বিধি ভেঙে আইসোলেশনে হাফিজ

ঢাকা অফিস ॥ ইসিবির ‘বায়ো-সিকিউর’ বিধি ভাঙায় সেলফ-আইসোলেশনে থাকতে হচ্ছে মোহাম্মদ হাফিজকে। আজিয়াস বৌলের গলফ কোর্সে নব্বই ঊর্ধ্ব একজন বৃদ্ধার সঙ্গে ছবি তুলে বুধবার সকালে সেটি নিজের টুইটারে পোস্ট করেন পাকিস্তানি এই অলরাউন্ডার। পরে এক বিবৃতি দিয়ে হাফিজের আইসোলেশনে থাকার বিষয়টি নিশ্চিত করে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এরইমধ্যে করোনাভাইরাস পরীক্ষা করা হয়েছে এই অলরাউন্ডারের। ফলাফল নেগেটিভ আসা পর্যন্ত হোটেল আইসোলেশনে থাকতে হবে তাকে। গলফ কোর্সটি ক্রিকেটারদের ব্যবহার করার অনুমতি থাকলেও তাদেরকে ‘জীবাণুমুক্ত’ পরিবেশের বাইরের কারো সঙ্গে কথাবার্তা বলা এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। কারণ কোর্সটি জনসাধারণের জন্য এখনও উন্মুক্ত। পাকিস্তানের টেস্ট দলে অবশ্য নেই হাফিজ। আগামী ২৮ অগাস্ট শুরু হতে যাওয়া তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের দলে আছেন এই অলরাউন্ডার। ইংল্যান্ডে আসার আগে পিসিবির করানো পরীক্ষায় কোভিড-১৯ পজিটিভ এসেছিলেন হাফিজ। এরপর ব্যক্তিগতভাবে পরীক্ষা করলে বোর্ড তাকে তিরস্কার করে। পরে দুইবার নেগেটিভ আসায় পান সফরের অনুমতি। এদিকে, এক সমর্থকের সঙ্গে ছবি তোলায় মঙ্গলবার ইংলিশ কাউন্টি ক্লাব কেন্ট তাদের ব্যাটসম্যান জর্ডান কক্সকে বব উইলস ট্রফির পরবর্তী ম্যাচের দল থেকে বাদ দেয়। সাত দিনের আইসোলেশনে রাখা হয়েছে তাকে। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজে বায়ো-সিকিউর বিধি ভেঙে দ্বিতীয় টেস্টের দল থেকে বাদ পড়েছিলেন জফ্রা আর্চার। পরে জরিমানা দিয়ে ও লিখিত সতর্কতা পেয়ে দলে ফেরেন ইংলিশ এই পেসার।

আরো খবর...