মেহেরপুরে উত্যক্তকারীর নামে মামলা করায় মেয়ের বাবাকে হামলা

মেহেরপুর প্রতিনিধি  ॥ মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার রামনগর গ্রামে মেয়েকে উত্যক্ত করার প্রতিবাদ ও উত্যক্তকারীর নামে মামলা করায় আব্দুল মান্নান নামের এক বাবা হামলার শিকার হয়েছেন। আব্দুল মান্নান রামনগর গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে। হামলার শিকার আব্দুল মান্নানকে প্রতিবেশীরা উদ্ধার করে গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে নেয়। তার শারীরিক অবস্থার অবনতি দেখে সেখান থেকে রাতেই কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্র্তি করা হয়। গত শুক্রবার দিবাগত রাতে রামনগর বাজারে হামলার ঘটনা ঘটে। আহত আব্দুল মান্নান জানান আমার মেয়ের স্বামী (জামাতা) কর্মের সুবাদে বেশ কয়েক বছর যাবত প্রবাসে রয়েছে। সে সুযোগে আমার মেয়েকে গ্রামের ফরমান আলীর ছেলে পল্লী চিকিৎসক সেলিম রেজা মাঝে-মাঝে কুপ্রস্তাব ও উত্যক্ত করে। গত ১ আগষ্ট রাতে সেলিম রেজা অনৈতিক কাজের উদ্দেশ্যে আমার মেয়ের ঘরে প্রবেশ করে। এবং তার মুখ চেপে ধরে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এ সময় আমার মেয়ে চিৎকার করলে  প্রতিবেশীরা টের পেয়ে সেলিমকে ঘরের মধ্যে আটকিয়ে রাখে। পরে সেলিমের লোকজন জোরপূর্বক তাকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এসময় আমাকে নানাভাবে হুমকি ধামকি দিতে থাকে।  মেয়ে ধর্ষণের চেষ্টার বিচার পেতে গত ৬ আগষ্ট মেহেরপুর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে সেলিম রেজার নামে একটি মামলা করি। মামলা দায়ের করায় ক্ষিপ্ত হয়ে সেলিম তার  লোকজন নিয়ে শুক্রবার রাতে আমার ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে আহত করে। গাংনী থানার ওসি ওবাইদুর রহমান জানান আব্দুল মান্নানকে কুপিয়ে আহত করার ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতারের জন্য স্থানীয় পুলিশ ক্যাম্পসহ তদন্ত কর্মকর্তাকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

আরো খবর...