্মিত মসজিদটি দুর থেকে নিয়ন্ত্রন করছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের আল-হাদীস বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ যিনি ডি-ব্ল¬ক জামায়াতের তাত্ত্বিক গুরু হিসেবে খ্যাত। এছাড়া কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসক অফিসের একজন কর্মচারী যিনি অফিসকে ব্যবহার করে অবৈধভাবে মাঠ দখল করে মসজিদ নির্মানের জন্য প্রভাব বিস্তার করেছেন। আরও উল্লে¬খ্য যে, হাউজিং ডি-২৬৩ নম্বর বাসার বাসিন্দা আব্দুর রশিদ ছাত্রজীবনে ছাত্র শিবিরের নেতা ছিলেন ও বর্তমানে জামায়াতের একজন সক্রিয় সদস্য এবং জামায়াতের কার্যকলাপের অন্তরাল থেকে জামায়াত এর রাজনীতির পৃষ্ঠপোষকতা করেন এবং মসজিদ কমিটিরও সদস্য বলে জানা যায়। পত্রে আরও বলা হয় যে, মসজিদটি নির্মিত হয়েছে হাউজিং ডি-ব্লকের খেলার মাঠে অথচ সাইনবোর্ডে দেখা যায় “মাসজিদ আত্ তাকওয়া” ই-ব্ল¬ক, কুষ্টিয়া। দুঃখের বিষয় হলো মসজিদের ঠিকানাকে আড়াল করে একটি ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান নির্মানে এতবড় মিথ্যাচারের আশ্রয় নেয়া কি হেতু তা বোধগম্য নহে। উল্লে¬খ্য যে, একই ব¬কে বৃহত্তর একটি পাকা মসজিদ আছে। নির্মিত টিনশেড মসজিদ থেকে পাকা মসজিদে হেঁটেঁ যেতে মাত্র ৩/৪ মিনিট সময় লাগে এবং দুুরুত্ব কম বেশি ৩০০ মিটারের মধ্যে। প্রকৃতপক্ষে এই মসজিদ যারা নির্মাণ করেছেন তাদের সাংগঠনিক তৎপরতা ও তাদের অন্ধ ধর্মীয় জঙ্গিবাদী মতাদর্শের কার্যক্রম পরিচালনা করছেন মসজিদ শুধু উপলক্ষ মাত্র। ধর্মের নাম ব্যবহার করে সহজ সরল মানুষকে ভুল বুঝিয়ে সাংগঠনিক কাজ চালিয়ে যাওয়ার অপকৌশলও বটে। এমতাবস্থায় খেলার মাঠের জায়গা উন্মুক্ত করে মাঠের আকৃতি/প্রকৃতি পূর্বের অবস্থায় ফিরিয়ে দেয়ার লক্ষ্যে অনুমোদনহীনভাবে নির্মিত মসজিদটি অপসারণ করা একান্ত জরুরী। পত্রে বিষয়টির গুরুত্ব বিবেচনা করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করতে বলা হয়। এ বিষয়ে আজও কোন সুরাহ না হওয়ায় হতাশ হয়ে পরেছেন এলাকার ধর্মপ্রাণ মুসলি¬গণ।

জিয়ার সমাধিতে গিয়ে বিএনপি নেতাদের হাতাহাতি, পাঞ্জাবি ছেঁড়া হলো আঞ্জুর

ঢাকা অফিস ॥ বিএনপির ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে দলের প্রতিষ্ঠাতা সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের সমাধিতে ফুল দিতে গিয়ে হাতাহাতিতে জড়িয়েছেন ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির দুগ্রুপের নেতাকর্মীরা। এ সময় ঢাকা উত্তরের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বজলুল বাছিদ আঞ্জুর পাঞ্জাবি ছিঁড়ে ফেলেন প্রতিপক্ষ নেতাকর্মীরা। গতকাল রোববার সকালে রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের চন্দ্রিমা উদ্যানে জিয়ার মাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, দলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে রোববার সকাল ১০টায় দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে জিয়াউর রহমানের সমাধিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতাদের শ্রদ্ধা নিবেদনের পর সমাধিতে ফুল দিতে যান ঢাকা মহানগরসহ বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা। সিনিয়র নেতারা শ্রদ্ধা নিবেদন করে চলে যাওয়ার পর ফুল দেয়ার সময় ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির দুগ্রুপের মধ্যে হাতাহাতি হয়। একে অপরকে কিলঘুষি মারেন। এ সময় ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বজলুল বাছিদ আঞ্জুর পাঞ্জাবি ছিঁড়ে ফেলা হয়।

পরে খালি গায়ে জিয়ার মাজার এলাকা ত্যাগ করেন আঞ্জু। নগর বিএনপি নেতা আঞ্জুকে লাঞ্ছনার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মহানগর উত্তর বিএনপির দফতর সম্পাদক এ বি এম রাজ্জাক। তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আজ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর দিনে সাবেক ছাত্রনেতা নগরের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মুন্সি বজলুল বাসিত আঞ্জুকে যারা লাঞ্ছিত করেছে তারা আওয়ামী লীগের দালাল।’

১৯৭৮ সালের ১ সেপ্টেম্বর তৎকালীন রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি প্রতিষ্ঠা করেন। দিনটি উপলক্ষে দলের পক্ষ থেকে নানা কর্মসূচি নেয়া হয়েছে। সকাল ৬টায় নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়সহ সারা দেশে বিএনপির সব কার্যালয়ে দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়েছে। বেলা ৩টায় বিএনপির উদ্যোগে রাজধানীর রমনা ইনস্টিটিউট অব ইঞ্জিনিয়ার্স-বাংলাদেশ মিলনায়তনে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হবে। সভায় বিএনপির সিনিয়র নেতাসহ দেশের বিশিষ্ট ব্যক্তিরা বক্তব্য রাখবেন।

লেবানন সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ইসরাইল

ঢাকা অফিস ॥ হিজবুল্লাহর সম্ভাব্য হামলার আশঙ্কায় লেবানন সীমান্তে বাড়তি সেনা বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে অবৈধ ইহুদি রাষ্ট্র ইসরাইল। সেনাবাহিনীর উত্তরাঞ্চলীয় কমান্ডকে লেবাননে অতিরিক্ত বাহিনী হিসেবে পাঠানো হচ্ছে বলে শনিবার দেশটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে। লেবানন সীমান্তে বাড়তি সেনা সমাবেশের একটি ফুটেজ টুইটারে প্রকাশ করেছে ইসরাইলি বাহিনী। রয়টার্স জানিয়েছে, লেবাননের সশস্ত্র সংগঠন হিজবুল্লাহর সঙ্গে সাম্প্রতিক উত্তেজনার কারণে সামরিক বাহিনীর একটি প্রশিক্ষণও স্থগিত করেছে ইসরাইল। এদিকে বৈরুতে সাম্প্রতিক ইসরাইলি ড্রোন হামলার কঠোর জবাব দেওয়ার হুশিয়ারি দিয়েছেন লেবাননের সশস্ত্র প্রতিরোধ আন্দোলন হিজবুল্লাহ। দলটির মহাসচিব হাসান নাসরুল্লাহ বলেছেন, পাল্টা জবাব দেয়ার যে সিদ্ধান্ত তার সংগঠন নিয়েছে, তার কোনও নড়চড় হবে না। ড্রোন হামলার জন্য ইসরাইলকে চরম মূল্য দিতে হবে বলে শনিবার রাতে এক টেলিভিশন ভাষণে এ হুশিয়ারি দেন তিনি। এর আগে গত সপ্তাহে হিজবুল্লাহর সম্ভাব্য হামলার আশঙ্কায় লেবানন সীমান্তে জিপে সেনাবাহিনীর ম্যানিকিন বসিয়েছিল ইসরাইল। হিজবুল্লাহর আল মানার টেলিভিশনে কাজ করেন আলী শোয়েব। টুইটারে তার পোস্ট করা ছবিতে দেখা যাচ্ছে, দুটি সামরিক যানে এসব ম্যানিকিন রাখা হয়েছে। একেবারে সামনে সেনাবাহিনীর উর্দির হলুদাভ ডামি বসানো রয়েছে। লেবাননভিত্তিক শক্তিশালী সামরিক ও রাজনৈতিক সংগঠন হচ্ছে হিজবুল্লাহ। ১৯৮০-এর দশকে ইসরাইলের প্রথম আগ্রাসনের পর তাদের আবির্ভাব ঘটেছে। হিজবুল্লাহর উপনেতা দীর্ঘদিনের শক্রদের বিরুদ্ধে প্রতিশোধমূলক হামলা চালাতে পারে বলে ঘোষণা দেয়ার পর সীমান্তে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করেছে অবৈধ রাষ্ট্রটি।

 

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৩তম মৃত্যুদিবস উপলক্ষ্যে কুষ্টিয়া লেখক ফোরামের নিয়মিত সাহিত্য আসর অনুষ্ঠিত

বৃহত্তর কুষ্টিয়ার সুস্থ ধারার সংস্কৃতি চর্চাকে বিকশিত করার লক্ষ্যে “অসাম্প্রদায়িক সংস্কৃতির চর্চা চাই” শ্লোগানকে সামনে রেখে শনিবার বিকেলে শহরের মিলপাড়াস্থ রবীন্দ্র স্মৃতিবিজড়িত টেগোর লজে কবি ও গল্পকার মুনশী সাঈদ এর সভাপতিত্বে কুষ্টিয়া লেখক ফোরামের ৬৭তম সাহিত্য আসর অনুষ্ঠিত হয়। আসরে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট  লেখক ও গবেষক অধ্যক্ষ মোঃ রেজাউল করিম এবং বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক মোঃ আসাদুর রহমান। আসরের শুরুতেই জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৩তম মৃত্যুদিবস উপলক্ষ্যে কবির জীবন ও সাহিত্যকর্ম নিয়ে জ্ঞানগর্ভ আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক অধ্যক্ষ মোঃ রেজাউল করিম, বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক মোঃ আসাদুর রহমান, নজরুল গবেষক ও সংগীত শিল্পী সুব্রত চক্রবতী ও বিশিষ্ট কবি, উপস্থাপক ও সংগীতশিল্পী কনক চেীধুরী। বক্তাগণ জাতীয় কবি নজরুলের মৃত্যূ দিবসের তারিখ ২৯ আগষ্ট খ্রিস্টাব্দ তারিখের স্থলে বঙ্গাব্দ ১২ ভাদ্র হিসেবে মূল্যায়ন করার জন্য জোর দাবী পেশ করেন। এ ছাড়াও অনুষ্ঠানের দ্বিতীয়পর্বে নিয়মিত সাহিত্য আসরে বিভিন্ন দিক-নির্দেশনা প্রদান, আলোচনা, আবৃত্তি ও সাহিত্য পাঠে অংশগ্রহন করেন বিশিষ্ট সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মোঃ খলিলুর রহমান মজু, বিশিষ্ট কবি ও সংগঠক অধ্যাপক নাসির বিশ্বাস, বিশিষ্ট কবি ও আবৃত্তি শিল্পী এস এম আব্দুর রহমান, বিশিষ্ট কবি উপস্থাপক ও সংগীতশিল্পী কনক চেীধুরী, সাহিত্যিক মোহিত চন্দ গোবিন্দ, বিশিষ্ট সাহিত্যিক ও সংগঠক হাসান টুটুল, বিশিষ্ট কবি জেসমিন হোসেন মিনি, বিশিষ্ট  নজরুল গবেষক ও সংগীত শিল্পী সুব্রত চক্রবর্তী, বহুমাত্রিক লেখক মোহাম্মদ তাজউদ্দীন, কবি ও আবৃত্তি শিল্পী কামরুল আহসান মনি, সাহিত্যিক ও সাংবাদিক কাজী সোহান শরীফ, কবি জসীম উল্লাহ আল হামিদ, বিশিষ্ট কবি ও আবৃত্তি শিল্পী মোঃ শরিফুল আলম সিদ্দিক কচি, সাহিত্যিক সঞ্জয় কান্তি সাহা, কবি তামজিদা আখতার, কবি পারভীন আরা বেগম, সাহিত্যিক মহাদেব দাশ, সাহিত্য ও সংস্কৃতিপ্রেমী  শংকরচন্দ্র দাশ, বিশিষ্ট কবি ও গল্পকার রেহেনা জামান, বিশিষ্ট কবি সুলতানা রেবেকা নাসরীন, বিশিষ্ট কবি মান্নান মনি, বিশিষ্ট কবি মিনু রানী বিশ্বাস, গল্পকার তাসমিন রুবানা, অন্ময় নুসরাত অনু, সিয়াম মেহবুব, কবি আঃ রাজ্জাক, সাহিত্য ও সংস্কৃতিপ্রেমী  অমল কৃষ্ণ সেন, মোঃ ইব্রাহিম ও মোতালেব হোসেন সহ আরো অনেকে। উল্লেখ্য যে, সাহিত্য আসরে উপস্থিত সকল সুধীবৃন্দের উদ্দেশ্যে সভাপতি মুনশী সাঈদ কুষ্টিয়া লেখক ফোরামের উত্তরোত্তর  উন্নতি কামনায় জ্ঞানগর্ভ বক্তব্য পেশ করেন। তিনি বলেন যে, ২০১১ সালের নভেম্বর মাসে কুষ্টিয়া লেখক ফোরাম জন্ম লগ্ন থেকে এ যাবত সফলভাবে ৬৭টি সাহিত্য আসরের আয়োজন করতে পেরেছে। যা সাংস্কৃতিক রাজধানী খ্যাত কুষ্টিয়ার জন্য একটি বিরল উদাহরণ। অসাম্প্রদায়িক চিন্তা-চেতনা এবং সৃজনশীল সাহিত্য কর্মি হিসেবে বাংলা ভাষাকে আরো সমৃদ্ধশালী করার লক্ষে, বিবাদ-সংঘাত ভুলে গিয়ে কুষ্টিয়ার সকল সাহিত্যি প্রেমিকদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে একযোগে কাজ করার জন্য সভাপতি উদ্বাত্ত আহবান জানান। সম্পূর্ণ আসরটি সঞ্চালনা করেন কুষ্টিয়া লেখক ফোরামের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট কবি ও আবৃত্তি শিল্পী মোঃ শরিফুল আলম সিদ্দিক কচি। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

বিএনপি’র শাসনামলে বাংলাদেশ জঙ্গিদের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়েছিল – তথ্যমন্ত্রী

ঢাকা অফিস ॥ বিএনপি-কে গণমানুষের কল্যাণে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিএনপি’র শাসনামলে দেশ জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়েছিল। গতকাল রোববার তথ্য মন্ত্রণালয় অনুষ্ঠিত এক প্রেস ব্রিফিংকালে তিনি একথা বলেন। মন্ত্রী বলেন, ‘জিয়াউর রহমান অস্ত্রের জোরে ক্ষমতা দখলন করেন এবং তার সহধর্মিনী বেগম খালেদা জিয়া ১০ বছরের শাসনামলে দেশে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিষ্ঠা করেন।’ তিনি বলেন, ক্ষমতার লোভে অন্যান্য দল থেকে অনেক নেতা বিএনপিকে যোগদান করেন। বিএনপি’র প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমান এদের লোভ দেখিয়ে তার দলভারী করেন। ড. হাছান বলেন, বিএনপি সুশাসনের পরিবর্তে দেশকে জঙ্গি ও সন্ত্রাসবাদের অভয়ারণ্যে পরিণত করে। এ ব্যাপারে তিনি আরো বলেন, তাদের আমলে এদেশ পাঁচবার দুর্নীতিতে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল। মন্ত্রী বলেন, বিরোধী দল হিসেবেও বিগত ১০ বছর ধরে বিএনপি জঙ্গি ও সন্ত্রাসবাদের ভিত্তিতে তাদের রাজনীতি করেছে এবং এখনো তা অব্যহত রয়েছে, যা অত্যন্ত দুঃখজনক। এ সময় মন্ত্রী আরো বলেন, বিএনপি প্রকাশ্য দিবালকে জনসভায় হামলা চালিয়ে আওয়ামী লীগের সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ্ এসএম কিবরিয়া ও আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য আহসানউল্লাহ্ মাস্টার এমপিকে হত্যা করে। ড. হাছান বলেন, ‘বিএনপি ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট মুক্তাঙ্গণে আওয়ামী লীগকে জনসভা করার অনুমতি দেয়নি। তারা গ্রেনেড হামলা করার জন্য পরিকল্পিত ভাবে ২০ আগস্ট মাঝরাতে আওয়ামী লীগকে বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে জনসভা করার অনুমোদন দেয়।’ তিনি বলেন, বিএনপি যখনই চেয়েছে আওয়ামী লীগ সরকার সব সময় তাদেরকে মিছিল ও সমাবেশের অনুমতি দিয়েছে। বিএনপি আগামীতে ইতিবাচক রাজনীতি করবে- এ আশাবাদ ব্যক্ত করে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, আমি ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে বিএনপিকে অভিনন্দন জানাচ্ছি। একই সঙ্গে আশা করছি যে, বিএনপি জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদ পরিহার করে সাধারণ মানুষের কল্যাণে রাজনীতি করবে। সাম্প্রতিক সড়ক দুর্ঘটনা সম্পর্কিত এক প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, দুর্ঘটনায় কৃষ্ণা রায়ের পা হারানো সত্যিই দুর্ভাগ্যজনক ও অনাকাক্সিক্ষত ঘটনা। ঘটনার জন্য দায়ীদের বিচারের আওতায় আনা হবে এবং এ বিষয়ে সরকার কাজ করছে। মন্ত্রী বলেন, এটা খুবই উদ্বেগের বিষয় যে, কিছু চালক (সব নয়) বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। আমি কোন অপেশাদার চালক ও হেলপারকে যানবাহন না দেয়ার জন্য বাস, ট্রাক মালিক এসোসিয়েশন ও শ্রমিক ইউনিয়নগুলোর প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি। ড. হাছান জনগণ ও চালকদেরও আরো সতর্ক হওয়ার আহ্বান জানান। আইএস সম্পর্কিত অপর এক প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, দেশে আইএস’-এর কোন অস্তিত্ব নেই। কিন্তু জঙ্গিবাদিরা তাদের অস্তিত্বের জানান দিচ্ছে। আমি আশা করি, বিএনপিসহ অন্য রাজনৈতিক দলগুলো তাদের আশ্রয় দেবে না।

দুই বছর ইন্টার্নশিপ: প্রতিবাদের মুখে সরলো খসড়া নীতিমালা

ঢাকা অফিস ॥ ইন্টার্নশিপ দুই বছর করার সরকারি প্রস্তাবের বিরোধিতায় মেডিকেল শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ-প্রতিবাদের মুখে এ সংক্রান্ত নীতিমালার খসড়াটি স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইট থেকে সরানো হয়েছে। গতকাল রোববার উপসচিব মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান বকাউল স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ওয়েবসাইটে দেওয়া খসড়াটি দেওয়া হয়েছে, সেটি চূড়ান্ত নীতিমালা নয়। এতে বলা হয়, ‘মেডিকেল কলেজ, ডেন্টাল কলেজ ও ডেন্টাল ইউনিট এর এমবিবিএস/বিডিএস কোর্সের শিক্ষার্থীদের জন্য ইন্টার্নশীপ প্রশিক্ষণ ও ভাতা প্রদান সংক্রান্ত একটি খসড়া নীতিমালা অংশীজনদের সাথে প্রাথমিকভাবে আলোচনা করে মতামতের জন্য ওয়েবসাইটে প্রদর্শন করা হয়েছিল। এটি খসড়া নীতিমালা, চূড়ান্ত কোন নীতিমালা নয়। নীতিমালাটি চূড়ান্ত করার নিমিত্তে অংশীজনদের সাথে আরো আলোচনার প্রয়োজন রয়েছে।’ এরই মধ্যে যারা মতামত দিয়েছেন, তাদেরকে ধন্যবাদ জানিয়ে খসড়াটি ওয়েবসাইট থেকে আপাতত প্রত্যাহার করা হয়েছে বলে জানানো হয় বিজ্ঞপ্তিতে। ‘সকল অংশীজনদের সাথে আলোচনা করে চূড়ান্ত করার পূর্বে আবার ওয়েবসাইটে প্রদর্শন করা হবে,’ বলেও এতে উল্লেখ করা হয়েছে। গত ২৭ আগস্ট স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে ‘মেডিকেল কলেজ/ ডেন্টাল কলেজ/প্রতিষ্ঠান এর এমবিবিএস/বিডিএস কোর্সের মেডিকেল শিক্ষার্থীদের ইন্টার্নশীপ প্রশিক্ষণ ও ইন্টার্নশীপ ভাতা প্রদান সংক্রান্ত নীতিমালা-২০১৯’ এর খসড়া প্রকাশ করা হয়। বর্তমানে পাঁচ বছরের এমবিবিএস কোর্সের পর মেডিকেলের শিক্ষার্থীদের এক বছর নিজ প্রতিষ্ঠানে ইন্টার্নশিপ করতে হয়, নতুন নীতিমালার যা দুই বছর করার প্রস্তাব করা হয়েছে। দুই বছরের মধ্যে প্রথম বছরটি শিক্ষার্থীদের নিজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ইন্টার্নশিপ করতে হবে। আর দ্বিতীয় বছর কোনো উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তাদেরকে যুক্ত করা হবে।  “প্রথম বছরের প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞান দ্বিতীয় বছর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপে¬ক্সে অনুশীলন করিবে,” বলা হয়েছে প্রজ্ঞাপনে। আগামী ১৮ সেপ্টেম্বরের মধ্যে ওই খসড়ার ওপর মতামত চাওয়া হয় সংশ্লিষ্টদের কাছ থেকে। প্রজ্ঞাপনটি প্রকাশের পর থেকেই সরকারের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ-বিক্ষোভ করে আসছিলেন মেডিকেলের শিক্ষার্থীরা। রোববার ঢাকা মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে মিছিল এবং কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে সমাবেশ করেছেন। শনিবার আন্দোলনে নামা ঢাকার আরেক প্রতিষ্ঠান স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজের (মিটফোর্ড) শিক্ষার্থীরা রোববারও তাদের প্রতিবাদ কর্মসূচি অব্যাহত রাখেন। সরকারের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতেও সরব হন চিকিৎসকরা। দেশে মেডিকেলের পাঠ্যক্রম এবং ইন্টার্নশিপ বিষয়ক যে কোনো সিদ্ধান্ত বিএমডিসিই নিয়ে থাকে। অধ্যাপক মোহাম্মদ শহিদুল্লাহ জানান, তিনি বিষয়টি নিয়ে এরই মধ্যে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলেছেন।“প্রজ্ঞাপনটি প্রত্যাহার করার ব্যাপারে তারা আমাকে নিশ্চয়তা দিয়েছেন,” বলেন অধ্যাপক শহিদুল্লাহ।বর্তমানে মেডিকেলের শিক্ষার্থীদের পাঁচ বছরের এমবিবিএস কোর্স সম্পন্ন করার পর বিএমডিসি থেকে সাময়িক লাইসেন্স নিয়ে একবছরের ইন্টার্নশিপ করতে হয়। নিজ নিজ মেডিকেল কলেজের হাসপাতালে ইন্টার্নশিপ শেষ করার পর সেই লাইসেন্স স্থায়ী হয়।শিক্ষার্থীরা বলছেন, শিক্ষাজীবন করে চিকিৎসক হতে এখনই তাদের লেগে যায় সাড়ে ছয় বছরের মতো। এর সঙ্গে আরও এক বছর যুক্ত হলে তাদের পেশাগতজীবন শুরুর সময়টা দীর্ঘায়িত হবে।

কুষ্টিয়ায় বিএনপির ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা

কুষ্টিয়াতে বিএনপির ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন করা হয়েছে। ১৯৭৮ সালের এই দিনে শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান দলটি প্রতিষ্ঠা করেন। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে কুষ্টিয়ায় দলীয় কার্যালয়ে গতকাল রবিবার সকালে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। এরপর সকাল ১০টায় দলীয় কার্যালয়ে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জেলা বিএনপির সভাপতি সাবেক এমপি সৈয়দ মেহেদী আহমেদ রুমীর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির স্থানীয় সরকার বিষয়ক সম্পাদক জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সাবেক এমপি অধ্যক্ষ সোহরাব উদ্দিন। মেহেদী রুমী তার বক্তব্যে বলেন, দেশে গণতন্ত্র নেই। মানুষের মতপ্রকাশ করার অধিকার নেই। গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে ও একটি অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচন দাবিতে বিএনপির চলমান আন্দোলন চলবে। ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে এটিই আমাদের প্রত্যয়। তিরি আরো বলেন, আমরা গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করে যাব। যতদিন বাংলাদেশে গণতন্ত্র, আইনের শাসন ও বিচার বিভাগের স্বাধীনতা ফিরে না আসবে, যতদিন গণতন্ত্রের নেত্রী খালেদা জিয়া মুক্ত না হবেন, ততদিন জাতীয়তাবাদী দল মানুষের সঙ্গে থাকবে এবং আন্দোলন করবে। অধ্যক্ষ সোহরাব উদ্দিন বলেন, দেশে কোনো আইনের শাসন নেই। নেই কোনো জবাবদিহিতা। শেয়ারবাজার, ব্যাংক  থেকে হাজার হাজার কোটি টাকা লুট হয়ে যাচ্ছে কিন্তু সরকারের  কোনো ভ্রুক্ষেপ নেই। আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির চরম অবনতি। দ্রব্যমূল্য লাগামহীন, সড়কে দুর্ঘটনায় প্রতিনিয়ত সাধারণ মানুষের মৃত্যু হচ্ছে, খুন, গুম, ধর্ষণ বেড়েই চলেছে। ডেঙ্গু পরিস্থিতি  মোকাবেলায় তারা ব্যর্থ। বিরোধী রাজনীতি ও ভিন্ন মতকে বর্তমান সরকার নিশ্চিহ্ন করতে চায়। সে জন্য সব ধরনের চক্রান্ত্র ও ষড়যন্ত্র অব্যাহত রেখেছে। তিনি বলেন, জাতির চরম দুঃসময়গুলোতে জিয়াউর রহমান দেশ ও জনগণের পক্ষে অবস্থান গ্রহণ করেছিলেন। জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এ্যাড.শামীম উল হাসান অপুর পরিচালনায় সভায় আরো বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি সৈয়দ আমজাদ আলী, আব্দুল আজিজ খান, মহাসিন রেজা, লিয়াকত আলী, যুগ্ম সম্পাদক মিরাজুল ইসলাম রিন্টু, আব্দুর রাজ্জাক বাচ্চু, একে বিশ্বাস বাবু, সাংগঠনিক সম্পাদক খন্দকার শামসুজ্জাহিদ, মিরপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হক, দৌলতপুর উপজেলা বিএনপির বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শহীদ সরকার মঙ্গল, খোকসা পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নাফিজ আহমেদ খান রাজু, কুমারখালী পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হাজী মনোয়ার হোসেন, খোকসা থানা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ মনিরুজ্জামান কাজল, জেলা বিএনপির সমাজ কল্যান বিষয়ক সম্পাদক গাজি গোলজার হোসেন গোলো, স্থানীয় সরকার বিষয়ক সম্পাদক এ্যাড. আব্দুল ওয়াদুদ মিয়া, বণ ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক খন্দকার দুলাল হোসেন, কুষ্টিয়া শহর বিএনপির নেতা হাসানুজ্জামান হাসান, আলী আসকর পিন্টু, মিরাজুল ইসলাম মিরাজ, মিজানুর রহমান মজনু, জাহিদুল ইসলাম, দেলোয়ার হোসেন, সদর থানা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম বিপ্লব, সদর থানা বিএনপির নেতা আমিরুল ইসলাম আন্টু, ডাঃ শফিকুল ইসলাম, আব্দুল খালেক, আয়ুব হোসেন, সোনা উল্লাহ, ইমদাদুল হক, নুরুল ইসলাম, জাহিদ হোসেন, কুমারখালী থানা বিএনপির সহ-সভাপতি লুৎফর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আল কামাল মোস্তফা, কুমারখালী থানা বিএনপির প্রচার সম্পাদক রঞ্জুরুল ইসলাম রঞ্জু, কুমারখালী থানা বিএনপির নেতা গোলাম ছরোয়ার মাষ্টার, এ্যাড. শাতিল মাহমুদ, আব্দুস সাত্তার রিন্টু, ওহিদুল ইসলাম সাবু, ডাঃ শরিফুল ইসলাম, জাহাঙ্গির আলম জেলাল, শরিফুল ইসলাম মালিথা, কুমারখালী পৌর বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক মুক্তার হোসেন, মোজাম্মেল হক, পৌর বিএনপির নেতা বীরমুক্তিযোদ্ধা মনছুর আলী, ভেড়ামারা বিএনপি নেতা সাবেক ভিপি নুরুজ্জামান নুরু, ভোড়ামারা উপজেলা পরিষদের সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান শাজাহান আলী, ভেড়ামারা উপজেলা বিএনপির নেতা আনারুল আজিম বাবু, মনিরুল ইসলাম খান, মিরপুর ইউনিয়ন বিএনপির নেতা সেকেন মল্লিক, শহিদুল ইসলাম, আবজাল হোসেন, হাফিজ উদ্দিন, সাইদুর রহমান বাবু, মিলনুজ্জামান মিলন, শাহিনুর রহমান, আনছার আলী, মেহেদী হাসান পলাশ, সাইফুল ইসলাম, শাহাবুল ইসলাম, জিয়া, খোকসা থানা বিএনপির নেতা ফজলুর রহমান, এসএম শরিফ, শামিম উদ্দিন, রফিকুল ইসলাম মন্ডল, খায়রুল ইসলাম রিন্টু, আলতাফ হোসেন, রেজাউল করিম মাষ্টার, রবিউল ইসলাম, আয়নাল হোসেন, আব্দুস সালাম, হেলাল উদ্দিন, শামসুদ্দিন, জেলা যুবদলের সহ-সভাপতি এ্যাড. শাতিল মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম বিপ্লব, যুগ্ম-সম্পাদক সামসুদ্দোহা লাল্টু, যুব নেতা জিল্লু রহমান জনি, কৃষকদল কুষ্টিয়া জেলা শাখার আহবায়ক এস এম গোলাম কবির, পৌর কৃষকদলের সভাপতি বাবলা আমিন চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম স্বাধীন, সাংগঠনিক সম্পাদক খোকন মুন্সি, কৃষক নেতা মোজাফফর মন্ডল, কুমারখালী কৃষক দলের সভাপতি ইবাদত আলী, সাধারন সম্পাদক হারুন অর রশিদ হারুন, সদর থানা কৃষকদলের সভাপতি মিজানুর রহমান মিজান, সাধারণ সম্পাদক মোকারম হোসেন মোকা, জেলা সেচ্ছাসেবকদলের সাধারণ সম্পাদক আবু সাঈদ জাকারিয়া উৎপল, সহ-সভাপতি শফি মির্জা, ইকবাল মাহমুদ এডিন, জহুরুল ইসলাম টিটু, রেজাউল করিম রেজা, যুগ্ম-সম্পাদক বকুল আলী, স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা দেবউত্তম বিশ্বাস, শোহানুর রহমান লিংকন, ইমরান হোসেন সুমন, জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক এসআর শিপন, যুগ্ম-সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রাব্বি, সাংগঠনিক সম্পাদক রোকনুজ্জামান রাসেল, জেলা ছাত্রদল নেতা হাফিজুর রহমান, তন্ময় আহমেদ, আশিকুর রহমান, সাগির কৌরাইশি, হৃদয় আহমেদ, সিব্বির হোসেন, কানন আহমেদ, মিরাজ, সুজন আহম্মেদ, রবিউল ইসলাম, রোকন, জ্যাকি, ইবি ছাত্রদলের অর্থ বিষয়ক সম্পাদক কামরুল ইসলাম, ছাত্রনেতা আনোয়ার পারভেজ, আশিক রহমান রোকন, শাওন, নিশান, ছাব্বির হোসেন, কুমারখালী থানা যুবদলের যুগ্ম-সম্পাদক আব্দুল মান্নান, দপ্তর সম্পাদক ফেরদৌস সানি, কোষাধ্যক্ষ আহমেদ ইমতিয়াজ প্রমুখ। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

দৌলতপুরে ছাতারপাড়ার দাঁড়পাড়া গ্রামে আইইডিসিআর এর প্রতিনিধি দলের সচেতনতা সভা

দৌলতপুর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরের আলোচিত ছাতারপাড়ার দাঁড়পাড়া গ্রামে আইইডিসিআর এর প্রতিনিধি দলের সচেতনতা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল রবিবার বেলা ১১টায় এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উপস্থিত দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তার, দৌলতপুর সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আজগর আলী, ঢাকা থেকে আসা স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রন ও গবেষণা ইনষ্টিটিউট (আইইডিসিআর) এর এপিডেমিওলজি বিভাগের মেডিকেল অফিসার ডাঃ অনুপম সরকারসহ প্রতিনিধি দলের অন্য সদস্য মেডিকেল এপিডেমিওলজি ডাঃ দীপংকর দাস, স্যাম্পল কালেক্টর মাহবুব আলম খান ও ডাটা কালেক্টর শাহাদত হোসেন এবং আড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান সাঈদ আনছারী বিপ্লব। সচেতনতা সভায় ডেঙ্গু রোধে ও এডিস মশা থেকে রক্ষা পেতে কি কি করণীয় তার নির্দেশনা দেওয়া হয়। নিজ নিজ বাড়ির আঙিনা ও বাড়ির আশপাশ পরিস্কার রাখাসহ বিভিন্ন ধরণের সচেতনতা পরামর্শ দেওয়া হয়। এদিকে গতকাল পর্যন্ত দৌলতপুরের ছাতারপাড়ার দাঁড়পাড়াসহ আড়িয়া ইউনিয়নের ইউসুফপুর, আড়িয়া ও লালনগরে নতুন ৭জন ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। এনিয়ে দৌলতপুরে প্রায় ৬০ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হওয়ার খবর মিললো। তবে এদের মধ্যে অধিকাংশই চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছে।

পাকিস্তানি পতাকা নিয়ে মিছিল করায় কেরালায় ৩০ ছাত্র আটক

ঢাকা অফিস ॥ ভারতের কেরালায় একটি কলেজে পাকিস্তানি পতাকার আদলে একটি সংগঠনের পতাকা নিয়ে মিছিল করায় ৩০ ছাত্রকে আটক করেছে পুলিশ। তবে ছাত্রদের দাবি, এটি পাকিস্তানের পতাকার মতো দেখতে হলেও এটি আসলে তাদের সংগঠনের পতাকা। খবর দ্য ডনের। কেরালার কোঝিকোদে জেলার পেরামব্রা এলাকায় অবস্থিত সিলভার কলেজের ক্যাম্পাসে গত বৃহস্পতিবার ওই ঘটনা ঘটে। কলেজের ছাত্র সংসদ নির্বাচনের প্রচারাভিযানে ওই পতাকা নিয়ে মিছিল করছিল বলে জানায় কলেজটির মুসলিম ছাত্রদের সংগঠন এমএসএফ (মুসলিম স্টুডেন্ট ফ্রন্ট)। ছাত্রদের দাবি, পতাকাটি আকারে বড় হওয়ায় এটি পাকিস্তানের পতাকার মতো দেখাচ্ছিল। পুলিশ জানিয়েছে, আটক ছাত্রদের বিরুদ্ধে কয়েকটি ধারায় মামলা হবে। এতে জেল জরিমানা উভয় দন্ডই হতে পাবে। এমকি ছাত্রত্বও বাতিল হতে পারে।

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় ও  বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন এন্ড এ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি দলের সাথে মতবিনিময় সভা

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর র্এ বাসভবনের সভাকক্ষে গতকাল রবিবার দেশে প্রথমবারের মতো প্রতিষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন এন্ড এ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর এর নেতৃত্বে চার সদস্যের প্রতিনিধি দলের সাথে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোঃ  হারুন-রশিদ আসকারী (ড. রাশিদ আসকারী) এর নেতৃত্বে পনের সদস্যের প্রতিনিধি দলের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। মতবিনিময় সভায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন এন্ড এ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর এয়ার ভাইস মার্শাল এএইচএম ফজলুল হক, ইঝচ, হফঁ, ধভপি, ঢ়ংপ,  গ্র“প ক্যাপ্টেন মোঃ জহির উদ্দিন, ডিন, ফ্যাকাল্টি অব এভিএন ম্যানেজমেন্ট, উইং কমান্ডার মোহাম্মদ হারুনুর রশিদ এডি, রেজিস্ট্রার এবং স্কোয়াড্রন লিডার কামরুল হাসান বারী স্টাফ অফিসার টু  উপস্থিত ছিলেন। ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোঃ  হারুন-রশিদ আসকারী (ড. রাশিদ আসকারী), প্রো- ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোঃ শাহিনুর রহমান, ট্রেজারার প্রফেসর ড. মোঃ সেলিম তোহা, রেজিস্ট্রার (ভারঃ) এস এম আব্দুল লতিফ, প্রকৌশল ও প্রযুক্তি অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মমতাজুল ইসলাম, ব্যবস্থাপনা বিভাগের সিনিয়র শিক্ষক ও সিন্ডিকেট সদস্য  প্রফেসর ড. মোঃ জাকারিয়া রহমান, ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর ড. মোঃ নজিবুল হক,  ছাত্র-উপদেষ্টা প্রফেসর ড. পরেশ চন্দ্র বর্মণ, পরিবহন প্রশাসক প্রফেসর ড. মোঃ রেজওয়ানুল ইসলাম, ইনফরমেশন এন্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর ড. তপন কুমার জোদ্দার, ফলিত রসায়ন ও কেমিকৌশল ইঞ্জিনিয়ারিং  বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ আতিকুর রহমান, আইন বিভাগের শিক্ষক ও সিন্ডিকেট সদস্য মোঃ আনিচুর রহমান, প্রধান প্রকৌশলী(ভারঃ) মোঃ আলিমুজ্জামান টুটুল, হিসাব পরিচালক(ভারঃ) মোঃ ছিদ্দিক উল্লাহ মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন। মতবিনিময় সভাটি সঞ্চালনা করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের এপিএ’র ফোকাল পয়েন্ট ও উপ-রেজিস্ট্রার ড. মোঃ নওয়াব আলী। মতবিনিময় সভায় বক্তারা বলেন দুটি বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে আজ সম্পর্কের এক নতুন ম্ত্রাার সূচনা হলো এতে করে একাডেমিক্যাল ও প্রশাসনিকসহ সকল বিষয়ে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এভিয়েশন এন্ড এ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয়কে সব ধরনের সাহায্য সহযোগীতা করবে। এছাড়া স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয় নিয়ে দুটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধিদলের মধ্যে প্রাণবন্ত আলোচনা হয়।  সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

কুষ্টিয়ায় র‌্যাবের অভিযানে ফেন্সিডিলসহ ২ জন গ্রেফতার

নিজ সংবাদ ॥ গতকাল রবিবার  বেলা ১টার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১২, সিপিসি-১, কুষ্টিয়া ক্যাম্পের র‌্যাবের একটি অভিযানিক দল কুষ্টিয়া জেলার দৌলতপুর থানাধীন আদাবাড়ী হতে ডাংমড়কাগামী পাঁকা রাস্তার উপর হতে মোঃ আসাদুল ইসলাম (৩৮), পিতা-মৃত রব্বান শেখ, সাং-প্রাগপুর রগুনাথপুর ও  নসিমন ড্রাইভার মোঃ লালন (২৫), পিতা-আহম্মদ, সাং-গড়–লা মিস্ত্রীপাড়া উভয় থানা- দৌলতপুর, জেলা-কুষ্টিয়াদ্ধয়ের নিকট হতে ৯৭ বোতল ফেন্সিডিল, ৩টি মোবাইল, ০৬টি সিমকার্ড ও নগদ ২শ টাকাসহ গ্রেফতার করেন। পরর্বতীতে উদ্ধারকৃত আলামতসহ ধৃত আসামীদের বিরুদ্ধে দৌলতপুর থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।