আলমডাঙ্গায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে দু’জনের ৭দিনের জেল

আলমডাঙ্গা অফিস ॥ চিকিৎসকের অব্যবস্থাপনায় যৌন-উত্তেজক এ্যালকোল জাতীয় স্পিট বিক্রির দায়ে ২ জনকে ৭ দিন করে বিনাশ্রম কারান্ডাদেশ দেয়া হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টার আলমডাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার লিটন আলী ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

জানাগেছে, পৌর এলাকার গোবিন্দপুর গ্রামের মৃত আ: বারীর ছেলে মজিবর রহমান (৫২) দীর্ঘদিন যাবৎ উপজেলা পরিষদের সামনে চায়ের ব্যবসা চালিয়ে আসছে। ইতোমধ্যে প্রশাসনের মাদক বিরোধী অভিযান অব্যাহত থাকায় চায়ের ব্যবসার পাশাপাশি গোপনে যৌন উত্তেজক এ্যালকোহল (স্পিট) বিক্রয় করে আসছিলো। এমন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশের সহযোগিতায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে। ভ্রাম্যমাণ আদালত মজিবরের দোকান তল¬াশি করে যৌন উত্তেজোক এ্যালকোহল (স্পিট) উদ্ধার করে। এসময় আটককৃত মজিবরের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে ভ্রাম্যমাণ আদালত আলমডাঙ্গার ফরিদপুর বাজারের সালেহিন হোমিও হলে অভিযান চালায়। অভিযান পরিচালনার সময় দোকানে মাত্রাতিরিক্ত যৌন উত্তেজক এ্যালকোহল (স্পিট) উদ্ধার করে এবং দোকান মালিক আজিবর রহমানের ছেলে তৌমুর সালেহিন (পল¬ব) কে আটক করে। সন্ধ্যা ৭টার দিকে পৃথক স্থানে ভ্রাম্যমাণ আদালতে মাধ্যমে আটককৃত দুইজনকে চিকিৎসকের অব্যবস্থাপনায় যৌন উত্তেজক এ্যালকোল জাতীয় স্পিট বিক্রয়ের দায়ের ৭ দিনে বিনাশ্রম কারান্ডাদেশ প্রদান করেন।

আরো খবর...