কুষ্টিয়ায় মটরসাইকেল চুরির মামলায় পাঁচ আসামীর দুই বছরের কারাদন্ড

নিজস্ব প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়া পৌরসভার ১৫ নং ওয়ার্ডের চাঞ্চল্যকর মটরসাইকেল চুরির মামলার রায় গতকাল সিনিয়র জুডিসিয়াল আদালত ভবন ৩ এ প্রকাশ পেয়েছে। ঘটনার বিবরনে জানা যায়, ২০১১ সালের জুগিয়া গ্রামের প্রাক্তন মেম্বর সরোয়ার হোসেনের ছেলে বাবুল আক্তারের ব্যবহৃত পালসার ১৩৫ সিসি মটরসাইকেল নিজ বাড়ি হতে চুরি করে একই এলাকার রেজাউল কবীরের ছেলে আসাদুল (২৮), আজীমের ছেলে মিজানুর রহমান মিজান (৩০) আলাউদ্দীন চাষীর ছেলে আলীম (২৮), আজীজের ছেলে রোকন ও নফিলউদ্দিন লাটুর ছেলে ফারুক (৩০) প্রমূখ। সূত্রমতে, ২০১১ সালের ৬ সেপ্টেম্বর তারিখে দিবাগত রাত্রে নিজ বাড়ি হতে বাবুলের পালসার মোটরসাইকেলটি চুরি হয়। পরবর্তীতে,ভুক্তভোগী বাবুল আক্তার নিজ বাদী হয়ে উক্ত আসামীদের বিপক্ষে ০৮/০৯/২০১১ ইং তারিখে কুষ্টিয়া মডেল থানায় একটি এজাহার দায়ের করেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে, মটরসাইকেল চুরির বিষযটি আমলে নিয়ে তদন্ত শুরু করে কুষ্টিয়ার পুলিশ প্রশাসন। এক পর্যায়,আসামীদের ধরপাকড় ও জবানবন্দীতে মটরসাইকেল চুরির বিষয়টি নিশ্চিত করেন কুষ্টিয়ার প্রশাসন। আদালত সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘ আট (৮) বছর মামলা চলাকালে অনেক ঘাত-প্রতিঘাত পেড়িয়ে গতকাল কুষ্টিয়া সিনিয়র জুডিসিয়াল আদালত ৩ এর বিচারক সেলিনা খাতুন জি আর মামলা নং ১৭/৩৩২ এর আসামী আসাদুল (২৮),মিজানুর রহমান মিজান (৩০) আলীম (২৮), রোকন ও ফারুক (৩০) কানাবিল রোড, জুগিয়া কুষ্টিয়াকে দুই বছরের সশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন। সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘ আট বছর ধরে বিচারকার্য চলে,এবং বাদীর পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন কুষ্টিয়া জজকোর্টের এপিপি এ্যাড সাজ্জাদ হোসেন সেনা।

আরো খবর...