দৌলতপুর সীমান্তে ফেনসিডিল ও পাতার বিড়ি উদ্ধার

দৌলতপুর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুর সীমান্তে বিজিবি’র পৃথক অভিযানে ১৫বোতল ফেনসিডিল ও ২৬০০ প্যাকেট ভারতীয় পাতার বিড়ি উদ্ধার হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার ভোররাত পৌনে ৫টার দিকে চিলমারী বিওপি’র টহল দল শান্তিপাড়া মাঠে অভিযান চালিয়ে ২৪০০ প্যাকেট ভারতীয় পাতার বিড়ি উদ্ধার করেছে। এছাড়াও সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে উদয়নগর বিওপি’র টহল দল আতারপাড়া পশ্চিমমাঠে অভিযান চালিয়ে ২০০ প্যাকেট ভারতীয় বিড়ি উদ্ধার করেছে। অপরদিকে একইদিন সন্ধ্যায় চিলমারী বিওপি’র টহল দল গড়েরপাড়া গ্রামের সোলায়মান মাতব্বরের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে ১৫ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করেছে। তবে উদ্ধার হওয়া এসব মাদকের সাথে জড়িত কেউ আটক হয়নি।

গাংনীতে সাংবাদিক ওসমানের ইন্তেকাল

গাংনী প্রতিনিধি  ॥ মাই টিভির মেহেরপুরের গাংনী উপজেলা প্রতিনিধি মুহাম্মদ ওসমান (৩২) ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না……. রাজেউন)। গতকাল মঙ্গলবার ভোরে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে ওসমান মৃত্যুবরণ করেন। ওসমান গাংনী পৌর এলাকার বাঁশবাড়ীয়া বাজার পাড়ার বিশিষ্ট সমাজ সেবক সাইদুর রহমানের ছেলে। পারিবারিক সূত্র জানায়, গত  সোমবার গভীর রাতে বুকে ব্যথা অনুভব হয়। সাথে সাথে গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে ডাক্তার কুষ্টিয়া হাসপাতালে রেফার্ড করেন। গতকাল মঙ্গলবার ভোরে কুষ্টিয়া যাওয়ার পথে আমলা- মিরপুরে পৌঁছালে বুকের ব্যথা আরও বেড়ে যায়। তৎক্ষণাৎ পার্শ্ববর্তি মিরপুর হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন। সাংবাদিক ওসমান তার ২ কন্যা সন্তান, স্ত্রী, পরিবার পরিজন ,বন্ধু-বান্ধবসহ অসংখ্যগুণগ্রাহী রেখে গেছেন। গতকাল মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ১২ টার সময় গাংনী উপজেলা শহীদ মিনার চত্বরে ওসমানের প্রথম জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। পরে বাঁশবাড়ীয়া ফুটবল মাঠে ২য় জানাযা শেষে বাশবাড়ীয়া গোরস্থান ময়দানে দাফন সম্পন্ন হয়। ওসমানের মৃত্যুতে বিভিন্ন রাজনৈতিক  নেতা-কর্মী, সাংবাদিক সমাজ গভীরভাবে শোকাহত।

 

আইলচারা ইউনিয়ন পরিষদে ওয়ার্ড সভা অনুষ্ঠিত

নিজ সংবাদ ॥ কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ৭নং আইলচারা ইউনিয়ন পরিষদ প্রাঙ্গনে গতকাল বিকেলে এক ওয়ার্ড সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পরিষদের ২নং ওয়ার্ডের উদ্যোগে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ এবং এলাকার নানান সমস্যা তুলে ধরতে এ সভার আয়োজন করা হয়। সভার শুরুতে কোরআন তেলাওয়াত করেন জোয়াদ্দারপাড়া জামে মসজিদের ইমাম শরিফুল ইসলাম। এ ওয়ার্ডের সদস্য শাহজাহান আলীর সভাপতিত্বে এবং পরিষদের সেক্রেটারী আব্দুল মালেকের পরিচালনায় সভায় উপস্থিত ছিলেন সদর এমপির প্রতিনিধি আব্দুল কুদ্দুস, সংরক্ষিত মহিলা সদস্য মেরিনা খাতুন, সাবেক মেম্বর আক্কাস আলী, আইলচারা ইউনিয়ন যুবলীগের সেক্রেটারী আল কামাল, মহন অলী। জন সাধারনের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, বাবু জোয়াদ্দার, হাজী বরকত আলী, শ্রী তপন, জিয়ারুল ইসলাম প্রমুখ। এলাকার জনসাধারনের সরাসরি স্বতঃস্ফুর্ত অংশ গ্রহনে সর্ব সম্মতিক্রমে এ ওয়ার্ডের কয়েকটি উন্নয়নমূলক কাজ করার সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়। আর এ কাজগুলো দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য জোর দাবী জানান এলাকাবাসী।

আলমডাঙ্গার জামজামি বাজারে ভ্রাম্যমান আদালতে ২ ফার্মেসীকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা

আলমডাঙ্গা অফিস ॥ আলমডাঙ্গার জামজামি বাজারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে  মেসার্স রহমান ফার্মেসী ও  মেসার্স আল্লাহর দান ফার্মেসীতে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন। গতকাল দুপুরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার লিটন আলী ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন। জানাগেছে, আলমডাঙ্গা উপজেলার জামজামী বাজারে মেসার্স রহমান ফার্মেসীর মালিক শ্রীনগর গ্রামের  রিয়াজ উদ্দিনের ছেলে  আব্দুর রহমানকে  ফার্মেসীর  লাইসেন্স না থাকা ও মেয়াদ উত্তীর্ন ও ভেজাল ওষুধ রাখার দায়ে ২ হাজার জরিমানা করেন। একই বাজারের মেসার্স আল্লাহর দান ফার্মেসীর মালিক  সোহাগপুর গ্রামের নুরু মালিথার ছেলে আল আমিনকে একই অপরাধে ৩ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এ সময় আলমডাঙ্গা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. আব্দুল্লাহিল কাফি ও স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হারদীর স্যানেটারী ইন্সেপেক্টর নিজাম উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন।

সাংবাদিক রিজু বাংলাদেশ আওয়ামী সাংস্কৃতিক ফোরামের কেন্দ্রীয় কার্যকরি পরিষদের সদস্য নির্বাচিত

বাংলাদেশ আওয়ামী সাংস্কৃতিক ফোরামের (আসাফো) কেন্দ্রীয় সম্মেলন ১৯ জুলাই ঢাকার প্রিয়াঙ্কার শুটিং জোনে অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত নির্বাচনে বাংলাদেশের সকল জেলা ও মহানগরের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক, কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দসহ ২২৯ জন কাউন্সিলার ভোট প্রদান করেন। উক্ত ভোটে সাইদুর রহমান সজল সভাপতি ও শাহাদত হোসেন লিটন সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। গত ২৮ জুলাই আসাফোর নীতি নির্ধারণী কমিটি ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য প্রফেসর ড. হোসেন মুনসুরের নেতৃত্বে ১০১ সদস্য বিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণা হয়। উক্ত কমিটিতে কুষ্টিয়ার সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব দৈনিক সত্যখবর পত্রিকার সম্পাদক-প্রকাশক ও এশিয়ান টেলিভিশনের জেলা প্রতিনিধি ও বাংলাদেশ মাদক প্রতিরোধ কমিটি কেন্দ্রীয় সংসদের সভাপতি সাংবাদিক হাসিবুর রহমান রিজু কেন্দ্রীয় কার্যকরি কমিটির সদস্য নির্বাচিত হন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

প্রায় ১যুগের অধিক সময় ধরে কালুখালীতে ভোরের সাথী সংগঠনের উদ্যোগে হাটা ও শারীরিক ব্যায়াম কার্যক্রম অনুষ্ঠিত

কালুখালী প্রতিনিধি ॥ “সুস্থ দেহ সুন্দর মন-আমাদের সবার এক মন, সুস্থ থাকার একটি উপায় হাটা আর ব্যায়াম সবাই কয়” এই  স্লোগানকে সামনে রেখে ১যুগ পেরিয়ে রাজবাড়ী জেলার কালুখালী উপজেলার সাদা মনের মানুষের একটি সংগঠন “ভোরের সাথীর” উদ্যোগে নিয়মিত হাটাচলা ও ব্যায়াম কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়। দেহ ও মনের সুস্থতা ও আনন্দ লাভের জন্য শারীরিক অঙ্গসঞ্চালন ব্যায়ামের মাধ্যমে বিভিন্ন চিত্তবিনোদনমূলক কর্মকান্ডের মাধ্যমে এবং অঙ্গপ্রত্যঙ্গের উন্নতি ছাড়াও মানসিক প্রশান্তি ও সামাজিক গুণাবলি অর্জন করার লক্ষ্যে দীর্ঘ একযুগেরও বেশি সময় ধরে ভোরের সাথীর পথ চলা। গতকাল ৩০ জুলাই ভোর ৫টায় সরেজমিনে গিয়ে দেখাযায়, কালুখালী রেলষ্টেশন চত্বরে কালুখালী উপজেলার বিভিন্ন এলাকার বেশ কিছু সাদা মনের মানুষদের নিয়ে এই কার্যক্রম চলছে। প্রধান উপদেষ্টা কালুখালী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলিউজ্জামান চৌধুরী টিটোর সার্বিক সহযোগীতায় কালুখালী প্রগতি থিয়েটারের সাবেক প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব বিশিষ্ট নাট্যঅভিনেতা ও সুনামধন্য পল্লী চিকিৎসক ডাঃ গোপাল সিকদারের পরিচালনায় এই কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। প্রান্তকালিন শারীরিক চর্চ্চা, হাটা ও ব্যায়ামে উপস্থিত ছিলেন ভোরের সাথী সংগঠনের সভাপতি উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও নিয়মিত বেতার কন্ঠশিল্পি অজয় কুমার দত্ত, সংগঠনের উপদেষ্টা ঝাউগ্রাম সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ, কালুখালী সরকারী কলেজের সহকারী অধ্যাপক মোঃ বজলুল রশিদ, কালুখালী শিল্পকলা একাডেমীর সাধারন সম্পাদক জাহিদ হাসান। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ভোরের সাথী সংগঠনের অন্যতম সদস্য কালুখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য খাইরুল ইসলাম খায়ের, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাকির হোসেন মোল্লা, বিল্লাত আলী মাতব্বর, রেলষ্টেশন মসজিদের মোয়াজ্জেম  গোলাম ছোরোয়ার (সোসের), ডাঃ আব্দুর রহিম, মোনায়েম খান, প্রধান শিক্ষক বিশ্বজিৎ সাহা, এম আরিফুল রহিম, সানারুদ্দিন মোল্লা, নাইম, গৌতম বাবু, রিয়াজুল ইসলাম, নুরুল ইসলাম টোকন, শহীদুল ইসলাম, জুবায়েদ হোসেন ফিরোজ, কুন্নু বিডিয়ার, আঃ আজিজ, মোফাজ্জেল হোসেন, মোহসীন সিকদার, আমজাদ হোসেন, রনজু মন্ডল, আশিক প্রামানিক, আঃ রশিদ, ইউসুফ হোসেন, বিশেষ আকর্ষণ নাসার্রী পড়–য়া শিক্ষার্থী মোনতাসির রহমান মাহির সহ প্রায় ৫০জন এই হাটা ও শারীরিক ব্যায়াম করে থাকেন।

ইবির আল-হাদিস বিভাগে পিএইচ.ডি সেমিনার

ইবি প্রতিনিধি ॥ ইসলামী বিশ^বিদ্যালয়ের আল-হাদিস এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগে ‘ইসলামী রাষ্ট্রে বিচার ব্যাবস্থা’ শীর্ষক পিএইচ.ডি সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টায় থিওলজী অনুষদের সভাকক্ষে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন থিওলজী অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. আ.ফ.ম আকবর হোসাইন ও বিশেষ অতিথি ছিলেন গবেষণার তত্বাবধায়ক প্রফেসর ড. নাছির উদ্দিন। আল-হাদিস এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. আশরাফুল আলমের সভাপতিত্বে সেমিনারের আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রফেসর ড. ময়নুল হক ও প্রফেসর ড. সৈয়দ মাকসুদুর রহমান। সেমিনারে পিএইচ.ডি গবেষক মাহফুযুর রহমান তার গবেষণা প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন এবং প্রফেসর ড. ময়নুল হক ও প্রফেসর ড. সৈয়দ মাকসুদুর রহমান আলোচকদ্বয় ইসলামী রাষ্ট্রে বিচার ব্যবস্থার উপরে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা করেন।

আলমডাঙ্গায় ৮ মাসের শিশু আফফান ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে  জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি

আলমডাঙ্গা অফিস ॥ আলমডাঙ্গায় ৮ মাসের শিশু  আফফান ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। ৩০ জুলাই সকালে শিশু আফফানকে কুষ্টিয়া আমিন ডায়াগনষ্টিক সেন্টারে শিশু বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের কাছে চিকিৎসার জন্য নিয়ে গেলে তাকে ডেঙ্গু জ¦র পরীক্ষা করার জন্য সনো টাওয়ারে পাঠানো হয়। সেখানে পরীক্ষা শেষে  রিপোর্ট দেখে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজের ডাক্তার ফিরোজ আহমেদ জানান শিশুটি ডেঙ্গু জ¦রে আক্রান্ত হয়েছে। জানাগেছে, আলমডাঙ্গা পৌর এলাকার এক্সেঞ্জনপাড়ার আলমডাঙ্গা সরকারী কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক ফারুক হোসেনের ৮ মাসের শিশু পুত্র আফফান গত ১০ দিন ধরে জ¦রে আক্রান্ত হয়েছিল। স্থানীয় ডাক্তার দ্বারা তার চিকিৎসা করা পর জ¦র ভাল না হওয়ায় ৩০ জুলাই তাকে কুষ্টিয়া সনো টাওয়ারে নিয়ে যায়। গতকাই রাতেই শিশু আফফানকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে।

ভেড়ামারায় জাতীয় মহিলা সংস্থার ঋণ বিতরণ

ভেড়ামারা অফিস ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় জাতীয় মহিলা সংস্থার আয়োজনে গতকাল মঙ্গলবার সকালে মহিলাদের আত্ম কর্ম-সংস্থানের জন্য ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম এর আওতায় ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে। ২৫ জন মহিলার মাঝে ১৫ হাজার টাকা করে মোট ৩ লাখ ৭৫ হাজার টাকা ঋণ হিসাবে বিতরণ করা হয়। এসময় ঋণের চেক বিতরণ করেন, জাতীয় মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান বলাকা পারভীন স্বপ্না। অনুষ্ঠানটি সার্বিক পরিচালনা করেন, ঋণদান কমিটির সদস্য সচিব ও সংস্থার সমন্বয়কারী মোহাঃ আসমান আলী।

রবীন্দ্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয় ও মীর আব্দুল করিম কলেজের উদ্যোগে ক্যারিয়ার প্ল্যানিং ও উচ্চ শিক্ষা শীর্ষক সেমিনার

আল-মাহাদী ॥ রবীন্দ্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয় ও মীর আব্দুল করিম কলেজের  যৌথ উদ্যোগে কুষ্টিয়ার মিরপুরে আয়োজিত ক্যারিয়ার প্ল্যানিং ও উচ্চ শিক্ষা শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সকালে অত্র কলেজের হলরুমে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে মীর আব্দুল করিম কলেজের অধ্যক্ষ আহসান উল হক খান চন্দন চৌধুরীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি’র বক্তব্য রাখেন, আমলা সরকারী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ ও রবীন্দ্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর মোঃ ইকবাল হোসেন। অনুষ্ঠানে মূখ্য আলোচক ছিলেন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের প্রফেসর ও রবীন্দ্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয়  বোর্ড অব ট্রাস্টিজ’র ভাইস চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মোঃ জহুরুল ইসলাম। মীর আব্দুল করিম কলেজের আইসিটি বিভাগের প্রভাষক শাহিনুজ্জামানের সঞ্চালনে বিশেষ অতিথি’র বক্তব্য দেন, মিরপুর উপজেলা জাসদের সাধারন সম্পাদক আহাম্মদ আলী, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক কারশেদ আলম ও বহলবাড়ীয়া ইউনিয়ন জাসদের সভাপতি সাইদুর রহমান মন্টু। অনুষ্ঠানটির আয়োজক ছিলেন রবীন্দ্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয়। উল্লেখ্য, রবীন্দ্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয় ২০১৭ সালের অক্টোবর মাস থেকে পাঠদানের কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। নান্দনিক অবকাঠামো এবং দক্ষ শিক্ষকমন্ডলীর তত্ত্বাবধানে শিক্ষার্থীদের অধ্যায়ন করানো হচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয়টি তার যাত্রার শুরু থেকেই গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের নানা ধরনের ছাড়ের ব্যবস্থা করে আসছে।

গাংনীতে বাবার বিরুদ্ধে ছেলে ও শ্যালকের ঘরে আগুন দেয়ার অভিযোগ 

গাংনী প্রতিনিধি ॥ মেহেরপুরের গাংনীর পল্লীতে বাবার বিরুদ্ধে নিজ ছেলে ও শ্যালকের বাড়ীতে আগুন দেয়ার অভিযোগ উঠেছে। নেশাখোর, লম্পট বাবার নানা অপকর্ম আড়াল করতে নিজের ছেলে ও শ্যালককে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর জন্য বাবা রাতের আঁধারে ঘরে আগুন দিয়েছে বলে জানা গেছে। ঘরে আগুন দেয়ার মত অমানবিক ঘটনাটি ঘটেছে গাংনী উপজেলার বেতবাড়ীয়া নতুনপাড়া গ্রামে। গত সোমবার দিবাগত রাত ১১ টার সময়  আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটে। গ্রামবাসীসূত্রে জানা গেছে, বেতবাড়ীয়া গ্রামের করিম মন্ডলের ছেলে সাইফুল ইসলাম একজন খারাপ প্রকৃতির লোক। হেন অপকর্ম নেই যা সে করে না। নারী কেলেংকারীসহ বাবার নানা অপকর্মের ঘটনা দেখে ফেলায় বাবা মিথ্যা অভিযোগে ফাঁসানোর জন্য ছেলে সুজন আলী ও  খান মহাম্মদের ছেলে শ্যালক মিজানুর রহমানের ঘরে রাত ১১টার দিকে পেট্রোল ও ডিজেল তেল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। প্রতিবেশী তেল ছিটানোর বিষয়টি দেখে ফেলায় বর্তমানে সাইফুল ইসলাম আত্মগোপনে রয়েছে। গভীর রাতের বেলায় ঘরে আগুন দেয়ার খবর স্থানীয় মেম্বর সাইদুর রহমান সাথে সাথে গাংনী থানার অফিসার ইনচার্জ ওবাইদুর রহমানকে অবহিত করলে তিনি রাত ২ টার সময় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। গাংনী থানার অফিসার ইনচার্জ ওবাইদুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,অভিযুক্ত সাইফুল ইসলামএকজন খারাপ লোক। তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। সে পলাতক রয়েছে।

কুষ্টিয়া জেলা পরিষদ কর্র্তৃক সপ্তাহব্যাপী মশক নিধন ও পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রমের অংশ হিসাবে ৬নং ওয়ার্ডের সদস্য আলহাজ্ব মহাম্মদ আলী জোয়ার্দ্দার ডেঙ্গু, চিকনগুনিয়া ও মশক নিধনের জনসচেতনতা বৃদ্ধির জন্য মিরপুর উপজেলার বলিদাপাড়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, নওপাড়া বাজার, তালবাড়ীয়া ইউনিয়নের গোবিন্দপুর বাজার ও আমবাড়ীয়া ইউনিয়নের সুতাইলগ্রামে জেলা পরিষদের লিফলেট বিতরণ করছেন।

দৌলতপুরে ৩ দিনব্যাপী ফলদ বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন

দৌলতপুর প্রতিনিধি ॥ ‘পরিকল্পিত ফল চাষ যোগাবে পুষ্টি সম্মত খাবার’ এই প্রতিপাদ্য নিয়ে  কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে ৩ দিনব্যাপী ফলদ বৃক্ষ মেলার উদ্বোধন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে গতকাল মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় টায় র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি উপজেলা পরিষদ চত্বরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। র‌্যালি শেষে দৌলতপুর কৃষি অফিস চত্বরে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন কুষ্টিয়া-১ দৌলতপুর আসনের সংসদ সদস্য এ্যাড. সরওয়ার জাহান বাদশা। বিশেষ অতিথি ছিলেন, দৌলতপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ্যাড. এজাজ আহমেদ মামুন, ভাইস চেয়ারম্যান সাক্কির আহমেদ ও মহিলা ভাস চেয়ারম্যান সোনালী খাতুন। বক্তব্য রাখেন, দৌলতপুর কৃষি অফিসার এ কে এম কমরুজ্জামান। দৌলতপুর উপজেলা প্রশাসন ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর দৌলতপুরের আয়োজনে এ বৃক্ষমেলা শেষ হবে আগামীকাল।

ঝাউদিয়া বাজার মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আলাউদ্দিনের ইন্তেকাল

নিজ সংবাদ ॥ গত সোমবার রাত আনুমানিক ৮টার সময়  মোটরসাইকেল যোগে বাড়ী ফেরার পথে  স্ট্রোক করে  মোটরসাইকেল থেকে পরে মৃত্যুবরণ করেন কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ঝাউদিয়া বাজার মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আলাউদ্দিন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫২ বছর। জানা যায়, তিনি শ্রীনগর এলাকায় রাস্তার মাঝখানে মোটরসাইকেলের উপর  থেকে স্ট্রোক করে পরে যায়। সেখান থেকে হরিনাকুন্ডু সরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে আগেই মৃত্যু হয়েছে বলে জানান। শিক্ষক আলাউদ্দিন চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গা উপজেলার জামজামি ইউনিয়নের শ্রীনগর গ্রামের মৃত হারেজ আলী মন্ডলের বড় ছেলে। তিনি ১৯৯৪ সালের ৮ ফেব্র“য়ারি ঝাউদিয়া বাজার মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে যোগদান করেন। এরপর থেকে তিনি নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। তার মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি প্রকৌশলী নজরুল ইসলাম, প্রধান শিক্ষক উত্তম কুমার বিশ্বাস, ঝাউদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান কেরামত আলী বিশ্বাস প্রমুখ।

ডেঙ্গু, মশা ঠেকাতে সবাইকে সচেতন হওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

ঢাকা অফিস ॥ ডেঙ্গু প্রতিরোধে সবাইকে যার যার অবস্থানে থেকে সক্রিয় হওয়ার এবং মশার বংশ বিস্তার রোধে বাড়ি, কর্মস্থল ও আশপাশের এলাকা পরিষ্কার রাখার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল মঙ্গলবার লন্ডন থেকে টেলিকনফারেন্সের মাধ্যমে ঢাকায় আওয়ামী লীগের বিশেষ জরুরি বৈঠকে যুক্ত হয়ে তিনি এ আহ্বান জানান।প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আমি সবাইকে আহ্বান করব, নিজের ঘরবাড়ি আশপাশের রাস্তাঘাট যেন পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকে, সে ব্যপারে যেন ব্যবস্থা নেওয়া হয়। সবাই যদি পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকে, তাহলে আমরা এখান থেকে রক্ষা পেতে পারব।”স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, বছরের শুরু থেকে এ পর্যন্ত ডেঙ্গু নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন প্রায় পৌনে ১৪ হাজার মানুষ। ইতোমধ্যে দেশের ৬৩ জেলায় ডেঙ্গুরোগী শনাক্ত করা হয়েছে।বিভিন্ন জেলায় আক্রান্তদের অনেকে ঢাকা থেকে রোগ নিয়ে গেছেন। তবে রাজধানীর বাইরেও এডিস মশার বিচরণ রয়েছে বলে স্থানীয় পর্যায়ে আক্রান্তের সম্ভাবনাও উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে বিশেষ জরুরি বৈঠকের শুরুতেই দলের সভাপতি শেখ হাসিনা টেলিকনফারেন্সে বলেন, “ইদানিং একটি উপদ্রব দেখা দিয়েছে- ডেঙ্গু। ডেঙ্গু জ্বরটা যখন শুরু হয়, তখন আমরা দেখেছি,বিশেষ করে শহর এলাকায়, ঢাকা শহরের এর বিস্তার ছিল।“তবে এটা ধীরে ধীরে ছড়িয়ে যাচ্ছে। সামনে কোরবানির ঈদের সময় মানুষ বাড়িতে যাবে। যারা ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়েছে বা যাদের শরীরে এই বীজটা রয়ে গেছে, তারা আবার নিজ নিজ এলাকায় গেলে পড়ে সেখানে যদি মশা কামড় দেয়, তাহলে হয়ত অন্য কেউ এই রোগে আক্রান্ত হতে পারে।” সেজন্য সবাইকে ডেঙ্গু প্রতিরোধে সচেতন হওয়ার ‘অনুরোধ’ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “সবার নিজ নিজ ঘর বাড়ি, কাপড় চোপড়-যেগুলো অলনায় ঝোলানো থাকে,বাক্সে বা আলমারিতে থাকে;সেগুলো পরিষ্কার রাখা, ঘরের সকল কোণা, সবকিছু পরিষ্কার করে রাখা।” এডিস মশা বংশবিস্তার করে জমে থাকা পরিষ্কার পানিতে। সে কারণে বৃষ্টির পানি যেন কোথাও জমে না থাকে, সে বিষয়ে সজাগ থাকতে বলেন শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, “এডিস মশা বেশিরভাগ সময় পায়ের দিকে কামড়ায়। সে কারণে পা ঢেকে রাখতে হবে, ঘুমানোর সময় মশারি টাঙিয়ে ঘুমাতে হবে।” ডেঙ্গু র বিষয়ে সচেতনাতা সৃষ্টিতে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে নেওয়া বিভিন্ন উদ্যোগের কথাও তুলে ধরেন শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, “আমি আমাদের যুবলীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগসহ সহযোহী সংগঠনকে আহ্বান জানাব, আমাদের কর্মীরাও যেন মাঠে নেমে পড়ে।” ছাত্র, শিক্ষক, পেশাজীবী থেকে শুরু করে সব ধরনের সংগঠকে এ বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির কাজে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “এয়ার কন্ডিশনের পানি, ফ্রিজের পানি, ফুলে টব বা ফুলদানির পানিসহ টায়ার, ভাঙ্গা হাড়িতে পানি জমে থাকে। সবাইকে পরিচ্ছন্নতার দিকে নজর দেওয়া দরকার।” পরিস্থিতি সামাল দিতে ঢাকার দুই মেয়রের সঙ্গে কথা বলে নির্দেশনা দেওয়ার কথা জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, “আমি সকলকে বলব, মশা যেন ডিম পাড়তে না পাড়ে, মশার লার্ভা যেন তৈরি না হয়, বংশ বিস্তার করতে না পারে। এটা প্রত্যেকটি মানুষকে নিজেকেই করতে হবে, এটাই বাস্তবতা।” সাংবাদিকদেরও এ বিষয়ে সচেতন থাকার তাগিদ দেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, সাংবাদিকদের বিভিন্ন জায়গায় ‘ঘুরতে হয়’, সেজন্য নিজেকে ‘সুরক্ষিত’ রাখতে হবে। “পাশাপাশি এটাও দেখতে হবে যে সকলে যেন সাবধান থাকে। কর্মস্থলে মশা যেন কামড়াতে না পারে, বংশ বিস্তার করতে না পারে।”

কমনওয়েলথ বব্লু চার্টার বাস্তবায়নে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব প্রদানের আহবান এর মহাসচিবের

ঢাকা অফিস ॥ কমনওয়েলথ ‘বব্ল চার্টার’ বাস্তবায়ন এবং জলবায়ু ঝুঁকি মোকাবেলায় বাংলাদেশকে কমনওয়েলথে নেতৃত্ব প্রদানের আহবান জানিয়েছেন এর মহাসচিব প্যাট্রিসিয়া স্কটল্যান্ড কিউসি। প্যাট্রিসিয়া স্কটল্যান্ড কিউসি সোমবার সন্ধ্যায় (লন্ডনের স্থানীয় সময়) লন্ডনে অবস্থানরত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য স্বাক্ষাতে এই আহবান জানান। প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম কমনওয়েলথ মহাসচিবের বক্তব্যের উদ্বৃতি দিয়ে জানান- কমনওয়েলথ মহাসচিব বলেছেন, ‘কমনওয়েলথ বব্লু চার্টার এবং জলবায়ু ঝুঁকি ব্যবস্থাপনার ক্ষেত্রে বাংলাদেশের নেতৃত্ব দেয়া উচিত।’ ‘কমনওয়েলথ বব্লু চার্টার’ মহাসাগর সংক্রান্ত নানা সমস্যার সমাধান এবং টেকসই মহাসাগর উন্নয়নের লক্ষ্যে কমনওয়েলথ সদস্যভুক্ত ৫৩টি সদস্য রাষ্ট্রের পারষ্পরিক সহযোগিতার ভিত্তিতে কাজ করার একটি অঙ্গীকারনামা। প্রেস সচিব লন্ডন থেকে টেলিফোনে বাসসকে জানান, প্রধানমন্ত্রী কমনওয়েলথ মহাসচিবের প্রস্তাবে সম্মত হয়েছেন এবং বলেছেন, ‘তাঁর সরকার এ বিষয়ে কাজ করে যাচ্ছে।’ বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী এবং কমনওয়েলথ মহাসচিব তথ্য প্রযুক্তি খাত এবং এসডিজি বাস্তবায়নে অগ্রগতি সংক্রান্ত বিষয়ে আলোচনা করেন, বলেন প্রেস সচিব। এ প্রসঙ্গে প্যাট্রিসিয়া তথ্য প্রযুক্তি খাতে এবং এসডিজি (টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা) বাস্তবায়নের অগ্রগতিতে বাংলাদেশের চমকপ্রদ সাফল্যের ভুয়সী প্রশংসা করেন। তিনি বলেন, এ বছর কেনিয়ার নাইরোবীতে অনুষ্ঠেয় কমনওয়েলথ নারী সম্মেলনেও বাংলাদেশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে। প্যাট্রিসিয়া আরো বলেন, বাংলাদেশের এসডিজি বাস্তবায়নের উন্নত সংস্করণ থেকে বিভিন্ন কমনওয়েলথ সদস্য রাষ্ট্রগুলোও শিক্ষা লাভ করতে পারে। তিনি বলেন,কমনওয়েলথ’র ৫৩টি সদস্যভুক্ত রাষ্ট্রের মধ্যে ৪৯টি নিয়ে একটি ‘কন্টিনেন্টাল ফ্রি ট্রেড এরিয়া’(উপমহাদেশীয় অবাধ বাণিজ্য এলাকা) গড়ে তোলা হবে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানই সর্বপ্রথম বাংলাদেশ দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্মসূচি চালু করেন এবং বর্তমান সরকার তাঁর পদাংক অনুসরণ করেই জলবায়ু ঝুঁকি মোকাবেলার পদক্ষেপ গ্রহণ করছে। এ বিষয়ে তাঁর সরকারের বিভিন্ন উদ্যোগ সম্পর্কেও প্যাট্রিসিয়াকে অবহিত করেন প্রধানমন্ত্রী। শেখ হাসিনা এ সময় কমনওয়েলথকে ৫৩টি সদস্য রাষ্ট্রের একটি ‘আমব্রেলা অর্গানাইজেশন’ হিসেবে গড়ে তোলায় এর মহাসচিব প্যাট্রিসিয়ার ভূমিকার প্রশংসা করেন। প্রধানমন্ত্রীর কন্যা সায়মা ওয়াজেদ হোসেন, মুখ্য সচিব মো.নজিবুর রহমান এবং লন্ডনে বাংলাদেশের হাইকমিশনার সাইদা মুনা তাসনীম এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

ডেঙ্গু আক্রান্ত ১৫ হাজার ছাড়িয়েছে

ঢাকা অফিস ॥ ডেঙ্গু রোগীর সংংখ্যা দিন দিন বাড়ছেই। দেশের ৬৪টি জেলার ৬৩টিই এখন ডেঙ্গু আক্রান্ত। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, গতকাল মঙ্গলবার দুপুর নাগাদ গত ২৪ ঘণ্টায় আরও এক হাজার ৩৩৫ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকার বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি হাসপাতাল ও ক্লিনিকে ভর্তি হয়েছেন ৯৭৪ জন। নতুনদের নিয়ে এ বছর ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৫ হাজার ৩৬৯ জন, যাদেও মধ্যে আটজনের মৃত্যু হয়েছে বলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশনস সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। তবে বেসরকারি হিসেবে মৃতের সংখ্যা ৩১। মঙ্গলবার দেশের ৬৩টি জেলায় ডেঙ্গুরোগী শনাক্ত হওয়ার কথা জানায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর, যেখানে আগের দিনও ৫০ জেলায় ডেঙ্গু রোগীর তথ্য পাওয়ার কথা জানিয়েছিল তারা।বিভিন্ন জেলায় আক্রান্তদের অনেকে ঢাকা থেকে রোগ নিয়ে গেছেন। তবে রাজধানীর বাইরেও এডিস মশার বিচরণ রয়েছে বলে স্থানীয় পর্যায়ে আক্রান্তের সম্ভাবনাও উড়িয়ে দিচ্ছেন না বিশেষজ্ঞরা। তাছাড়া ঢাকা থেকে এই রোগ নিয়ে যাওয়ায় সারা দেশেই তা ছড়িয়ে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা করছেন তারা।ডেঙ্গু নিয়ে নতুন করে যারা হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন তাদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ২২১ জন ভর্তি হয়েছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে, বর্তমানে এখানে চিকিৎসাধীন আছেন ৬৭৯ জন ডেঙ্গু রোগী।এরপর মিটফোর্ড হাসপাতালে নতুন ভর্তি ১০৫ ও চিকিৎসাধীন ২৯৯ জন, ঢাকা শিশু হাসপাতালে নতুন ভর্তি ৪৮ ও চিকিৎসাধীন ১২১ জন, শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে নতুন ভর্তি ৬১ ও চিকিৎসাধীন ২৬৬ জন, হলি ফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট হাসপাতালে নতুন ভর্তি ৪২ ও চিকিৎসাধীন ২১৬ জন, বারডেম হাসপাতালে নতুন ভর্তি ১৭ ও চিকিৎসাধীন ৫২ জন, বিএসএমএমইউতে নতুন ভর্তি ২৬ এবং চিকিৎসাধীন ৯৬ জন, পুলিশ হাসপাতালে নতুন ভর্তি ৩৩ এবং চিকিৎসাধীন ১৩২ জন, মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নতুন ভর্তি ৬৩ এবং চিকিৎসাধীন ২৫৩ জন, বিজিবি হাসপাতালে নতুন ভর্তি দুই জন এবং চিকিৎসাধীন ৩০ জন, কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে নতুন ভর্তি ৯০ এবং মোট চিকিৎসাধীন আছেন ২৪৭ জন।ঢাকা শহরের বাইরে ঢাকা বিভাগের জেলাগুলোতেই সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় এসব জেলার হাসপাতালগুলোতে ডেঙ্গু নিয়ে ভর্তি হয়েছেন ১০৪ জন, তাদের নিয়ে মোট চিকিৎসাধীন আছেন ১৯১ জন।এরপর খুলনা বিভাগে নতুন ডেঙ্গু রোগী ৫৬ এবং মোট চিকিৎসাধীন ১৫১ জন, রাজশাহী বিভাগে নতুন ৫৬ জন এবং মোট চিকিৎসাধীন ১৯৮ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে নতুন ৫৫ জন এবং মোট চিকিৎসাধীন ১০৪ জন, সিলেট বিভাগে নতুন ৫৫ এবং মোট চিকিৎসাধীন ৭০ জন, রংপুর বিভাগে নতুন রোগী ২০ এবং মোট চিকিৎসাধীন ৮৩ জন, ময়মনসিংহ বিভাগে নতুন রোগী নয়জন এবং মোট চিকিৎসাধীন ২৫ জন, বরিশাল বিভাগে নতুন শনাক্ত ছয়জন এবং মোট হাসপাতালে ভর্তি ২৫ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তালিকা অনুযায়ী, ময়মনসিংহ জেলা বাদে দেশের অন্য সব জেলায় ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। ডেঙ্গু রোগের চিকিৎসা কার্যক্রম তদারকিতে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক তার নিজের দপ্তরে ‘মিনিস্টার মনিটরিং সেল’ গঠন করেছেন।এই সেল থেকে ডেঙ্গু রোগ সংক্রান্ত জনভোগান্তি নিরসনে এবং স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের চলমান কর্মকা- তদারকি করা হবে বলে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।এতে বলা হয়, ডেঙ্গু রোগ পরীক্ষার ফি সংক্রান্ত সরকারি নির্দেশনার লংঘন হলে তার অভিযোগ গ্রহণ করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে ‘মিনিস্টার মনিটরিং সেল’।এই সেলের আওতায় ডেঙ্গু নিয়ে যে কোনো অনিয়ম সম্পর্কে অভিযোগ জানাতে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ ব্যবস্থা চালু করা হয়েছে। এজন্য হটলাইন নম্বরগুলো হল: ০১৩১৪-৭৬৬০৬৯/ ০১৩১৪-৭৬৬০৭০, ০২-৪৭১২০৫৫৬/০২-৪৭১২০৫৫৭।এর আগে সোমবার বিকালে মন্ত্রণালয়ের এক সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ডেঙ্গু ও বন্যাজনিত কারণে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় সংশি¬ষ্ট সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর ছুটি বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে।   এ বছর ডেঙ্গু আক্রান্তের লক্ষণ ও উপসর্গ পাল্টে আরও মারাত্মক হয়েছে। কারও জ্বর হলে দ্রুত চিকিৎসকের কাছে যাওয়া, ডেঙ্গু ধরা পড়লে হাসপাতালে ভর্তি হওয়া এবং এমনকি রোগ সারার পরেও সজাগ থাকার পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা।  মশাবাহিত রোগ ডেঙ্গু বাংলাদেশে প্রথম দেখা দেয় ২০০০ সালে, সে সময় এই রোগে মারা যান ৯৩ জন। তিন বছর পর থেকে ডেঙ্গুতে মৃত্যুর হার কমতে থাকে এবং কয়েক বছর এতে মৃত্যু শূন্যের কোটায় নেমে আসে।তবে গত বছর আবার ব্যাপকভাবে দেখা দেয় ডেঙ্গু, ১০ হাজার মানুষ আক্রান্ত হওয়ার পাশাপাশি ২৬ জনের মৃত্যু হয় সরকারি হিসাবে।

 

লর্ড আহমেদ অব উইম্বলডন প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

আলোচনার মাধ্যমেই রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান চায় বাংলাদেশ 

ঢাকা অফিস ॥ মায়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যুত ১১ লাখ রোহিঙ্গাকে আশ্রয় প্রদান বাংলাদেশের জন্য এক বিরাট বোঝা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ঢাকা দীর্ঘায়িত এই রোহিঙ্গা সমস্যাকে আলাপ-আলোচনার মাধ্যমেই নিষ্পত্তি করতে চায়। লন্ডনের স্থানীয় সময় সোমবার সন্ধ্যায় লর্ড আহমেদ অব উইম্বলডন প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতে এলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এত বিপুল সংখ্যক রোহিঙ্গাকে আশ্রয় প্রদান আমাদের জন্য এক বিরাট বোঝা। আমরা আলাপ-আলোচনার মাধ্যমেই এটির সমাধান করতে চাই।’ প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বৈঠকের পরে প্রধানমন্ত্রীকে উদ্ধৃত করে একথা জানান। লর্ড আহমেদ বর্তমানে যুক্তরাজ্যের কমনওয়েলথ এবং জাতিসংঘবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। বর্তমানে যুক্তরাজ্য সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইউরোপের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশ নিযুক্ত হাইকমিশনার ও রাষ্ট্রদূতদের সম্মেলন এবং অন্যান্য অনুষ্ঠানে যোগদান উপলক্ষ্যে গত ১৯ জুলাই সরকারি সফরে লন্ডন পৌঁছেন।লন্ডন থেকে টেলিফোনে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বাসসকে বলেন, লর্ড আহমেদ রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশকে তাঁর দেশের সকল প্রকার সহায়তা প্রদানের আশ্বাস দিয়েছেন এবং এ বিষয়টি নতুন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন অবগত রয়েছেন বলেও জানান।সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী এবং লর্ড আহমেদ উভয়ই একমত পোষণ করে বলেন, ‘ইসলাম শান্তির ধর্ম এবং সন্ত্রাসবাদকে ইসলাম কখনও সমর্থন করে না।’এ প্রসঙ্গে শেখ হাসিনা বলেন, তাঁর সরকার বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষকে একত্রিত করে এর বিরুদ্ধে গণসচেতনতা সৃষ্টি করেছে।বাংলাদেশে বিদ্যমান সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সকল ধর্মমতের মানুষ এদেশে স্বাধীনভাবে নিজ নিজ ধর্ম পালন করছে।’ইসলামের প্রকৃত মূল্যবোধ জনগণের কাছে তুলে ধরতে তাঁর সরকার সারাদেশে ইসলামিক রিসার্স সন্টার গড়ে তুলছে বলেও শেখ হাসিনা লর্ড আহমেদকে অবহিত করেন।প্রধানমন্ত্রী এবং লর্ড আহমেদ ব্রিটেনের ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে বেরিয়ে যাওয়া সংক্রান্ত ব্রেক্সিট ইস্যু নিয়েও আলোচনা করেন। বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে বাংলাদেশে নারীর ক্ষমতায়নের ভূয়সী প্রশংসা করেন লর্ড আহমেদ ।এ প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘একমাত্র শিক্ষাই নারীর ক্ষমতায়নের নিশ্চয়তা বিধান করতে পারে।’নারীর ক্ষমতায়নে তাঁর সরকারের বিভিন্ন উদ্যোগ তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন,‘সরকার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৬০ শতাংশ শিক্ষক নারীদের থেকে নিয়োগ করছে।’বাংলাদেশ এবং যুক্তরাজ্যের মধ্যে বিদ্যমান চমৎকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে উভয়ে সন্তোষ প্রকাশ করে বৈঠকে আশাবাদ ব্যক্ত করেন, ‘আগামীর দিনগুলোতে এই বন্ধন আরো সুদৃঢ় হবে।’লর্ড আহমেদের সঙ্গে তাঁর সহধর্মিনী সিদ্দিকা আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মো.নজিবুর রহমান এবং যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের হাইকমিশনার সাইদা মুনা তাসনীম বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

রংপুরে উপ-নির্বাচনে অংশ নেবে বিএনপি

ঢাকা অফিস ॥ রংপুর-৩ আসনে উপ-নির্বাচনে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএনপি। সোমবার রাতে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপার্সনের কার্যালয়ে স্থায়ী কমিটির বৈঠকের পর দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এই কথা জানান। তিনি বলেন, আমরা রংপুর-৩ আসনে উপ-নির্বাচনে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এই নির্বাচনে প্রার্থী মনোনয়ন ঠিক করতে স্থায়ী কমিটিকে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান দায়িত্ব দিয়েছেন। মির্জা ফখরুল বলেন, নির্বাচন কমিশন সব নির্বাচনে ব্যবহার করার জন্য বেশ সক্রিয় হয়ে উঠেছে। তারা বিভিন্ন নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারের চেষ্টা করছে। ইভিএম পদ্ধতিতে নির্বাচন কোনো মতেই সমর্থন করি না। ইভিএমে কখনোই জনগণের রায়ের সঠিক প্রতিফলন ঘটবে না। জনমতকে ঘুরিয়ে দেয়ার যথেষ্ট সুযোগ রয়েছে। আমরা ইভিএম পদ্ধতি বাতিলের দাবি জানাচ্ছি। বৈঠকে লন্ডন থেকে স্কাইপেতে সভাপতিত্ব করেন তারেক রহমান। মহাসচিব ছাড়াও ড.খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, জমিরউদ্দিন সরকার, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, সেলিমা রহমান ও ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

ভার্চুয়াল ক্লাস রুমে ইটালি থেকে ইবি শিক্ষার্থীদের ক্লাস নিলেন শিক্ষক

আশিক বনি ॥ ইটালির মিলান বিশ^বিদ্যালয়ের ওয়েলার রিভোন্টার সাথে ভার্চুয়াল ক্লাস করেছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৪র্থ বর্ষের শিক্ষার্থীরা। গতকাল মঙ্গলবার বিকাল ৩টায় ইসলামী বিশ^বিদ্যারলয়ের ভার্চুয়াল ক্লাস রুমে এ ক্লাস অনুষ্ঠিত হয়। এসময় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. হারুন-উর-রশিদ আসকারী (ড. রাশিদ আসকারী) উপস্থিত থেকে শিক্ষার্থীদের সাথে ক্লাসটি উপভোগ করেন। কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রফেসর ড. আক্তারুজ্জামান এ ক্লাসের আয়োজন করেন। ড. ম্যাসিমো ‘ফিল্টার ডিজাইন অফ দা কোর্স অফ ডিজিটাল সিগনাল প্রোসেসিং’ বিষয়ে পাঠ দান করেন ও সংশ্লিষ্ট বিষয়ের উপর শিক্ষার্থীদের বিভন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। এসময় সাবেক প্রক্টর ও বর্তমান সিন্ডিকেট সদস্য প্রফেসর ড. মাহবুবর রহমান ও পরিবহন প্রশাসক প্রফেসর ড. রেজওয়ানুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, বিশে^র যে কোন স্থান হতে ইন্টারনেটের মাধ্যমে ভিডিওতে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের সরাসরি পাঠদান ব্যবস্থা হচ্ছে ভার্চুয়াল ক্লাস রুম।

কুষ্টিয়ায় জাতীয় শোক দিবসের প্রস্তুতিমূলক সভায় ডিসি আসলাম হোসেন

 ক্রোড়পত্রে জেলা পরিষদের বিশেষ পুরস্কার ঘোষনা

যথাযোগ্য মর্যাদায় ৪৪ তম জাতীয় শোক দিবস পালন করা হবে

আরিফ মেহমুদ ॥ কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক মোঃ আসলাম হোসেন বলেছেন, সেদিন জাতীর উদিয়মান সূর্য্য জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে একদল বিপদগামী সৈনিক স্বপরিবারে হত্যা করে বাংলার স্বপন্নকে শেষ করে দিতে চেয়েছিল। কিন্তু ওরা জানতো না সুর্য্যরে আলোকে কখনো নিভানো যায় না। জাতীর জনকের সোনার বাংলা গড়ার জন্য তাঁর সুযোগ্য কন্যা আজকের মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বপ্নদূত হয়ে বাংলার মাটিতে ফিরে আসবে। আজকে বাংলাদেশ বিশে^ উন্নয়নের মডেল দেশ হিসেবে অন্তভুক্ত হতে চলেছে। দেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ডাকে মা মাটি মানুষের মুক্তি ও আমাদের মহান স্বাধীনতার জন্য মুক্তিযুদ্ধে ঝাপিয়ে পড়েছিল বাংলার দামাল ছেলেরা। অসীম সাহসিকতা নিয়ে পাকহানাদারদের সাথে ৯ মাস সশস্ত্র রক্তক্ষয়ী সংগ্রামে করে স্বাধীনতা অর্জন করেছে দেশের সূর্য্য সন্তান মুক্তিযোদ্ধারা। সেই স্বাধীন দেশকে পরাধীন করতে স্বাধীনতা বিরোধী দেশের শক্রদের কুপরামর্শে একদল বিপদগামী কুলাঙ্গার সৈনিক জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যা করে। হত্যাকারী বিচার এই বাংলার মাটিতে সম্পন্ন হয়েছে। কিন্তু বাঙালীর হৃদয়ে আজো শোক গাঁথা হয়ে রয়েছে। সেই ১৫ আগষ্ট থেকে বাঙালী জাতীয় শোক দিবস হিসেবে যথাযোগ্য মর্যাদায় এই দিনটিকে পালন করে আসছেন। এবারো তার ব্যাত্যয় হবে না। যথাযোগ্য মর্যাদায় ৪৪ তম জাতীয় শোক দিবস পালন করা হবে । গতকাল মঙ্গলবার সকালে সার্কিট হাউজের সভাকক্ষে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমাননের ৪৪ তম শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবসের প্রস্তুতিমূলক সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সভায় ১৫ আগষ্ট জাতীয় শোক দিবস পালন উপলক্ষে শোক র‌্যালী, পুস্পমাল্য অর্পন, আলোচনা সভা ও স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচির সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়। আলোচনা সভায় এবার জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে নব নির্মিত জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমাননের ভাস্কর্য্যেই শোক দিবসের শ্রদ্ধা নিবেদন করা হবে বলে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। আগামী ১৩ আগষ্ট এই নব নির্মিত জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমাননের ভাস্কর্যটি আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন কুষ্টিয়া-৩ সদর আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ। সভায় কুষ্টিয়ার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি হাজী রবিউল ইসলাম ঘোষনা দেন। কুষ্টিয়া থেকে যে সকল দৈনিক পত্রিকা প্রকাশ হয় তাতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বিশেষ ক্রোড়পত্র প্রকাশ করতে হবে। প্রকাশিত ক্রোড়পত্রসহ পত্রিকা জেলা প্রশাসকের নিকট জমা দিতে হবে। বিচার বিশ্লেষন করে যে পত্রিকার প্রকাশিত ক্রোড়পত্র সব চেয়ে ভাল হবে তাকে নগদ ৫০ হাজার টাকা পুরস্কার দেয়া হবে। সভায় উপস্থিত সবাই  কুষ্টিয়ার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানের এই ঘোষনাকে সাধুবাদ জানান। সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কুষ্টিয়া জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ রওশানা বেগম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আজাদ জাহান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) ওবাইদুর রহমান, কুষ্টিয়ার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আলহাজ¦ রবিউল ইসলাম, কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আজগর আলী, কুষ্টিয়া সরকারী মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ সফিকুর রহমান খান, কুষ্টিয়া সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও কুষ্টিয়া জজকোর্টের জিপি এ্যাড. আ.স.ম. আখতারুজ্জামান মাসুম, বিশিষ্ট লেখক কলামিষ্ট ও কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শেখ গিয়াস উদ্দিন আহমেদ মিন্টু, কুষ্টিয়া শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি তাইজাল আলী খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান, কুষ্টিয়া সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জুবায়ের হোসেন চৌধুরী, কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা.নুরুন নাহার, কুষ্টিয়া প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি বিশিষ্ট সাংবাদিক ও সম্পাদক আবদুর রশীদ চৌধুরী, জেলা জাসদের সভাপতি হাজী গোলাম মহসীন, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার হাজী রফিকুল আলম টুকু, বীর মুক্তিযোদ্ধা মানিক ঘোষ, বড় বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মোকাররম হোসেন  মোয়াজ্জেম, জেলা শিল্পীকলা একাডেমির শাহীন সরকার, লালন একাডেমির আহবায়ক কমিটির সদস্য জাহিদ হোসেন, কবি ও আবৃতিকার আলম আরা জুঁই, জেলা কালচারাল অফিসার সুজন রহমান, সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী রফিকুল ইসলাম, গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী আরিফুজ্জামান, চেম্বার অব কমার্স’র প্রতিনিধি এস এম কাদেরী শাকিল, জেল সুপার জাকের হোসেন, জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জাহেদুর রহমান, ওজোপাডিকোর নির্বাহী প্রকৌশলী আরিফুর রহমান, জেলা খাদ্য কর্মকর্তা তানভির রহমান, পাসপোর্টের সহকারী পরিচালক বজলুর রহমান, পল্লীবিদ্যুতের জিএম হারুন-অর-রশিদ, জেলা তথ্য কর্মকর্তা তৌহিদুজ্জামান, বিআরটিএ’র সহকারী পরিচালক এটিএম জালাল উদ্দিন, অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক রোখসনা পারভীন, জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা হাসিনা বেগম, বাজার মনিটরিং কর্মকর্তা রবিউল ইসলাম প্রমুখ।