আলমডাঙ্গায় পানিতে ডুবে শিক্ষিকার শিশুপুত্রের করুণ মৃত্যু

আলমডাঙ্গা প্রতিনিধি ॥ আলমডাঙ্গার বৈদ্যনাথপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকার শিশুপুত্রের পানিতে ডুবে করুণ মৃত্যুতে পরিবারে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। একমাত্র পুত্রের এ অকাল মৃত্যুতে মা পাগলপ্রায়। তার আর্তনাদে এলাকার আকাশ-বাতাস যেন ভারি হয়ে উঠেছে। শিশুর মরদেহ দেখার জন্য প্রচুর মানুষের ভীড়। দেখে কেউই  চোখের পানি ধরে রাখতে পারিনি। সহকর্মীর ছেলের মৃত্যুতে মাসুম শিশুর আত্মার শান্তি কামনা ও শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন শিক্ষক রবিউল আওয়াল, জামিরুল ইসলাম খান জামিল। পারিবারিক সুত্রে জানা গেছে,আলমডাঙ্গার বৈদ্যনাথপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষিকা জান্নাতুল ফেরদৌস ও মোস্তকিন দম্পতির একমাত্র শিশু পুত্র আদিব (৪) গতকাল রবিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে তার নানা বীর মুক্তিযোদ্ধা আঃ খালেকের বাড়ি হাটবোয়ালিয়া হাসপাতালপাড়ায় খাওয়া শেষ করে প্রতিবেশি শিশু ইরানের সাথে খেলতে বাড়ির পাশে মাথাভাঙ্গা নদীতে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুবে যায়। পরিবারের লোকজন খোঁজাখুজি করে না  পেয়ে দিশেহারা হয়ে যায়। বেশকিছুক্ষন পর এক প্রতিবেশি শিশুর ভাসমান লাশ দেখতে পেয়ে চিৎকার করে স্থানীয় লোকজন জড়ো করে। অবশেষে মরদেহও আদিবের বলে শনাক্ত হয়ও তার স্বজনরা লাশ বাড়ি নিয়ে গেলে হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা সৃষ্টি হয়। পড়ে যায় বুক ফাটা আহাজারি আর কান্নার রোল। এ যেন মাথায় আকাশ ভেঙ্গে পড়ার মত। এ খবর বাতাসের বেগে ছড়িয়ে পড়লে উৎসুক জনতার ভীড় জমে যায়। আদিবের নানি, মামা ঢাকা থেকে আসার পর দাফন করা হতে পারে।

আরো খবর...