সুষমার মৃত্যুতে বলিউড তারকাদের শোক

বিনোদন বাজার ॥ ভারতের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের মৃত্যুতে বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন রাষ্ট্র থেকে গভীর শোক প্রকাশ করা হয়েছে। শোকের ছায়া নেমেছে বি-টাউনেও। ৬৭ বছর বয়সী এই সাবেক মন্ত্রীর হঠাৎ মৃত্যুর খবর প্রকাশের পরপরই বলিউড তারকারা সামাজিক মাধ্যমে শোক ও শ্রদ্ধা প্রকাশ করেছেন। অনেকে ব্যথিত চিত্তে তার স্মৃতিচারণও করেছেন।শাবানা আজমি, লতা মঙ্গেশকর, অনুপম খের, পরিণীতি চোপড়া, জাভেদ আখতার, অনিল কাপুর, স্বারা ভাস্কর, সানি দেওল, রিতেশ দেশমুখ, একতা কাপুর, মধুর ভান্ডারকর, আয়ুষ্মান খুরানা এবং আরো অনেকেই রয়েছেন এই তালিকায়। করে লিখেছেন, ‘সুষমা স্বরাজজীর হঠাৎ চলে যাওয়ায় আমি প্রচন্ড শোকাহত। তিনি ছিলেন স্বাভাবিকভাবেই মাধুর্যপূর্ণ ও সৎ নেত্রী। একজন সংবেদনশীল ও নিঃস্বার্থ ব্যক্তি ছিলেন তিনি। আমার এই প্রিয় বন্ধু সঙ্গীতকে গভীর থেকে অনুভব করতেন। আমাদের সাবেক বিদেশমন্ত্রীকে আগামীতেও শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করা হবে।’

বর্ষীয়ান অভিনেতা অনুপম খের টুইটারে লাইভে এসে সুষমা স্বরাজের স্মৃতিচারণ করেছেন।

অভিনেতা বোমান ইরানি সুষমার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে টুইটারে লেখেন, ‘তিনি ছিলেন প্রকৃতির এক শক্তি। খুব তাড়াতাড়ি চলে গেলেন। অসময়ে সংবাদটি পেয়ে আমি অত্যন্ত মর্মাহত। জাতির জন্য এ এক অপূরণীয় ক্ষতি।’

পরিণীতি চোপড়া তার অনুভূতির কথা লিখেছেন, ‘সুষমাজীর মতো আমিও আম্বালা ক্যান্টনমেন্ট থেকে এসেছি। সবসময় গর্ব অনুভব করি, আমাদের ছোট শহর থেকে উঠে আসা একজন নারী এত বড় হয়েছেন, দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। আপনি শান্তিতে বিশ্রাম নিন। ব্যক্তিগতভাবেই আপনি আমাকে অনুপ্রাণিত করেছেন।’

শাবানা আজমি লিখেছেন, ‘সুষমা স্বরাজের মৃত্যুতে আমি গভীরভাবে শোকাহত। রাজনৈতিক মতের ভিন্নতা থাকলেও আমাদের সম্পর্ক অত্যন্ত আন্তরিক ছিল। আমি তার নবরতেœর মধ্যে একজন ছিলাম। তিনি সিনেমাকে শিল্পের মর্যাদা দিয়েছিলেন। তার বক্তব্য ছিল সহজবোধ্য, অত্যন্ত তীক্ষ্ণ ও স্পষ্ট।’

সম্প্রতি ভারতের সংবিধানে ৩৭০ ধারা তুলে নেওয়ায় নরেন্দ্র মোদীকে ধন্যবাদ দিয়ে টুইটারে বার্তা দিয়েছিলেন সুষমা স্বরাজ। জীবনের সর্বশেষ টুইটবার্তায় সুষমা স্বরাজ লিখেছেন, ‘আপনাকে ধন্যবাদ প্রধানমন্ত্রী। আপনাকে অনেক অনেক ধন্যবাদ। আমি আমার সারাটা জীবন ধরে এই দিনটি দেখার জন্য অপেক্ষা করছিলাম।’

মঙ্গলবার (০৬ আগস্ট) সন্ধ্যা ৭টা বেজে ৫৩ মিনিটে সুষমা স্বরাজ এই টুইট পোস্ট করেন। এর কিছুক্ষণ পরে বুকে ব্যথা অনুভব করায় রাত সোয়া ১০টার দিকে তাকে দিল্লির অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিক্যাল সায়েন্স (এআইআইএমএস) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হৃদরোগে আক্রান্ত এই বিজেপি নেত্রীকে দ্রুত ইমার্জেন্সিতে নিয়ে যাওয়া হয়। এর কিছুক্ষণের মধ্যেই তার মৃত্যু হয়।

আরো খবর...