প্রায় ৩ বছর পর কোমা থেকে ফিরলেন ডাচ ফুটবলার

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ লম্বা সময়ের ‘ঘুম’ থেকে জেগে উঠলেন আব্দেলহক নুরি। আয়াক্সের তরুণ ফুটবলার কোমা থেকে ফিরলেন ২ বছর নয় মাস পর। ২০১৭ সালের জুলাইয়ে ওয়ার্ডার ব্রেমেনের বিপক্ষে মৌসুম-পূর্ব প্রস্তুতি ম্যাচে খেলার সময় কার্ডিয়াক অ্যারেস্টের শিকার হন নুরি। লুটিয়ে পড়েন মাঠেই। চিকিৎসকরা সতর্ক করে দিয়ে জানান, মস্তিষ্কের স্থায়ী ক্ষতি হওয়ায় তরুণ ডাচ খেলোয়াড় কখনও পুরোপুরি সেরে উঠবেন না। মাঠ থেকে সরাসরি হাসপাতালে নেওয়া হয়েছিল নুরিকে। মস্তিষ্কের ক্ষতির জন্য হয়ে পড়েন বোধশক্তিহীন। অবস্থার উন্নতি হয়েছে। এখন চোখের ভ্রু দিয়ে ক্ষাণিকটা সাড়া দিতে পারছেন। সেই ঘটনার পর পরিবারের সদস্যদেরই চিনতে পারছিলেন না নুরি। বছর খানেক পর আয়াক্স স্বীকার করে এই ফুটবলারের জন্য তাদের ভূমিকা যথাযথ ছিল না। এক বিবৃতিতে ক্লাবটি জানায়, নুরিকে বিমানে নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করতে অনেক বেশি সময় নেয় আয়াক্সের চিকিৎসক দল। একই সঙ্গে ডিফিব্রিলেটরও আরও দ্রুত ব্যবহার করা উচিত ছিল। নুরি এখন ফুটবলও দেখতে পারছেন বলে জানান তার বাবা। আয়াক্সের সাবেক সতীর্থ ফ্রেংকি ডি ইয়ং জানান, তার দলবদল করে বার্সেলোনায় আসায়ও ভূমিকা ছিল আপি নামে পরিচিত নুরির। “আমি যখন তার সঙ্গে বসি, তার মা আসে। তিনি আপিকে জিজ্ঞেস করেন, ‘আপি ফ্রেংকির কোথায় যাওয়া উচিত? বার্সেলোনায়? কথাটা বলা মাত্র তার চোখের ভ্রু উঠে। এটা ছিল বিশেষ একটা মুহুর্ত।”

আরো খবর...