বাতিল নয়, সমাপ্ত ঘোষণা হতে পারে প্রিমিয়ার লিগ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥  বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দিতে পারেনি প্রফেশনাল লিগ কমিটি। সবশেষ সভায় স্থগিত প্রিমিয়ার লিগ আর শুরু না করার পক্ষে মতামত আসলেও লিগ কমিটি সিদ্ধান্ত নেয়ার ভার দিয়েছে বাফুফের নির্বাহী কমিটিকে। আগামী রোববার এ বিষয়ে জরুরী সভায় বসে লিগের ভাগ্য নির্ধারণ করবে বাফুফে। ক্লাবগুলো দাবি করছে লিগ বাতিল করতে। প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলোর সংগঠন বাংলাদেশ ফুটবল ক্লাব সমিতিও লিগ বাতিল চেয়ে চিঠি দিচ্ছে বাফুফেকে। কিছু ক্লাব আলাদা আলাদাও চিঠি দিয়েছে। কেউ চেয়েছে বাতিল, কেউ চেয়েছে সমাপ্ত। লিগ বাতিল করলে কোন দলকে চ্যাম্পিয়ন বলার সুযোগ নেই। তা হলে আগামী মৌসুমে বাংলাদেশের ক্লাব এএফসি কাপে খেলার সুযোগ হারাবে। সেই সুযোগ রাখতে হলে লিগ বাতিল নয়, সমাপ্ত ঘোষণা করে টাইটেল নির্ধারণ করতে হবে। যেমনটি করা হয়েছে ভারতের আই লিগে। করোনা ভাইরাসের কারণে আই লিগ স্থগিত হয়েছিল ১৬ রাউন্ড শেষে। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ স্থগিত হয়েছে ৬ রাউন্ড শেষে। আই লিগ সমাপ্ত ঘোষণা করে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে থাকা মোহনবাগানকে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হয়েছে। দলটি ২০২১ সালের এএফসি কাপের গ্রুপপর্বে খেলবে। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের ক্ষেত্রেও কি সেরকম হচ্ছে? বাফুফের এক কর্মকর্তা আভাস দিলেন, সে সম্ভাবনা উড়িয়ে দেয়া যাচ্ছে না। আই লিগ ৮৫ ভাগ খেলা শেষে চ্যাম্পিয়ন নির্ধারণ করেছে। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের হয়েছে ২৪ ভাগ খেলা। এএফসি যদি বলে চ্যাম্পিয়নশিপ নির্ধারণ না করলে বাংলাদেশ থেকে ২০২১ সালের এএফসি কাপে খেলার সুযোগ থাকছে না তখন বাফুফেকে চ্যাম্পিয়ন দল নির্ধারণ করতেই হবে। রোববারের আগেই এএফসি থেকে এই গাইডলাইন চলে আসবে বলে আশা করছে বাফুফে। যদি লিগ এখানে সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়, তাহলে কপাল খুলে যাবে আবাহনীর। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে (১৩) আছে সাবেক চ্যাম্পিয়নরা। ১৩ পয়েন্ট নিয়ে আবাহনীর সঙ্গে যৌথভাবে শীর্ষে আছে চট্টগ্রাম আবাহনীও। বাইলজ অনুযায়ী চ্যাম্পিয়ন ও রেলিগেশনের ক্ষেত্রে পয়েন্ট সমান হলে প্লে-অফ হওয়ার কথা। তবে মহামারীর কারণে বাফুফে যদি লিগ সমাপ্ত করে, তাহলে প্লে-অফ না খেলিয়েই কোন দলকে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করতে পারে। সেক্ষেত্রে এবার কোনো দলের অবনমনও থাকবে না।

 

আরো খবর...