ছাত্র জীবনে লেখাপড়া করে নিজেদের মানুষের মত মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে

দৌলতপুর কলেজে নবীন বরণ অনুষ্ঠানে এমপি সরওয়ার জাহান বাদশা

শরীফুল ইসলাম ॥ কুষ্টিয়া-১ দৌলতপুর আসনের সংসদ সদস্য আ. কা. ম. সরওয়ার জাহান বাদশা ছাত্র জীবনের সোনালী দিনগুলির কথা স্মরণ করে উপস্থিত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ছাত্র জীবনে লেখাপড়া করে নিজেদের মানুষের মত মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে এবং বাবা মা’য়ের প্রতি কর্তব্য পালন করতে হবে। তিনি বলেন, তীর ছুড়ে দিলে যেমন ফেরানো যায় না, তেমনিভাবে সময় ও ঘড়ির কাটা চলতে থাকবে তাদের নিজস্ব গতিতে। তাই জীবনকে সঠিকভাবে গড়ে তুলতে হলে ছাত্র জীবনে লেখা-পড়া বাদে অন্য কাজে সম্পৃক্ত হলে নিজেকে মানুষ হিসেবে গড়ে তোলা যাবে না। সময়ের পরিবর্তন হয়েছে। যান্ত্রিক পৃথিবীতে লড়াই করে নিজেকে গড়ে তুলতে হলে পড়া লেখার পাশাপাশি খেলা-ধুলা ও বাইরের কারিকুলাম বিষয়ে জানতে ও শিখতে হবে। এমপি বাদশা বলেন, সত্যিকারের লড়াই করে হেরে গেলেও সে হারের মধ্যে আনন্দও যেমন আছে ভিতরে শক্তিও সঞ্চয় হবে। আকাশ সংস্কৃতি ও ইন্টারনেট ভাল কাজের যেমন দুয়ার খুলেছে তেমনি মন্দের দুয়ারও উন্মুক্ত হয়েছে। মন্দের দিকটা পরিহার করে ভালটা গ্রহণ করতে হবে। মাদক থেকে যেমন দুরে থাকতে হবে এবং পরিহার ও প্রতিরোধ করতে হবে। তিনি অভিভাবকদের উদ্দেশ্যে বলেন, নিজের সন্তানের দিকে খেয়াল রাখতে হবে। সন্ধ্যা হলে যেমন হাস-মুরগির খোঁজ-খবর নেন, তেমনি আপনার সন্তান ঘরে ফিরলো কি না তার খোঁজখবর রাখতে হবে। তিনি বলেন, ধর্মের দোহাই দিয়ে একটি গোষ্ঠী জঙ্গী ও সন্ত্রাস সৃষ্টির জন্য যুবকদের হাতে অস্ত্র তুলে দিয়ে বাংলাদেশকে অস্থিতিশীল করতে চাইছে সেটা আর সম্ভব হবে না। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা সততায় বিশে^র ৩জনের একজন। তাই তাকে মাদার ওব হিউম্যানিটি বা মাতৃত্বে জননী খেতাবে ভূষিত করা হয়েছে। বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তাই প্রত্যেককে নিজ নিজ অবস্থান থেকে সততার সাথে দায়িত্ব পালন করতে হবে। দুর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে আজকে শিক্ষার্থী যুবকদের কাজে লাগিয়ে যুবশক্তিতে পরণত করতে হবে। গতকাল বুধবার দুপুরে দৌলতপুর কলেজে নবীন বরণ, কৃতি শিক্ষার্থীদের সম্মাননা প্রদান ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমপি সরওয়ার জাহান বাদশা এসব কথা বলেছেন। শেষে তিনি দৌলতপুর কলেজের হোস্টেল নির্মানের ঘোষনা দেন। একইসাথে অনার্স-মাষ্টার্স শিক্ষকদের এমপিও’র বিষয়ে যা যা করণীয় দৃঢ়তার সাথে তা করার কথা বলেন। দৌলতপুর কলেজের অধ্যক্ষ মো. ছাদিকুজ্জামান খানের সভাপতিত্বে নবীন বরণ, কৃতি শিক্ষার্থীদের সম্মাননা প্রদান ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন দৌলতপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. এজাজ আহমেদ মামুন, দৌলতপুর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সরদার মো. তৌহিদুল ইসলাম। বক্তব্য রাখেন, পিএম কলেজের অধ্যক্ষ মো. আব্দুল মান্নান, দৌলতপুর গার্লস কলেজের অধ্যক্ষ মো. রেজাউল করিম, দৌলতপুর আওয়ামীলীগের তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক টিপু নেওয়াজ, জেলা পরিষদের সদস্য মায়বী রোমান্স মল্লিক, দৌলতপুর কলেজের বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সরকার আমিরুল ইসলাম, অভিভাবক গোলাম মোস্তফা ও দৌলতপুর কলেজ ছাত্রলীগ নেতা সাদ্দাম হোসেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন, দৌলতপুর কলেজের অধ্যক্ষ মো. ছাদিকুজ্জামান খান। সভাপতির বক্তব্যে দৌলতপুর কলেজের অধ্যক্ষ মো. ছাদিকুজ্জামান খান বলেন, দেশের ৭টি মডেল কলেজের মধ্যে দৌলতপুর কলেজ একটি। কলেজ এডুকেশন ডেভলপমেন্ট প্রজেক্টের আওতায় দেশের গুটি কয়েক কলেজের মধ্যে দৌলতপুর কলেজ শিক্ষার মান উন্নয়নে ৪কোটি টাকা বরাদ্দ পেয়েছে। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি সংসদ সদস্য সরওয়ার জাহান বাদশা কলেজের উন্নয়নের জন্য ১০ লক্ষ টাকা দিয়েছেন। আর এসবের সবই সম্ভব হয়েছে কলেজের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের সহযোগিতায়। তিনি শিক্ষার্থীদের মনদিয়ে পড়া-লেখা করে ভাল রেজাল্ট করার আহ্বান জানান। আলোচনা শেষে কৃতি শিক্ষার্থীদের হাতে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথিসহ অন্যান্য অতিথিবৃন্দ। সবশেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে দেশের খ্যাতিমান সংগীত শিল্পিসহ দৌলতপুর কলেজের শিক্ষার্থীরা সংগীত ও গম্ভীরা পরিবেশন করেন।

আরো খবর...