ম্যান ইউয়ের পাওয়া পেনাল্টি নিয়ে নেইমারের ক্ষোভ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ চ্যাম্পিয়ন্স লিগে পিএসজির বিপক্ষে ভিএআরের সাহায্য নিয়ে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে রেফারির দেওয়া পেনাল্টির সিদ্ধান্ত যথার্থ ছিল না বলে মনে করেন ফরাসি দলটির তারকা ফরোয়ার্ড নেইমার। বুধবার প্রতিযোগিতার শেষ ষোলোর ফিরতি পর্বে ঘরের মাঠে ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কাছে ৩-১ গোলে হারে পিএসজি। প্রথম লেগে পিএসজি ২-০ গোলে জেতায় দুই লেগ মিলিয়ে স্কোরলাইন দাঁড়ায় ৩-৩। কিন্তু প্রতিপক্ষের মাঠে এক গোল বেশি করে পরের রাউন্ডের টিকেট পায় উলে গুনার সুলশারের দল। ম্যাচের দ্বিতীয় মিনিটে রক্ষণের ভুলে গোল হজম করে স্বাগতিকরা। দ্রুতই পিএসজিকে সমতায় ফেরান হুয়ান বের্নাত। বিরতির আগে অভিজ্ঞ গোলরক্ষক জানলুইজি বুফ্ফনের ভুলে আবারও পিছিয়ে পড়ে টমাস টুখেলের দল। দ্বিতীয়ার্ধের যোগ করা সময়ে ডি-বক্সে পিএসজির ডিফেন্ডার প্রেসনেল কিম্পেম্বের হাতে বল লাগলে ভিএআরের সাহায্য নিয়ে পেনাল্টি দেন রেফারি। সফল স্পট কিকে ব্যবধান বাড়ান ইংলিশ ফরোয়ার্ড মার্কাস র‌্যাশফোর্ড। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইনস্টাগ্রামে দেওয়া এক পোস্টে পেনাল্টি নিয়ে নিজের অসন্তোষের কথা জানান ২৭ বছর বয়সী নেইমার। “এটা একটা লজ্জার ব্যাপার, ভিএআরে রিপে¬ দেখার দায়িত্বে তারা এমন চারজন মানুষকে রাখল, যারা ফুটবল সম্পর্কে কিছুই জানে না।” “এটা পেনাল্টি হয় না। বল তার পেছনের দিকে আঘাত করলে কিভাবে হ্যান্ডবল হয়!” অবশ্য ব্রাজিলের তারকা ফরোয়ার্ডের সঙ্গে একমত নন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ সুলশার। রেফারির সিদ্ধান্তকে সঠিক বলেই মনে করেন নরওয়ের ৪৬ বছর বয়সী এই কোচ। “আমি ঘটনাটা বা ভিডিও দেখিনি। আমি আশা করি যে সিদ্ধান্তটা ঠিক ছিল।” “আমি আমার দলের সদস্যদের শান্ত রাখার মাধ্যমে রেফারিকে সাহায্য করার চেষ্টা করছিলাম,… কারণ এ বিষয়ে আমরা কোনোভাবেই কিছু করতে পারতাম না। আমি আশা করি, সিদ্ধান্তটা যথার্থ ছিল। আর তারা সেটাই বলেছে, তাই সম্ভবত এটা ঠিকই ছিল।”

আরো খবর...