খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত ও কৃষিজ উতপাদন অব্যাহত রাখতে কাজ করছে সেনাবাহিনী

মহামারী করোনা এবং ঘুর্ণিঝড় আম্পান মোকাবেলায় দেশের মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত ও কৃষিজ উৎপাদন অব্যাহত রাখতে প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ৫৫ পদাতিক ডিভিশন। এরই ধারাবাহিকতায় করোনা পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় কৃষিজ উৎপাদন স্বাভাবিক রাখতে সেনাসদস্যরা  বৃহত্তর যশোর অঞ্চলের বিভিন্ন প্রান্তে ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের ঘরে ঘরে গিয়ে তাদের হাতে তুলে দিচ্ছেন নানা জাতের উন্নতমানের সবজির বীজ। করোনায় পুরো দেশ থমকে দাঁড়ালেও কৃষিকাজ যেন থমকে না দাঁড়ায়,  সে জন্য ফসলের মাঠের আসল নায়ক কৃষকের দুয়ারে দুয়ারে গিয়ে মনোবল সুদৃঢ় করে তাদের জন্য নিজেদের খরচে প্রয়োজনীয় উপকরণও সরবরাহ করছেন সেনাসদস্যরা। কখনও কখনও হত দরিদ্রদের হাতে তুলে দেয়া হচ্ছে নগদ আর্থিক সুবিধা। এছাড়াও গণপরিবহন মনিটারিং, স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত নীতিমালা বাস্তবায়নের প্রচেষ্টা, খাদ্য সংকট  মোকাবেলায় পদক্ষেপ গ্রহণ, মাস্ক ব্যবহারে সাধারণ মানুষকে উৎসাহিত করাসহ সকল প্রকার জনসচেতনতামূলক কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে যশোর সেনানিবাসের সেনাসদস্যরা। অন্যদিকে ঘূর্ণিঝড় আম্পান পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলার অংশ হিসেবে ঝড়ের তান্ডবে বিধ্বস্ত ঘরবাড়ি মেরামত, শুকনা খবার বিতরণ, বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ, খাবার স্যালাইন ও নগদ আর্থিক সহায়তা প্রদানের পাশাপাশি নিয়মিতভাবে চিকিৎসা সহায়তা প্রদান কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে যশোর  সেনানিবাসের সেনাসদস্যরা। বিশেষ করে আম্পানের তান্ডবে উপকূলবর্তী সাতক্ষীরার শ্যামনগর ও খুলনার কয়রায় ক্ষতিগ্রস্থ বেড়িবাঁধ যশোর সেনানিবাসের তত্ত্বাবধানে দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

আরো খবর...