বেঁচে গেলেন গেইল

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ শঙ্কা ছিল শাস্তি পাওয়ার। তবে নিজের ব্যাখ্যায় সিপিএলের টুর্নামেন্ট কমিটিকে সন্তুষ্ট করতে পেরেছেন ক্রিস গেইল। জ্যামাইকা তালাওয়াস ফ্র্যাঞ্চাইজি ও রামনরেশ সারওয়ানকে নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্যের জন্য শাস্তি পেতে হচ্ছে না ক্যারিবিয়ান বাঁহাতি ওপেনারের। গত মাসের শেষ দিকে ইউটিউব ভিডিওতে জ্যামাইকা দল ও সারওয়ানকে আগ্রাসী ভাষায় আক্রমণ করেন গেইল। তিন বছরের চুক্তি থাকলেও এক বছর পরই জ্যামাইকা ছেড়ে দেয় গেইলকে। তিনি নাম লেখান সেন্ট লুসিয়া জুকসে। টি-টোয়েন্টির সফলতম ব্যাটসম্যান এরপর পেছন থেকে কলকাঠি নাড়ার অভিযোগে তার সাবেক সতীর্থ ও জ্যামাইকার সহকারী কোচ সারওয়ানকে বলেছিলেন ‘সাপ এবং করোনাভাইরাসের চেয়েও খারাপ।’ জ্যামাইকা দলের মালিকদেরও কাঠগড়ায় তুলেছিলেন তিনি। গেইলের অভিযোগ উড়িয়ে দেন সারওয়ান। পরে ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ প্রেসিডেন্ট রিকি স্কেরিট আভাস দেন, বিস্ফোরক মন্তব্যের জন্য শাস্তি পেতে পারেন গেইল। কিন্তু পরে বিবৃতির মাধ্যমে কর্তৃপক্ষের কাছে নিজের অবস্থান পরিষ্কার করতে পারায় বেঁচে গেলেন গেইল। “কেবল একটি উদ্দেশ্যে আমি এই ভিডিওগুলো তৈরি করেছি তা হলো, দ্বিতীয়বারের মত তালাওয়াস ফ্র্যাঞ্চাইজি থেকে চলে যাওয়ার পেছনের কারণ জ্যামাইকার ভক্তদের কাছে ব্যাখ্যা করা। আমার আশা ছিল, জ্যামাইকার হয়ে সিপিএল ক্যারিয়ার শেষ করার। স্যাবিনা পার্কে এই ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে ঘরের দর্শকদের সামনে খেলা, আগে যাদেরকে দুটি সিপিএল শিরোপা জিতিয়ে ছিলাম।” “এখন পর্যন্ত তাদের আচরণ নিয়ে যে অসন্তোষ প্রকাশ করেছি, ভিডিওতে করা আমার মন্তব্যগুলোর সঙ্গে আমি একমত। মন থেকে কথাগুলো বলেছি। আমি বুঝতে পারছি মন্তব্যের কিছু অংশ কীভাবে ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও সিপিএল টুর্নামেন্টের ক্ষতিগ্রস্ত করেছে বলে দেখা যেতে পারে। এই টুর্নামেন্টটি আমি মন থেকে উপভোগ করেছি, কেবল অংশগ্রহণ করে নয় এটার প্রচার ও গড়ে তোলায় সাহায্য করে।”

আরো খবর...