কুষ্টিয়ার বটতৈলে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটে আগুন, নগদ টাকাসহ বাড়ি ঘর পুড়ে ছাই

নিজ সংবাদ ॥ কুষ্টিয়া সদর উপজেলার বটতৈল গ্রামে ছানোয়ার আলীর নামে এক ব্যক্তির বাড়িতে বৈদ্যুতিক সর্টসার্কিটে আগুন লেগে নগদ টাকাসহ বসতবাড়ি পুড়ে গেছে। এসময় ছানোয়ারের শরীরের বিভিন্ন অংশ আগুনে ঝলছে আহত হয়েছেন। মঙ্গলবার দিবগাত রাত ১২টার দিকে বটতৈল গ্রামের ক্যানালপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় দেড় লক্ষাধিক টাকার ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। বটতৈল গ্রামের মৃত ইদবার শেখের ছেলে ছানোয়ার আলী। ছানোয়ার আলী একজন দিনমজুরি। তার মা, দুই ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে। ছানোয়ার আলী বলেন, হঠাৎ ঘুম ভেঙে গেলে বাইরে এসে দেখি গোয়াল ঘরে আগুন। বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটের কারণে আমার গোয়াল ঘরে আগুন ধরে। পরে রান্নার করা খড়ির ঘরে আগুন লাগে। পরে আমার সোবার ঘরে আগুন লেগে যায়। ঘরে রাখা নগদ ২৭ টাকা, সোনার দুল, ঘরের সব পোশাক, আসবাবপত্র ও ঘরের টিন পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ছানোয়ারের স্ত্রী তাছলিমা খাতুন কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, আমার স্বামীর শরীরের বিভিন্ন অংশ আগুনে ঝলছে গেছে। বাছুর গরুর শরীর ঝলছে গেছে। নগদ টাকাসহ  আমার ঘরে থাকার লেপ তোশক, বালিশ, পোশাকসহ সবকিছু পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। তার স্ত্রী তাছলিমা খাতুন বলেন, আগুনে আমার স্বামীর শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলছে গেছে। ঘর থেকে কিছুই বের করতে পারিনি। প্রত্যক্ষদর্শী এলাকাবাসীরা জানান, মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে হৈচৈ শুনে বাইরে এসে দেখি ছানোয়ারের বাড়িতে আগুন লেগে যায়। বৈদ্যুতিক সটসার্কিটে এ ঘটনা ঘটে। বিদ্যুত অফিসে ফোন দিয়ে বিদ্যুত বন্ধ করতে বলা হয়। পরে ফায়ার সার্ভিসে ফোন দেয়। এসময় এলাকাবাসীরা ছুটে পানি দিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আসে। বটতৈল ৪নং ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মমিন মন্ডল বলেন, ছানোয়ার নামের একজনের  বাড়ি আগুনে পুড়ে গেছে। তিনি যাতে সহযোগিতা পান সে বিষয়টি প্রশাসনের নজরে আনা হবে। পরিষদের পক্ষ থেকেও যথা সম্ভব সহযোগিতা দেয়া হবে।’ ফায়ার সার্ভিসের সিনিয়র স্টেশন অফিসার আলী সাজ্জাদ জানান,‘ বটতৈল এলাকায় ছানোয়ার নামের এক ব্যক্তির বাড়ি আগুন লেগে পুড়ে গেছে। এতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটে আগুন লেগে  এ অবস্থা হয়েছে।

 

আরো খবর...