ভোট থেকে বিএনপিকে সরাতে দেউলিয়া আ.লীগের হামলা – ফখরুল

ঢাকা অফিস \ রাজনীতিতে দেউলিয়া হয়ে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ঢাকা সিটির নির্বাচনের মাঠ থেকে বিএনপিকে সরাতে দলীয় প্রার্থীদের উপর পরিকল্পিতভাবে হামলা চালাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। খালেদা জিয়ার ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকোর ৫ম মৃত্যুবার্ষিকীতে গতকাল শুক্রবার সকালে বনানী কবরস্থানে গিয়ে জিয়ারত শেষে সাংবাদিকদের কাছে একথা বলেন তিনি। মির্জা ফখরুল বলেন, ঢাকার উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে বিএনপির দুই মেয়র প্রার্থীর পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। নির্বাচন থেকে সরে যেতে তাদের উপর চাপ সৃষ্টি করা হচ্ছে। “শারীরিক আক্রমণ পর্যন্ত করা হয়েছে তাবিথ আউয়ালের ওপরে, ইশরাকের মিছিলে আক্রমণ করা হয়েছে।”

ধানের শীষের প্রার্থীদের ভোট থেকে সরাতে ক্ষমতাসীন দল নানা অপচেষ্টায় লিপ্ত অভিযোগ করে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ এতোই দেউলিয়া হয়ে গেছে, যে বিএনপি প্রার্থীদের নির্বাচন থেকে সরাতে তাদেরকে এখন মামলা-মোকাদ্দমার আশ্রয় নেওয়ার চেষ্টা করতে হচ্ছে। “আপনারা রাজনৈতিকভাবে শূন্য হয়ে গেছেন, দেউলিয়া হয়ে গেছেন। যে কারণে একটার পর একটা বিভিন্ন রকমের সমস্যা তৈরি করে তাদের বিজয়কে আপনারা বন্ধ করতে চাচ্ছেন বা প্রতিরোধ করতে চাচ্ছেন।” ফখরুল বলেন, কোকো ‘রাজনৈতিক প্রতিহিংসার’ শিকার হয়ে গ্রেপ্তার হন। পরে তার বিরুদ্ধে মামলা দেওয়া হয় এবং তিনি চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে যান। সেখানে অত্যন্ত মানসিক যন্ত্রণার মধ্যে তিনি ‘ইন্তেকাল’ করেন। দলের মেয়র প্রার্থী তাবিথ আউয়াল ও ইশরাক হোসেন, নেতৃবৃন্দের মধ্যে সেলিমা রহমান, মোহাম্মদ শাহজাহান, জয়নুল আবদিন ফারুক, আবুল খায়ের ভুঁইয়া, শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, খায়রুল কবির খোকন, হাবিব উন নবী খান সোহেল, শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, আমিনুল হক, জিএম সিরাজ, নাজিমউদ্দিন আলম, শামীমুর রহমান শামীম, রফিক শিকদার, সাইফুল ইসলাম নিরব, সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, শফিউল বারী বাবু, আবদুল কাদের ভুঁইয়া জুয়েল, সুলতানা আহমেদ ও এসএম জাহাঙ্গীর সেখানে ছিলেন। এছাড়া ২০ দলীয় জোট নেতাদের মধ্যে লেবার পার্টির মো¯Íাফিজুর রহমান ইরান, ন্যাশনাল পিপলন পার্টির ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, মো¯Íাফিজুর রহমান মো¯Íফা উপস্থিত ছিলেন।

আরো খবর...