ঈদযাত্রা নির্বিঘ্নে করার আহ্বান সেতুমন্ত্রীর

ঢাকা অফিস ॥ ঈদযাত্রা নির্বিঘœ করতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। এজন্য প্রয়োজনীয় সব প্রস্তুতি রাখার আহ্বান জানান তিনি। মন্ত্রী ফ্লাইওভারসহ মহাসড়কে চলমান অন্যান্য উন্নয়নকাজ সাময়িক বন্ধ রাখতে আবারও নির্দেশ দেন। গতকাল সোমবার নিজের সরকারি বাসভবন থেকে এক ভিডিও কনফারেন্সে মন্ত্রী এ নির্দেশ দেন। ঈদকে সামনে রেখে গাজীপুরের সড়ক বিভাগ ও আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার সঙ্গে মত বিনিময় করেন তিনি। ওবায়দুল কাদের বলেন, ইতোমধ্যেই উন্নয়ন কাজগুলো সাময়িক বন্ধ করার জন্য সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলেছি। সমন্বিতভাবে সবাইকে ঈদযাত্রা নির্বিঘœ করার জন্য কাজ করতে হবে। সংশ্লিষ্ট সব পক্ষকে এ বিষয়ে কাজ করার আহ্বান জানান মন্ত্রী। তিনি বলেন, টঙ্গী থেকে গাজীপুর চৌরাস্তা এবং বাইপাস, নবীনগর-চন্দ্রা,ভোগড়া-চন্দ্রা-কালিয়াকৈর- এলেঙ্গা করিডোর পর্যন্ত ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা যথাযথ রাখতে হবে। এতে ঘরমুখো মানুষের ভোগান্তি কম হবে। ঈদের আগের দুই দিন গাজীপুর এলাকার গার্মেন্টসগুলো ছুটি হওয়ায় যাত্রীদের চাপ বেড়ে যায়। তাই বিজিএমইএ এর সঙ্গে পরিকল্পনা করে বাড়তি চাপ মোকাবিলার প্রস্তুতি নিতে হবে। মন্ত্রী হাইওয়ে পুলিশের উদ্দেশে বলেন, রাস্তায় হঠাৎ গাড়ি বিকল হয়ে যেতে পারে। বৃষ্টি হচ্ছে। তাতে সমস্যা হতে পারে। যানজট হতে পারে। তাই রেকারসহ অন্যান্য প্রস্তুতি নিয়ে রাখতে হবে। ঈদের আগে টেম্পু, রিকশা-ভ্যান, অটোরিকশা কোনোভাবেই চলতে দেওয়া যাবে না। মহাসড়কে নজরদারি বাড়াতে হবে। ঢাকার প্রবেশ এবং বের হওয়ার পথগুলোতে ট্রাফিক ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে। সতর্কতার সঙ্গে গাড়ি চালানোর জন্য পরিবহন মালিক-শ্রমিকদেরও আহ্বান জানান তিনি কাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদযাত্রা নিশ্চিত করার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী এটা সার্বক্ষণিক মনিটরিং করছেন। আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহ্বানের ধারাবাহিকতায় আবারও বন্যার্তদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান। প্রশাসনের সঙ্গে সমন্বয় করে কাজ করতে হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী কাজ সুষ্ঠুভাবে করার জন্য সমন্বয় কমিটি করারও নির্দেশ দিয়েছেন।

আরো খবর...