কুষ্টিয়ার কৃতিসন্তান দীপু মাহমুদ পেলেন অধ্যাপক খালেদ শিশুসাহিত্য পুরস্কার

বিশেষ প্রতিনিধি \  কিশোর উপন্যাস “শ্যামসুন্দর”-এর জন্য অধ্যাপক  মোহাম্মদ খালেদ শিশুসাহিত্য পুরস্কার ২০১৯-এ ভূষিত হয়েছেন দীপু মাহমুদ। সাংবাদিক, মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক ও স্বাধীন বাংলাদেশের সংবিধানের অন্যতম প্রণেতা অধ্যাপক মোহাম্মদ খালেদ-এর নামে প্রবর্তিত হয়েছে ‘অধ্যাপক মোহাম্মদ খালেদ শিশুসাহিত্য পুরস্কার’। এই পুরস্কার চালু করেছে সাহিত্য, সংস্কৃতি, ইতিহাস ঐতিহ্য বিষয়ক প্রতিষ্ঠান ‘চট্টগ্রাম একাডেমি’। পুরস্কার হিসেবে দেওয়া হবে একটি ক্রেস্ট, সনদ ও নগদ সম্মানী। শিশুসাহিত্যে অবদান রাখার স্বীকৃতিস্বরূপ ইতোপূর্বে দীপু মাহমুদ অগ্রণী ব্যাংক-শিশু একাডেমি শিশুসাহিত্য পুরস্কার, এম নুরুল কাদের শিশুসাহিত্য পুরস্কার, শিশুসাহিত্যিক মোহাম্মদ নাসির আলী স্বর্ণপদক, আনন্দ আলো শিশুসাহিত্য পুরস্কার, সায়েন্স ফিকশন সাহিত্য পুরস্কারসহ নানা পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন। পেয়েছেন সম্মাননা। তাঁর প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা নব্বই ছাড়িয়েছে।

দীপু মাহমুদের লেখা শ্যামসুন্দর, বুসেফেলাস, নিতুর ডায়েরি ১৯৭১, সমুদ্রে ভয়ংকর, মাহিনের জুতোজামা, রাজকুমার ও যুবরাজ, পুতলি ও  ছেলেধরা, নয়ন, মিরুর স্বপ্নখাতা উল্লেখযোগ্য কিশোর উপন্যাস। এ ছাড়াও তিনি শিশু-কিশোরদের জন্য লিখেছেন শতাধিক ছোটগল্প, মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও অসংখ্য বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনি।

দীপু মাহমুদের জন্ম নানাবাড়ি চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গার প্রাগপুর গ্রামে। শৈশব ও বাল্যকাল কেটেছে দাদাবাড়ি চুয়াডাঙ্গার হাটবোয়ালিয়াতে। বেড়ে উঠেছেন কুষ্টিয়া শহরে। পড়াশোনা করেছেন কুষ্টিয়া জিলা স্কুল, কুষ্টিয়া সরকারি কলেজ, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয় ও আহছানউল্লা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে। পিএইচডি করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের আমেরিকান ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটিতে।

আরো খবর...