বছরে ১০০ কোটি ডোজ টিকা উতপাদন করবে চীন

ঢাকা অফিস ॥ করোনাভাইরাসের সম্ভাব্য টিকার ১০০ কোটি ডোজ প্রতি বছর উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে চীন। শুক্রবার দেশটির এক স্বাস্থ্য কর্মকর্তা জানিয়েছে, সরকারের দ্রুত পদক্ষেপের ফলে আগামী বছর ১০০ কোটি ডোজ উৎপাদনের সক্ষমতা অর্জিত হবে। এই লক্ষ্যে নতুন নতুন কারখানা স্থাপন করা হয়েছে। মার্কিন বার্তা সংস্থা এসোসিয়েটেড প্রেস (এপি) এখবর জানিয়েছে। চীনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশনের ঝেং জংওয়েই জানান, এই বছরের শেষ দিকে ৬১০ মিলিয়ন ডোজ উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করা সম্ভব হবে। আগামী বছর আমাদের সক্ষমতা ১০০ কোটি ডোজ ছাড়িয়ে যাবে। যুক্তরাষ্ট্রের ফার্মা জায়ান্ট ফাইজার ও মডার্নার পক্ষ থেকেও ২০২১ সালে ১০০ কোটি ডোজ উৎপাদনের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। ঝেং জানান, জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত হওয়ার আগে অগ্রাধিকার শ্রেণিকে যেমন, চিকিৎসাকর্মী, সীমান্তরক্ষী ও বয়স্কদের টিকা প্রদান করা হবে। টিকার পরীক্ষার জন্য অবকাঠামো ও কারখানা নির্মাণ করেছে চীন। একই সঙ্গে টিকা গবেষণায় নজর রাখার জন্য একটি স্বতন্ত্র কমিটি গঠন করা হয়েছে। দেশটির উদ্ভাবিত ১১টি ভ্যাকসিন ক্যান্ডিডেট হিউম্যান ট্রায়ালে রয়েছে। এগুলোর মধ্যে চারটি তৃতীয় ও চূড়ান্ত পর্বের হিউম্যান ট্রায়াল চালাচ্ছে। পরীক্ষায় এগিয়ে থাকা টিকাগুলোর একটি হলো বেসরকারি চীনা কোম্পানি সিনোভ্যাক উদ্ভাবিত করোনাভ্যাক। কোম্পানিটি বেইজিংয়ের বাইরে কারখানা গড়ে তুলছে। বৃহস্পতিবার কোম্পানির চেয়ারম্যান ইয়েইন ওয়েডং জানিয়েছেন, মাত্র কয়েক মাসে একটি কারখানা গড়ে তোলা হয়েছে। প্রয়োজন হলে আরও নির্মাণ করা হবে।

আরো খবর...