দৌলতপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধে শিক্ষকের বাড়ি ভাংচুর ও লুট

দৌলতপুর প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরের মহিষকুন্ডি মধ্যপাড়া গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে শিক্ষকের বাড়ি ভাংচুর ও লুট করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। গতকাল রবিবার সকাল ৯টার দিকে মহিষকুন্ডি হাইস্কুলের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক মমতাজ উদ্দিন মাষ্টারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও লুট করা হয়। এনিয়ে ওই শিক্ষকের বাড়িতে দু’দফা হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটানো হয়েছে। হামলার শিকার শিক্ষক ও স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র জানায়, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে একই এলাকার আলম, উজ্বল, নেপু, লিটন, শিশির, হৃদয়, সাগর, লেলিন ও বাবুল সশস্ত্র সংগবদ্ধ হয়ে শিক্ষক মমতাজ উদ্দিনের বাড়িতে হামলা চালিয়ে তার দুই ছেলেকে বেধড়ক মারপিট করে এবং বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও লুটপাটের তান্ডবলীলা চালায়। পরে এলাকাবাসী ও মথুরাপুর ক্যাম্পের পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে হামলাকারীরা ঘটনাস্থল থেকে নির্বিঘেœ চলে যায়। এরআগে গত ২৪ আগষ্ট একই কায়দায় ওই সকল হামলাকারীরা হামলা চালিয়ে বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও লুট করে। সেসময় প্রাগপুর ইউপি চেয়ারম্যান আশরাফুজ্জামান মুকুল মাষ্টার বিরোধ নিস্পত্তির জন্য দু’পক্ষকে আশ্বাস দিলে সে আশ্বাস অমান্য করে হামলাকারীরা আবারও গতকাল শিক্ষক মমতাজ উদ্দিন মাষ্টারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও লুট করে। এ ঘটনায় শিক্ষক মমতাজ উদ্দিন মাষ্টার অভিযোগ দিয়েছেন।

আরো খবর...