ভারতের দর্পচূর্ণ করে সাফ চ্যাম্পিয়ন মালদ্বীপ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ ভারতকে হারিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো সাফ সুজুকি কাপের ট্রফি জিতেছে মালদ্বীপ। গতকাল শনিবার বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ফাইনালে মালদ্বীপ ২-১ গোলে হারিয়েছে গতবারের চ্যাম্পিয়নদের। দুই অর্ধে দুই গোল করে টুর্নামেন্টের সবচেয়ে বড় চমকটি দেখাল টসভাগ্যে গ্র“প পর্ব টপকানো দলটি। সাফ চ্যাম্পিয়নশিপটা ডাল-ভাত বানিয়ে ফেলেছিল ভারত। ১১ আসরে ৭ বার চ্যাম্পিয়ন হয়ে দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে বড় দেশটির আচরণেও এসেছিল পরিবর্তন। জাতীয় দলের টুর্নামেন্ট যুব দল পাঠিয়েও ২০০৯ সালে ঢাকা থেকে ট্রফি নিয়ে ঘরে ফিরেছিল তারা। এবারও তেমনটি আশা করেছিল ভারত অনূর্ধ্ব-২৩ দল পাঠিয়ে। দলটির ইংলিশ কোচ স্টিফেন কনস্ট্যানটাইন টুর্নামেন্টের নিয়ম-কানুনও মানেননি। টুর্নামেন্ট শুরুর আগে অফিসিয়াল সংবাদ সম্মেলনে আসেননি। সেমিফাইনালের আগে পাঠিয়েছিলেন সহকারী কোচকে। ফাইনালপূর্ব সংবাদ সম্মেলনে দম্ভ করে বলেছিলেন, তারা হারতে আসেননি। ভারতের সেই দম্ভ গুঁড়িয়ে দিয়েছে মালদ্বীপ। সাতবারের চ্যাম্পিয়ন ভারতকে হারিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো সাফের ট্রফি জিতল দ্বীপ দেশটি। ১৯ মিনিটে মালদ্বীপ এগিয়ে যায় ইব্রাহিম হোসাইনের গোলে। পাল্টা আক্রমণ  থেকে ভারতের অর্ধে ঢুকে ডিফেন্সচেরা পাস দেন নাইজ হাসান। ইব্রাহিম গতিতে ভারতীয় দুই ডিফেন্ডারকে পরাস্ত করে একটু সামনে এগিয়ে আসা গোলরক্ষকের মাথার উপর দিয়ে চমৎকার প্লেসিংয়ে বল জালে পাঠান। ৬৬ মিনিটে আরেকটি প্রতি আক্রমণে ব্যবধান দ্বিগুণ করে মালদ্বীপ। বাম দিক থেকে মোহাম্মদ হামজার ডিফেন্সচেরা পাস ধরে আগুয়ান গোলরক্ষকের পাশ দিয়ে বল ঠেলে দেন পোস্টে। ভারতের এক ডিফেন্ডার শেষ চেষ্টা করেও বল থামাতে পারেননি। ভারত ব্যবধান কমায় ইনজুরি সময়ে সুমিত পাশির গোলে।

পৌরসভা চ্যাম্পিয়ন ॥ ফুলবাড়ীয়া রানার্সআপ

মিরপুরে বঙ্গবন্ধু জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত

আমলা অফিস ॥ কুষ্টিয়ার মিরপুরে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে এবং ক্রীড়া সংস্থার বাস্তবায়নে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার বিকেলে স্থানীয় ফুটবল মাঠে ফাইনাল খেলায় পৌরসভা ২-০ গোলের ব্যবধানে ফুলবাড়ীয়া ইউনিয়নকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেন। তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা পূর্ণ খেলার প্রথমার্ধে উভয় দল গোল করতে ব্যর্থ হয়। দ্বিতীয়ার্ধে পৌরসভার পক্ষে সাহেব রানা দু’টি গোল করে দলের জয় নিশ্চিত করেন। পৌরসভার সাহেব রানা ম্যাচ সেরা এবং শিমুল টুর্ণামেন্ট সেরা নির্বাচিত হন। ফুলবাড়ীয়া ইউনিয়নের লিখন সর্বোচ্চ গোলদাতা নির্বাচিত হন। খেলাটি পরিচালনা করেন উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্য মোহাম্মদ রফিক। তাকে সহযোগিতা করেন মিরপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক শফিউল ইসলাম ও সুলতানপুর সিদ্দিকীয়া মাদ্রাসার ক্রীড়া শিক্ষক সাইদুল ইসলাম। খেলা শেষে প্রধান অতিথি হিসেবে বিজয়ীদের মধ্যে পুরষ্কার বিতরণ করেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামারুল আরেফিন।  উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এস এম জামাল আহমেদ’র সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন টূর্ণামেন্ট কমিটির সদস্য সচিব উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মহাম্মদ আলী জোয়ার্দ্দার, পৌরসভার মেয়র হাজী এনামুল হক, উপজেলা পরিষদের ভাইস-চেয়ারম্যান বাহাদুর শেখ, মহিলা ভাইস-চেয়ারম্যান শারমিন আক্তার নাসরিন, মিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল¬াহ-আল-মতিন লোটাস, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জুলফিকার হায়দার, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা সিরাজুল ইসলাম, ফুলবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজী আব্দুস সালাম, তালবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান মন্ডল, কুর্শা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ওমর আলী, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আফতাব উদ্দিন খান প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন মিরপুর প্রেসক্লাবের সাবেক আহ্বায়ক হুমায়ূন কবির হিমু।

খোকসায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুনামেন্টের অনুর্ধ্ব-১৭ ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত

খোকসা প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার খোকসা উপজেলায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের (অনুর্ধ্ব-১৭)-২০১৮ এর ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। খেলায় জয়ন্তীহাজরা ইউনিয়ন পরিষদ ২-১ গোলে আমবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। গতকাল শনিবার বিকেলে উপজেলা সদরের খোকসা জানিপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে খেলার সমাপনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিনা বানু। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি প্রধান অতিথি ছিলেন  জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি, খোকসা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সদর উদ্দিন খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) মুহম্মদ নুর-এ-আলম, খোকসা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বাবুল আখতার, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক প্রভাষক তারিকুল ইসলাম তারিক, ওসি তদন্ত আসাদুজ্জামান। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা কৃষি অফিসার বিষ্ণুপদ সাহা, উপজেলা যুবউন্নয়ন কর্মকর্তা বদিউজ্জামান, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার ফারুক আহম্মেদ, জেলা পরিষদ সদস্য মোজাহেদুল ইসলাম বাবলু, শোমসপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও ক্রীড়া সংস্থার সাধারন সম্পাদক আয়েন উদ্দিন, শিমুলিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আশারাফ হোসেন, বনগ্রাম মাধমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শফিকুল ইসলাম, শোমসপুর বালিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শফিকুজ্জামান,  উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আরিফুল আলম তশর, জয়ন্তীহাজরা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক, জানিপুর ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হবিবুর রহমান হবি, ওসমানপুর ইউপি চেয়ারম্যান আনিছুল ইসলাম বাবলু, আমবাড়ীয়া ইউপি চেয়ারম্যান আমিনুর রহমান বিষু প্রমখ। এ ছাড়াও উপজেলা বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাা, জনপ্রতিনিধি, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান, সুধী, সাংবাদিকগন উপস্থিত ছিলেন। বঙ্গবন্ধু জাতীয় ফুটবল টুনামেন্টের (অনুর্ধ্ব-১৭)-২০১৮ গোল্ডকাপ ফুটবল টুনামেন্টে উপজেলা নয়টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভা একাদশ অংশগ্রহন করে। ফাইনাল খেলায় জযন্তীহাজরা ইউনিয়ন পরিষদ ২-১ গোলে আমবাড়ীয় ইউনয়িন পরিষদকে পরাজিত করে।

চাপড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ চ্যাম্পিয়ন

কুমারখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট সমাপ্ত

কুমারখালী প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল অনুর্দ্ধ-১৭ ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার বিকাল সাড়ে ৪টায় কুমারখালী এম এন পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে এই টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ খেলায় জগন্নাথপুর ইউনিয়ন ফুটবল একাদশকে ট্রাইবেকারে ১-০ গোলে পরাজিত করে চাপড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ বিজয়ের গৌরব (চ্যাম্পিয়ন) অর্জন করে।  খেলা শেষে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে প্রাণবন্ত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সহকারি কমিশনার (ভুমি) মুহাম্মদ মুছাব্বেরুল ইসলামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক মো: আসলাম হোসেন। পরে তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে চ্যাম্পিয়ন ও রার্নাসআপ দলের খেলোয়াড়দের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কুমারখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: শাহীনুজ্জামান। এ সময় বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক, শিক্ষা ও আইসিটি) তরফদার সোহেল রহমান, নন্দলালপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো: নওশের আলী বিশ্বাস, শিলাইদহ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো: সালাহ্উদ্দিন খান তারেক, জগন্নাথপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক আহমেদ খান, চাপড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মনির হাসান প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। এর আগে জেলা প্রশাসক মাঠে গিয়ে খেলোয়াড় ও খেলার পরিচালকদের সাথে পরিচিত হন ও বেলুন উড়িয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলার উদ্বোধন ঘোষনা করেন। চরম প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ এই খেলায় নির্ধারিত সময়ের মধ্যে জগন্নাথপুর ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ও চাপড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ প্রাণপন চেষ্টা করেও গোল করতে ব্যর্থ হয় এবং শেষ পর্যন্ত ট্রাইবেকারে ১-০ গোলের ব্যবধানে পরাজয় বরণ করতে হয় জগন্নাথপুর ইউনিয়ন ফুটবল একাদশকে।  খেলা পরিচালনা করেন উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারন সম্পাদক রেজাউর রহমান। এ সময় তার সহযোগী হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন, এম, এন পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আশরাফুল ইসলাম ও আতাউর রহমান। এ ছাড়াও চতুর্থ পরিচালক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন কুমারখালী সরকারি কলেজের শারীরিক শিক্ষক চঞ্চল কুমার কর্মকার। খেলার ধারাবিবরণীতে ছিলেন, উপজেলা স্যানিটারী ইন্সপেক্টর মো: আরাফাত আলী, কে.এম জনি ও ইমন।

দৌলতপুরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টে দৌলতপুর চ্যাম্পিয়ন

শরীফুল ইসলাম ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টে (অনুর্ধ্ব-১৭) দৌলতপুর ইউনিয়ন চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। গতকাল শুক্রবার বিকেল ৪টায় দৌলতপুর পাইলট হাইস্কুল মাঠে অনুষ্ঠিত ফাইনাল খেলায় মথুরাপুর ইউনিয়নকে ৩-০ গোলে হারিয়ে দৌলতপুর ইউনিয়ন চ্যাম্পিয়ন হয়। দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তারের সভাপতিত্বে ফাইনাল খেলায় প্রধান অতিথি ছিলেন, কুষ্টিয়া-১ দৌলতপুর আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব রেজাউল হক চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন, দৌলতপুর থানার ওসি শাহ দারা খান, দৌলতপুর প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার জয়নাল আবেদীন ও দৌলতপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. শরিফ উদ্দিন রিমন। উপস্থিত ছিলেন, মথুরাপুর ইউপি চেয়ারম্যান সরদার হাসিম উদ্দিন হাসু ও দৌলতপুর ইউপি চেয়ারম্যান মহিউল ইসলাম মহিসহ বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষকবৃন্দ। খেলা শেষে অনুষ্ঠানের সভাপতি ও অতিথিবৃন্দ চ্যাম্পিয়ন ও রানারআপ দলের খোলোয়ারদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। দৌলতপুর উপজেলা প্রশাসন এ টুর্নামেন্টের আয়োজন করে।

তরতাজা মেসির সুবিধা পাওয়ার আশায় বার্সা কোচ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ আর্জেন্টিনার হয়ে না খেলায় বিশ্রাম পাওয়ায় লিওনেল মেসি লা লিগায় রিয়াল সোসিয়েদাদের বিপক্ষে জ্বলে উঠবেন বলে মনে মনে করছেন বার্সেলোনার কোচ এরনেস্তো ভালভেরদে। গুয়াতেমালা ও কলম্বিয়ার বিপক্ষে আর্জেন্টিনার গত দুটি ম্যাচে খেলেননি মেসি। ফলে গত ২ সেপ্টেম্বর লা লিগায় সোসিয়েদাদ দেপোর্তিভা হুয়েস্কার বিপক্ষে ম্যাচের পর থেকে বিশ্রাম পেয়েছেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। শনিবার বাংলাদেশ সময় রাত সোয়া আটটায় লিগে নিজেদের পরের ম্যাচে রিয়াল সোসিয়েদাদের বিপক্ষে তাদের মাঠেই খেলবে বার্সেলোনা। সোসিয়েদাদের মাঠে সাম্প্রতিক রেকর্ড ভালো নয় কাতালান দলটির। শেষ আট লড়াইয়ে মোটে একটি জয় লা লিগার বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের। পনেরো দিনের মধ্যে পাঁচটি ম্যাচ খেলতে হবে বার্সেলোনার। এমন ব্যস্ত সূচির আগে দলের মূল তারকা মেসির বিশ্রাম স্বস্তি দিচ্ছে ভালভেরদেকে। সংবাদ সম্মেলনে বার্সেলোনা কোচ বলেন, “ যেসব খেলোয়ড়ের (যারা আন্তর্জাতিক বিরতিতে খেলেনি) ঐ ক্লান্তি নেই। তারা অনুশীলন ও বিশ্রামের জন্য বেশি সময় পেয়েছে।” “আমরা সবসময় অন্য সব খেলোয়াড়ের মতো মেসির কাছে থেকে সেরাটাই প্রত্যাশা করি।..গত সপ্তাহে তার বিশ্রামে থাকাটা অবশ্যই অনেক বড় একটা সুবিধা।” সোসিয়েদাদের বিপক্ষে তরুণ ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার আর্থারকে দলে রাখেননি ভালভেরদে। তবে স্প্যানিশ কোচ মনে করিয়ে দিতে ভোলেননি যে সামনের ব্যস্ত সূচিতে দলে নতুন আসা আর্থার, আর্তুরো ভিদালদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা থাকবে।

কুমারখালিতে কাজী জরিফ স্মৃতি মিনি ফুটবল টুর্ণামেন্ট উদ্বোধন

সোহেল হাবিব ॥ কুষ্টিয়ার কুমারখালিতে শুরু হয়েছে কাজী জরিফ স্মৃতি মিনি ফুটবল টুর্ণামেন্ট। এর আয়োজন করেছে শহরের কাজীপাড়া ইয়াং ষ্টার ক্লাব। গতকাল শুক্রবার বিকালে কাজীপাড়া ঈদগাহ মাঠে শান্তির প্রতীক কবুতর উড়িয়ে খেলা উদ্বোধন করেন কুমারখালি মথুরানাথ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক আবদুল মুত্তালিব। এসময় উপস্থিত ছিলেন ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব আকরাম হোসেন, ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব আবু তালেব, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রিস্তাক করিম, প্রয়াত কাজী জরিফের বড় ভাই  কাজী জাহিদ হোসেন তারিফ, কুমারখালি শহর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এস,এম, শাহিনুর রহমান, ছাত্র লীগ নেতা খন্দকার মুবিন হাসান প্রান্তসহ অন্যান্যরা। উদ্বোধনী খেলায় মরহুম মকবুল হোসেন স্মৃতি সংঘকে ২-১ গোলে পরাজিত করে সেন্টার ক্লাব বিজয়ী হয়।

 

ভেড়ামারায় বঙ্গবন্ধু গোন্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা ও পুরস্কার বিতরণ

ভেড়ামারা প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা বাহিরচর ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন শেখ রাসেল মিনি ষ্টেডিয়াম মাঠে গতকাল শুক্রবার বিকালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোন্ডকাপ ফুটবল টুনামেন্ট’১৮ এর ফাইনাল খেলা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়। ফাইনাল খেলা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ভেড়ামারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার সোহেল মারুফ। প্রধান অতিথি ছিলেন কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সোহেল রহমান। বিশেষ অতিথি ছিলেন ভেড়ামারা পৌরসভার মেয়র  ও উপজেলা আ’লীগের সাধারন সম্পাদক আলহাজ্ব শামিমুল ইসলাম ছানা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ভেড়ামারা সার্কেল) নূর আলম সিদ্দিকী, কুষ্টিয়া জেলা জাসদের সাধারন সম্পাদক আব্দুল আলিম স্বপন,  ভেড়ামারা উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি রফিকুল আলম চুনু, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আমিরুল ইসলাম ও ভেড়ামারা থানার ওসি আমিনূল ইসলাম প্রমুখ। ফাইনাল খেলায় খেলায় বাহিরচর ইউনিয়ন একাদশ  ট্রাইব্রেকারে ভেড়ামারা পৌরসভা একাদশকে পরাজিত করেন।

কালুখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুর্ধ ১৭ এর ফাইনাল খেলায় ট্রাইবেকারে ০-৩ গোলে রতনদিয়া চ্যাম্পিয়ন

ফজলুল হক ॥ গতকাল বৃহস্পতিবার রাজবাড়ী জেলাধীন কালুখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুর্ধ ১৭ এর ফাইনাল খেলায় ট্রাইবেকারে ০৩-০২ গোলে রতনদিয়া ইউনিয়ন মাজবাড়ী ইউনিয়ন কে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়নশীপ অর্জন করে। উপজেলা প্রশাসন ও ক্রীড়া সংস্থার কালুখালী এর আয়োজনে বিকাল ৩টায় রতনদিয়া রজনীকান্ত সরকারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে এ খেলা অনুষ্ঠিত হয়। খেলা শেষে পুরস্কার বিতরণী উপলক্ষ্যে এক আলোচনা সভায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ তোফায়েল আহমেদ এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কাজী সাইফুল ইসলাম। তিনি তার বক্তব্যে খেলাধুলাকে মানুষের জীবনের একটি অংশ বলে আখ্যা দিয়ে বলেন শিশুদেরকে পড়ালেখার পাশাপাশি খেলাধুলায় উদ্বুদ্ধ করতে হবে। যাতে তারা তাদের জীবন বিকাশে কাজে লাগাতে পারে। এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এ্যাডঃ সিদ্দিকুর রহমান, কালুখালী থানা ইন্সপেক্টর তদন্ত মোঃ সহিদুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাচন অফিসার মোঃ জাহিদ হাসান, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক সামছুল আলম,  রতনদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মেহেদী হাচিনা পারভিন নিলুফা, মাজবাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান কাজী শরিফুল ইসলাম, রতনদিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল ইসলাম শাহ আজিজ,   খেলা পরিচালনাকারী জেলা রেফারি এসোসিয়েশনের সহ-সাধারণ সম্পাদক মোঃ শাহাদত হোসেন, ধারাভাষ্যকার হিসেবে মঞ্জুরুল ইসলাম জিন্নাহ, জার্স হিসেবে নিত্যানন্দী ও জুয়েল  সহ বিভিন্ন ইউনিয়নের সূধীজন উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা শেষে অতিথিবৃন্দ উপজেলা পর্যায়ে চ্যম্পিয়নশীপ অর্জনকারী রতনদিয়া ইউনিয়নের টিম লিডার ও চেয়ারম্যানের হাতে চ্যাম্পিয়ন ট্রফি এবং রানার্সআপ মাজবাড়ী ইউনিয়নের টিম লিডার ও দলনেতার হাতে রানার্সআপ ট্রফি তুলে দেন। খেলায় ম্যান অব দা ম্যাচ হিসেবে মাজবাড়ী ইউনিয়নের শরিফুল ইসলাম, সর্বোচ্চ গোলদাতা হিসেবে তৌফিক ও ভালো খেলোয়াড় হিসেবে সুভাষকে বিবেচিত করা হয়।

বাংলাদেশ সফরে থাকছে পূর্ণ শক্তির জিম্বাবুয়ে দল

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ বেতনভাতা সংক্রান্ত জটিলতায় পাকিস্তানের বিপক্ষে হোম সিরিজে জিম্বাবুয়ে দলে খেলেননি ব্রেন্ডন টেলরসহ দলের পাঁচ সেরা ক্রিকেটার। তবে বাংলাদেশ সফরে সেই জটিলতার মুখে পড়তে হয়নি দলটিকে। টেলর, এরভিন ও সিন উইলিয়ামসকে নিয়েই বাংলাদেশ সফরের জন্য দল ঘোষণা করেছে জিম্বাবুয়ে। এক বছর ধরে দলের ক্রিকেটারদের ম্যাচ ফি পান না জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটাররা। এ কারণে কর্মবিরতিতে যায় ক্রিকেটাররা। আইসিসির সঙ্গে সম্মিলিতভাবে আর্থিক স্থিতিশীলতা ফিরিয়ে আনতে কাজ করার প্রতিশ্র“তি দেয়ার পর খেলোয়াড়রা মাঠে ফিরতে রাজি হয়। একইসঙ্গে খেলা বয়কট করলেও সেকান্দর রাজাকে দলে বিবেচনা করেননি নির্বাচকরা। আর হাঁটুর সার্জারি করায় খেলা সম্ভব হচ্ছে না গ্রায়েম ক্রেমারের। অধিনায়কের দায়িত্বে অবশ্য হ্যামিল্টন মাসাকাদজা বহাল থাকছেন। এই তিন ক্রিকেটার বাংলাদেশ সফর ছাড়াও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সীমিত ওভারের দলেও জায়গা পেয়েছেন। আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকার কিম্বার্লিতে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ শুরু করবে জিম্বাবুয়ে। এরপর সেখানে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজও খেলবে। দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের পর দুই ম্যাচ টেস্ট ও তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ সফর করবে জিম্বাবুয়ে দল। বাংলাদেশ সিরিজে জিম্বাবুয়ে দল। ওয়ানডে: হ্যামিল্টন মাসাকাদজা, সলোমন মিরে, ক্রেইগ এরভিন, ব্রেন্ডন টেলর, সিন উইলিয়ামস, পিটার মুর, এল্টন চিগুম্বুরা, ডোনাল্ড তিরিপানো, কাইল জার্ভিস, ব্রেন্ডন মাভুতা, রিচার্ড এনগারাভা, জন নিয়ম্বু, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা, তারিশাল মুসাকান্দা, টেন্ডাই চাতারা, সিফাস চেপাস। টেস্ট: হ্যামিল্টন মাসাকাদজা, ব্রায়ান চারি, ক্রেইগ এরভিন, ব্রেন্ডন টেলর, সিন উইলিয়ামস, পিটার মুর, রেজিস চাকাভা, ডোনাল্ড তিরিপানো, কাইল জার্ভিস, ব্রেন্ডন মাভুতা, রিচার্ড নাগ্রাভা, জন নিয়ম্বু, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা, রায়ান বার্ল, টেন্ডাই চাতারা। দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে জিম্বাবুয়ে দল। ওয়ানডে: হ্যামিল্টন মাসাকাদজা, সলোমন মিরে, ক্রেইগ এরভিন, ব্রেন্ডন টেলর, সিন উইলিয়ামস, পিটার মুর, এল্টন চিগুম্বুরা, ডোনাল্ড তিরিপানো, কাইল জার্ভিস, ব্রেন্ডন মাভুতা, রিচার্ড এনগারাভা, তিনাশে কামুচুকামে, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা, রায়ান মারেই, টেন্ডাই চাতারা। টি-টোয়েন্টি: হ্যামিল্টন মাসাকাদজা, সলোমন মিরে, নেভিল মাদজিভা, ব্রেন্ডন টেলর, সিন উইলিয়ামস, পিটার মুর, এল্টন চিগুম্বুরা, টেন্ডাই চিসোরো, কাইল জার্ভিস, ব্রেন্ডন মাভুতা, ব্রেন্ডন মাভুতা, ক্রিস্টোফার মাপুফো, চামু চিগাবা, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা, তারিশাল মুসাকান্দা, টেন্ডাই চাতারা।

অধিনায়ক হিসেবে ইতিহাস গড়লেন মিতালি

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ ভারতীয় নারী ক্রিকেট দলের অধিনায়ক হিসেবে নতুন ইতিহাস গড়েছেন মিতালি রাজ। সবচেয়ে বেশিসংখ্যক ওয়ানডে ম্যাচে দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার রেকর্ড গড়েছেন তিনি। গত মঙ্গলবার শ্রীলংকার বিপক্ষে নতুন মাইলফলক স্পর্শ করেন মিতালি। ভারতীয় জাতীয় দলের অধিনায়কের দায়িত্ব নেয়ার পর থেকে এখনও পর্যন্ত ১১৯টি ওয়ানডে ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন মিতালি। এই মাইলফলক সম্পর্শ করার মধ্য দিয়ে ইংল্যান্ডের সাবেক অধিনায়ক শার্লট এডওয়ার্ডসকে পেছনে ফেলেছেন মিতালি। ইংলিশদের হয়ে ১১৭টি ওয়ানডে ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন শার্টল। নারী ক্রিকেটার হিসেবে ১০১টি ওয়ানডে ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন বেলিন্ডা ক্লার্ক। বাংলাদেশের হয়ে সর্বোচ্চ ১৮টি ওয়ানডে ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন সালমা খাতুন। আর রুমানা আহমেদ নেতৃত্ব দিয়েছেন ১৫টি ম্যাচে। ভারতের হয়ে ১৯৫টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলা মিতালির নেতেৃত্বে ৭২টি ওয়ানডে ম্যাচে জয় পেয়েছে ভারত। হেরেছে ৪৩টি ম্যাচে। শুধু তাই নয়! বিশ্বের অন্যতম সেরা এই অধিনায়কের নেতৃত্বে দু’বার বিশ্বকাপের ফাইনালেও খেলেছিল ভারতীয় নারী ক্রিকেট দল।

জগন্নাথপুর ফুটবল একাদশ ২-০ গোলে জয়ী

কুমারখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের খেলা অনুষ্ঠিত

কুমারখালী প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল অনুর্দ্ধ-১৭ ফুটবল টুর্ণামেন্টের তৃতীয় রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৪টায় কুমারখালী এম এন পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত এ খেলায় জগন্নাথপুর ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ২-০ গোলে পৌরসভা ফুটবল একাদশকে পরাজিত করে। চরম প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ এই খেলায় প্রথমার্থের নির্ধারিত সময়ের মধ্যে জগন্নাথপুর ফুটবল দল ১-০ গোলে এগিয়ে থাকে। দ্বিতীয়ার্ধের নির্ধারিত সময়ে জগন্নাথপুর ফুটবল একাদশ আরেকটি গোল করে। খেলার নির্ধারিত সময়ে পৌরসভা ফুটবল একাদশ প্রাণপন চেষ্টা করেও গোল করতে ব্যর্থ হয় এবং শেষ পর্যন্ত ২-০ গোলের ব্যবধানে পরাজয় বরণ করতে হয় পৌরসভা একাদশকে।  এ সময় মঞ্চে কুমারখালী পৌরসভার মেয়র সামছুজ্জামান অরুণ, কুমারখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: শাহীনুজ্জামান, সহকারি কমিশনার (ভুমি) মুহাম্মদ মোছাব্বেরুল ইসলাম, নন্দলালপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো: নওশের আলী বিশ্বাস, জগন্নাথপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক আহমেদ খান, পৌর সভার প্যানেল মেয়র এস এম রফিকুল ইসলাম, কাউন্সিলর মাহাবুব আলম বাবু, আনিছুর রহমান প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। খেলা পরিচালনা করেন এম, এন পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আশরাফুল ইসলাম এবং তাঁর সহযোগী হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারন সম্পাদক রেজাউর রহমান ও কুমারখালী সরকারি কলেজের ক্রীড়া শিক্ষক চঞ্চল কুমার কর্মকার। খেলার ধরাবিবরণীতে ছিলেন, উপজেলা স্যানিটারী ইন্সপেক্টর মো: আরাফাত আলী সহ কে, এম জনি ও ইমন। আজ শুক্রবার বিকালে একই মাঠে চাপড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশের সাথে লড়াইয়ে অবতীর্ণ হবে পৌরসভা ফুটবল একাদশ। আজকের খেলায় পৌরসভা একাদশ ৩-০ গোলে চাপড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশকে পরাজিত করতে পারলেই ফাইনালে খেলার সুযোগ পাবে পৌরসভা ফুটবল একাদশ। উল্লেখ্য, আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হবে। উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয় সূত্রে জানাগেছে, এই টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকবেন কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক মো: আসলাম হোসেন।

কালুখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুর্ধ ১৭ এর খেলায় ট্রাইবেকারে মাজবাড়ী ফাইনালে

ফজলুল হক ॥ গতকাল বুধবার রাজবাড়ী জেলাধীন কালুখালীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুর্ধ ১৭ এর খেলায় ট্রাইবেকারে ০৩-০১ গোলে মাজবাড়ী ইউনিয়ন বোয়ালিয়া ইউনিয়ন কে পরাজিত করে ফাইনালে উন্নিত হয়। উপজেলা প্রশাসন ও ক্রীড়া সংস্থার কালুখালীর আয়োজনে বিকাল ৩টায় রতনদিয়া রজনীকান্ত সরকারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে এ খেলা উপভোগ করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ তোফায়েল আহমেদ, ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক সামছুল আলম,  মাজবাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান কাজী শরিফুল ইসলাম, বোয়ালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান হালিমা বেগম, খেলা পরিচালনাকারী জেলা রেফারি এসোসিয়েশনের সহ-সাধারণ সম্পাদক মোঃ শাহাদত হোসেন, জার্স হিসেবে নিত্যানন্দী ও জুয়েল সহ বিভিন্ন ইউনিয়নের সূধীজন উপস্থিত ছিলেন। বিজয় শেষে মাজবাড়ী ইউনিয়নের অধিনায়ক মোঃ শরিফ শেখ ও খেলোয়ারবৃন্দ ইউনিয়ন চেয়ারম্যান কাজী শরিফুল ইসলাম, টিম লিডার মোঃ ফারুক আহম্মেদ, সহকারী টিম লিডার আমজাদ হোসেন, সাইফুল ইসলাম, মোশারফ মেম্বার সহ এলাকার জনসাধারণ চেয়ারম্যানকে নিয়ে বিভিন্ন আনন্দ উল্লাস করেন।

৯৮ ব্যাচের ফুটবল ফাইনাল খেলায় হালসাকে ৬-০ গোলে পরাজিত হরে পোড়াদহ চ্যাম্পিয়ন

মিলন আলী ॥ কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার ঐতিহ্যবাহী হালসা হাই স্কুলের ৯৮ সালের এসএসসি ব্যাচের পরীক্ষার্থীদের আয়োজনে ফুটবল ফাইনাল খেলা বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত হয়েছে।  উক্ত ব্যাচের ছাত্র, মিরপুর উপজেলা যুবলীগের সদস্য হাজী আশরাফ পারভেজের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। কুষ্টিয়া জেলা যুবলীগের সভাপতি রবিউল ইসলাম প্রধান অতিথি হিসাবে ফুটবল ফাইনাল খেলার উদ্বোধন করেন। খেলায় শক্তিশালী পোড়াদহ ফুটবল দল হালসা ফুটবল দলকে ৬-০ গোলে পরাস্ত করে চ্যাম্পিয়ন হয়। বিশেষ অতিথি বক্তব্য রাখেন মিরপুর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আবুল কাশেম জোয়ার্দ্দার, সাধারন সম্পাদক আব্দুল হালিম বিশ্বাস, পাটিকাবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি সাইদুর রহমান বিশ্বাস, হালসা হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক আব্দুস সালাম, সদর উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক আফজাল হোসেন শিশির, হালসা ফাঁড়ীর আইসি সমির কুমার,  জেলা যুবলীগ নেতা মাসুদুর রহমান মাসুদ, পাটিকাবাড়ী ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি নাসিরউদ্দীন বিশ্বাস, সাধারন সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন, আ’লীগ নেতা আহমেদ আলী, তোফাজ্জেল হোসেন ভুট্টো, জাহাঙ্গীর মালিথা, হারুন অর রশিদ, মালিহাদ ইউনিয়ন যুব লীগের সাধারন সম্পাদক সাদিকুর রহমান টুটুল, কুর্শা ইউনিয়ন যুবলীগের নেতা মাহবুব মাস্টার, যুব লীগ নেতা শেখ শামসুজ্জামান শিপন, বামনগাড়ী একতা ক্লাবের সাইফুল ইসলাম রাজা, মিনারুল ইসলাম, মোরাদ  হোসেন, দেলোয়ার ও উজ্জ্বল। খেলা পরিচালনা করেন জেলার সাবেক কৃতিমান ফুটবলার শরিফুল ইসলাম শরিফ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন সাবেক ফুটবলার, ৯৮ সালের এসএসসি ব্যাচের ছাত্র সোহেল রানা লিটন।

আলমডাঙ্গায় বঙ্গবন্ধু অনুর্ধ্ব-১৭ গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল গাংনি চ্যাম্পিয়ন

আলমডাঙ্গা অফিস  ॥ আলমডাঙ্গার পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয় ফুটবল মাঠে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অনুর্ধ্ব-১৭ জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার বিকেলে গাংনি ইউনিয়ন একাদশ বনাম খাসকররা ইউনিয়ন একাদশের মধ্যে ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। খেলার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কাজী খালেদুর রহমান অরুন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার রাহাত মান্নানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ইয়াকুব আলী মাস্টার, উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি সীমা শারমীন, চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার  নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেড  খাইরুল ইসলাম, আমজাদ হোসেন, শিবানী সরকার, জান্নাতুল ফেরদৌস, খাসকররা ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান রুন্নু, গাংনী ইউপি চেয়ারম্যান আবু তাহের আবু, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সেক্রেটারী খন্দকার, জিহাদী জুলফিকার টুটুল, সাবেক ফুটবলার আব্দুর রহিম, আব্দুর রশিদ। মুক্তিযোদ্ধা নূর মোহাম্মদ জকু ও মোহাম্মদ আলী সিদ্দিকীর উপস্থাপনায় উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা অফিসার মৃনাল কান্তি সরকার, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আব্দুল বারী, সমাজ সেবা অফিসার আফাজ উদ্দিন, যুব উন্নয়ন অফিসার আনিসুর রহমান, মৎস্য অফিসার জেডএম তৌহিদুর রহমান হেলাল, পৌর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম, পরিসংখ্যন অফিসার রকিবুল ইসলাম। খেলা পরিচালনা করেন শরিফুজ্জামান লাকি, মহাসিন কামাল, আবুল হাসান, মুসফিকুর রহমান মুনসুর, আব্দুস সালাম।  ফাইনালে গাংনি ইউনিয়ন একাদশ ২-১ গোলে খাসকররা ইউনিয়নকে পরাজিত করে উপজেলা চ্যাস্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করে।

 

গাংনীতে বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত

গাংনী প্রতিনিধি ॥ মেহেরপুরের গাংনীতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট (অনূর্ধ্ব-১৭)-এর উপজেলা পর্যায়ের আন্তঃ ইউনিয়ন ফুটবল প্রতিযোগিতার  ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বুধবার  বিকেলে গাংনী হাইস্কুল ফুটবল মাঠে ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়।  ক্রীড়া মন্ত্রনালয়ের সহযোগিতায় গাংনী উপজেলা প্রশাসন এ টুর্ণামেন্টের আয়োজন করে। খেলায় ধানখোলা ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ২-১ গোলে মটমুড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশকে পরাজিত করে- উপজেলা পর্যায়ের সেরাদল হিসাবে জেলা পর্যায়ে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে। টুর্ণামেন্ট আয়োজনে সভাপতিত্ব করেন গাংনী উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও টুর্ণামেন্ট পরিচালনা কমিটির সভাপতি বিষ্ণুপদ পাল। প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে খেলা উপভোগ করেন মেহেরপুর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) শেখ ফরিদ আহমেদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন মেহেরপুর জেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক এমএ খালেক, গাংনী থানার ওসি (তদন্ত) সাজেদুল ইসলাম, মেহেরপুর আইনজীবী সমিতির সভাপতি  একে এম শফিকুল আলম। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, গাংনী পৌরসভার প্যানেল মেয়র নবীরুদ্দীন, কাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের  চেয়ারম্যান রাহাতুল্যা বিশ্বাস, কাথুলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান রানা, ধানখোলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আখেরুজ্জামান, সাবেক চেয়ারম্যান গোলাম সরোয়ার, মটমুড়া ইউনিয়ন পরিষদের তরুণ চেয়ারম্যান সোহেল আহমেদ, তেঁতুলবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, মেহেরপুর জেলা পরিষদের সদস্য শওকত আলী, গাংনী সরকারী মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আশরাফুজ্জামান লালু, মেহেরপুর জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক ওয়াসিম সাজ্জাদ লিখন, সাবেক ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব আতর আলী, রাইপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিজানুর রহমান, ছাত্রলীগ নেতা বিপ্লব হোসেন, সাবেক ফুটবলার নাজমুল হক নাজু, সেন্টু মিয়া প্রমুখ।

খেলার প্রথম অধ্যায়ে ধানখোলা ফুটবল একাদশের ৯ নং জার্সি পরিহিত খেলোয়াড় সাগর পরপর ২টি গোল করে দলকে এগিয়ে নেন। পরে দ্বিতীয় অধ্যায়ের মাঝামাঝি সময়  মটমুড়া ইউনিয়ন ফুটবল একাদশের খেলোয়াড় ১টি গোল করেন। খেলায় ম্যান অব দ্যা ম্যাচ মনোনিত হয় ধানখোলা ইউনিয়ন একাদশের খেলোয়াড় আবু সাঈদ। এবং ম্যান অব দ্যা টুর্ণামেন্টে হিসাবে মনোনিত হয় একইদলের খেলোয়াড় সাগর। গাংনীর আহসান খেলাঘরের পক্ষ থেকে ম্যান অব দ্যা ম্যাচ ও ম্যান অব দ্যা টুর্ণামেন্টেকে ক্রেষ্ট উপহার দেয়া হয়। খেলাটি প্রধান রেফারী হিসাবে পরিচালনা করেন,বাফুফের রেফারী আব্বাস আলী, সহকারী রেফারী হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন, জোড়পুকুরিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আব্দুল হান্নান ও গাংনী সিদ্দিকীয়া সিনিয়র মাদ্রাসার ক্রীড়া শিক্ষক আহসান হাবিব। অফিসিয়াল রেফারীর দায়িত্ব পালন ও খেলার ফলাফল-রেকর্ড সংরক্ষণ করেন সাংবাদিক ও বিশিষ্ট ক্রীড়াবিদ আমিরুল ইসলাম অল্ডাম ।

৪র্থ বিকেএসপি কাপ সাঁতার প্রতিযোগিতা-২০১৮

আমলা সুইমিং ক্লাব রানার আপ

আমলা অফিস ॥ ৪র্থ বিকেএসপি কাপ সাঁতার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রতিযোগিতায় কুষ্টিয়ার মিরপুর উপজেলার আমলা সুইমিং ক্লাব রানার আপ হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে। এ খেলায় আমলা সুইমিং ক্লাব ৫টি স্বর্ণপদক অর্জন করেছে। গত ৮, ৯ এবং ১০ সেপ্টেম্বর বিকেএসপি’র উদ্যোগে বিকেএসপি সুইমিং পুলে এ সাঁতার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। ১৯৯৭ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়ে আমলা সুইমিং ক্লাব বিভিন্ন সাফল্যের মাধ্যমে তাদের সুনাম অর্জন করেছে। সেই সুনাম অক্ষুন্ন্য রেখেছে আমলা সুইমিং ক্লাব। আমলা সুইমিং ক্লাবের সাধারন সম্পাদক ও সাঁতার কোচ কামাল হোসেন জানান, আমলা সুইমিং ক্লাব তার সুনাম অক্ষুন্ন্য রেখেছে। দেশের মধ্যে তথা দেশের বাইরেও এখানকার সাঁতারুরা সাফল্য অর্জন করেছে। সম্প্রতি ৪র্থ বিকেএসপি কাপ সাঁতার প্রতিযোগিতা-২০১৮ তে আমলা সুইমিং ক্লাবের সাঁতারুরা রানার আপ হয়েছে। এসময় তারা ৫টি স্বর্ণ পদক অর্জন করেছে। জয়ীরা হলো- মুক্তা খাতুন তিনটা স্বর্ণ, তিনটা রৌপ্য, একটি ব্রোঞ্চ, আল আমিন একটি স্বর্ণ এবং সুমাইয়া একটি স্বর্ণপদক  অর্জন করেছে। আরিফ আলী, নাহিদা খাতুন, লিখন, রবিনসহ আমলা সুইমিং ক্লাব ৫টা স্বর্ণ, ৪টা রৌপ্য এবং ৮টা ব্রোঞ্চ অর্জন করেছে। অপরদিকে উপজেলার সাগরখালী সুইমিং ক্লাব উক্ত প্রতিযোগিতায় ৫টি স্বর্ণপদক এবং একটি রৌপ্য  পদক অর্জন করেছে। এর মধ্যে মীম আক্তার দুইটি ও এ্যানি খাতুন ৩টি স্বর্ণ পদক অর্জন করেছে।

পাকিস্তানের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়া টেস্ট দলে সিডল, ফিঞ্চ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ পাকিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের জন্য অস্ট্রেলিয়া দলে ফিরেছেন পেসার পিটার সিডল ও ব্যাটসম্যান অ্যারন ফিঞ্চ। জায়গা হারিয়েছেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, পিটার হ্যান্ডসকম। দুই ম্যাচের সিরিজে দলে জায়গা হয়নি জো বার্নস ও রিচার্ডসনেরও। ১৫ সদস্যের দলে ডাক পেয়েছেন এখনও কোনো টেস্ট না খেলা ট্র্যাভিস হেড। ম্যাট রেনশর কাভার হিসেবে দলে এসেছেন মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান মারনাস লাবাসচাগনে। ডাক পেয়েছেন দুই পেসার ব্রেন্ডন ডগেট ও মাইকেল নেজার। স্পিন আক্রমণে অ্যাশটন অ্যাগার ও ন্যাথান লায়নের সঙ্গী জন হল্যান্ড। আছেন মার্শদের দুই ভাই শন ও মিচেল। ৭ অক্টোবর দুবাইয়ে শুরু হবে প্রথম টেস্ট। ১৬ অক্টোবর আবু ধাবিতে হবে দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট। সংযুক্ত আরব আমিরাতে পরে পাকিস্তানের বিপক্ষে তিনটি টি-টোয়েন্টিও খেলবে অস্ট্রেলিয়া। টেস্টের অস্ট্রেলিয়া দল: টিম পেইন (অধিনায়ক, উইকেটরক্ষক), অ্যাশটন অ্যাগার, ব্রেন্ডন ডগেট, অ্যারন ফিঞ্চ, ট্র্যাভিস হেড, জন হল্যান্ড, উসমান খাওয়াজা, মারনাস লাবাসচাগনে, ন্যাথান লায়ন, মিচেল মার্শ, শন মার্শ, মাইকেল নেজার, ম্যাথু রেনশ, পিটার সিডল, মিচেল স্ট্যার্ক।

কুষ্টিয়ায় সাঁতার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

আমলা অফিস ॥ ৪৭তম জাতীয় স্কুল-মাদ্রাসা ও কারিগরি ক্রীড়া ও সাঁতার প্রতিযোগিতার কুষ্টিয়া জেলা পর্যায়ে সাঁতার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার দিনব্যাপি কুষ্টিয়া জেলা শিক্ষা অফিসের তত্ত্বাবধায়নে পৌর সুইমিং পুলে জেলাব্যাপি এ বাছাইপর্বের সাঁতার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন কুষ্টিয়ার জেলা শিক্ষা অফিসার জায়েদুর রহমান, বাংলাদেশ সুইমিং ফেডারেশনের সাবেক যুগ্ম সাধারন সম্পাদক আমিরুল ইসলাম, মিরপুর প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি কাঞ্চন কুমার, কলকাকলি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জেব-উন নেছা, কুষ্টিয়া হাইস্কুলের সাবেক ক্রীড়া শিক্ষক শফিকুল আলম বাচ্চু, কলকাকলী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আতিউল হাসান শিকদার, জিকে মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক মানস কুমার সাহা, কমলাপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক সাহাবুর রহমান, কয়া ইসলামীয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক আব্দুল কাদের, পুলিশ লাইন স্কুল এন্ড কলেজের ক্রীড়া শিক্ষক জাহিদুল ইসলাম, কুওয়াতুল ইসলাম আলিয়া মাদ্রাসার ক্রীড়া শিক্ষক আবু সিদ্দিক মহাম্মদ আলী, হাউজিং এষ্টেট মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক সেলিনা বেগম, আমলা সদরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক জালাল উদ্দিন, আমলা জাহানারা মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ক্রীড়া শিক্ষক মায়া খাতুন, সদরপুর সিদ্দিকীয়া দাখিল মাদ্রাসার ক্রীড়া শিক্ষক হাবিবুর রহমান, সহকারী শিক্ষক আবু হেনা মস্তফা কামালসহ জেলার বিভিন্ন উপজেলার মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও মাদ্রাসার প্রধান শিক্ষক ও ক্রীড়া শিক্ষকগণ। জেলাব্যাপি এ সাঁতার প্রতিযোগিতার বিজয়ীরা বিভাগীয় পর্যায়ে সাঁতার প্রতিযোগিতায় অংশ নেবে।

১০ নম্বর জার্সি মেসির জন্য রাখা আছে ঃ আর্জেন্টিনা কোচ

 

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ আর্জেন্টিনা দলে লিওনেল মেসির জন্য ১০ নম্বর জার্সিটা সংরক্ষণ করে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন লিওনেল স্কালোনি। দলটির অন্তর্বর্তীকালীন কোচের বিশ্বাস, পাঁচবারের বর্ষসেরা ফুটবলার তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার আরও দীর্ঘায়িত করবেন। রাশিয়া বিশ্বকাপের শেষ ষোলোয় ফ্রান্সের কাছে হেরে আর্জেন্টিনার বিদায়ের পর থেকেই মেসির আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার নিয়ে এই অনিশ্চয়তা চলছে। জাতীয় দলের হয়ে খেলায় অনির্দিষ্ট এক বিরতিতে আছেন তিনি। হোর্হে সাম্পাওলির জায়গায় অন্তর্বর্তীকালীন কোচ হিসেবে স্কালোনি নিয়োগ পাওয়ার পর থেকে আর্জেন্টিনা দলে মেসির ভবিষ্যৎ নিয়েই আলাপ-আলোচনা বেশি হচ্ছে। কলম্বিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের আগে সংবাদ সম্মেলনেও এর ব্যতিক্রম হলো না। মেসি ও জাতীয় দলে তার ১০ নম্বর জার্সি প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের আর্জেন্টিনা কোচ বলেন, “আপনার প্রশ্নের একটাই উত্তর আছে, বিশ্বকাপের যারা এখানে এসেছে সবাই তাদের জার্সি নম্বর ধরে রেখেছে।” “১০ নম্বর জার্সিটা এখনও মেসিরই আছে। সে আমাদের সঙ্গে খেলা চালিয়ে যাবে কি-না এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগ পর্যন্ত এটা এভাবেই থাকবে।” “আমরা সে সুযোগটা বন্ধ করব না। তাই আমি এই নাম্বার তার জন্য রেখে দিতে চাই। কী ঘটে সেটা দেখতে আমরা ভবিষ্যতের জন্য অপেক্ষা করব। তবে ততক্ষণ পর্যন্ত কেউ ১০ নম্বর জার্সি ব্যবহার করবে না। কারণ, এটা তার জন্য বিশেষ কিছু এবং এটা আমার সিদ্ধান্ত।” নিউ জার্সিতে বাংলাদেশ সময় বুধবার সকাল ৬টায় কলম্বিয়ার মুখোমুখি হবে মেসিহীন আর্জেন্টিনা। এর আগে তারুণ্য নির্ভর দলটি গত শুক্রবার ক্যালিফোর্নিয়ায় গুয়েতেমালাকে ৩-০ গোলে হারায়।

আফগানিস্তান টি-২০ লিগে একই দলে খেলবেন তামিম-মুশফিক

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ আফগানিস্তান প্রিমিয়ার লিগের (এপিএল) প্রথম আসরে একই দলে খেলবেন বাংলাদেশের ড্যাশিং ওপেনার তামিম ইকবাল ও সাবেক অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। দু’জনই খেলবেন নানগারহার ফ্র্যাঞ্চাইজি দলে। আসন্ন আসরে আইকন খেলোয়াড় হিসেবে খেলবেন পাকিস্তানের শহিদ আফ্রিদি, ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিস গেইল-আন্দ্রে রাসেল ও নিউজিল্যান্ডের ব্রেন্ডন ম্যাককালাম। পাঁচ দলকে নিয়ে আগামী ৫ অক্টোবর থেকে শুরু হবে এপিএল। আরেকটি দলের আইকন খেলোয়াড় আফগানিস্তানের লেগ-স্পিনার রশিদ খান। প্রথম আসরের পাঁচটি দল হলোÑ পাকিতা, কাবুল, বাল্ক, নানগারহার ও কান্দাহার। পাকিতা দলের আইকন আফ্রিদি, কাবুলের আইকন রশিদ, বাল্কের আইকন গেইল, নানগারহারের আইকন রাসেল ও কান্দাহারের আইকন ম্যাককালাম। প্রত্যকটি দলে পাঁচজন করে বিদেশী খেলোয়াড় ও একজন করে আইসিসি সহযোগি দেশের খেলোয়াড় থাকবে। বিদেশী খেলোয়াড়দের মধ্যে এখন পর্যন্ত এপিএলে খেলা নিশ্চিত করেছেন ইংল্যান্ডের ক্রিস জর্ডান, শ্রীলংকার থিসারা পেরেরা, নিউজিল্যান্ডের লুক রঞ্চি-কলিন মুনরো-মিচেল ম্যাকক্লানাঘান, দক্ষিণ আফ্রিকার ওয়েন পার্নেল, ইংল্যান্ডের রবি বোপারা, পাকিস্তানের মোহাম্মদ হাফিজ, অস্ট্রেলিয়ার বেন কাটিং ও পাকিস্তানের ওয়াহাব রিয়াজ। আইসিসি’র সহযোগী দেশ থেকে দল পেয়েছেন নেপালের সন্দ্বীপ লামিচান, স্কটল্যান্ডের ক্যালম ম্যাকলয়েড ও নেদারল্যান্ডের রায়ান টেন ডেসকাটে।