মানুষের ভেতরে শুভ বোধ মানবিক চেতনা জাগ্রত করতে হবে

মিরপুরে বর্ণাঢ্য আয়োজনে বাংলা বর্ষবরণে বক্তারা

কাঞ্চন কুমার ॥ দিনব্যাপী নানা অনুষ্ঠানের মধ্যদিয়ে কুষ্টিয়ার মিরপুরে পালিত হয়েছে বাঙালির প্রাণের উৎসব পহেলা বৈশাখ ও বর্ষবরণ । এ উপলক্ষে গতকাল রবিবার সকালে উপজেলা প্রশাসনসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও সামাজিক-সাংস্কৃতক সংগঠনের উদ্যোগে বিভিন্ন ব্যানার,  ফেস্টুন, রং-বেরঙের সাজ-সজ্জা এবং বাঙ্গালী জাতির ঐতিহ্যের প্রতিক, গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী মহিসের গাড়ীসহ বর্ণাঢ্য শোভযাত্রা বের করা হয়। মিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের দ্বিতীয় মেয়াদে নির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান কামারুল আরেফিনের নেতৃত্বে উপজেলা চত্ত্বর থেকে শোভাযাত্রাটি উপজেলা সদরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। এতে উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা এস এম জামাল আহম্মেদ, সহকারী কমিশনার ভূমি শরিফ আসিফ রহমান, মিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাডভোকেট আব্দুল হালিম, উপজেলা লেডিস ক্লাবের সভাপতি তানভীরা সুলতানা, সদস্য সচিব শামসুন্নাহার পারভীন শেফালী, উপজেলা পরিষদের নব-নির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যান আবুল কাশেম জোয়ার্দ্দার, মহিলা ভাইস শারমিন আক্তার নাসরিন, নবনির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যান মর্জিনা খাতুন, জেলা পরিষদের সদস্য আলহাজ্ব মহাম্মদ আলী জোয়ার্দ্দার, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আফতাব উদ্দিন খান, নজরুল করিম, সাবেক আহবায়ক মোশারফ হোসেন, সদরপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রবিউল হক রবি, আমলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ারুল ইসলাম মালিথা, ফুলবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজী আব্দুস সালাম, চিথলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন পিস্তুল, বহলবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সোহেল রানা বিশ্বাস, ধুবাইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান, পৌরসভার প্যানেল মেয়র জমির উদ্দিন, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সেলিম হোসেন ফরাজী, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ রমেশ চন্দ্র ঘোষ, সম্প্রসারণ কর্মকর্তা সাবিহা সুলতানা, উপজেলা ভারপ্রাপ্ত প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ সোহাগ রানা, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা সিরাজুল ইসলাম, উপজেলা প্রকৌশলী মিজানুর রহমান, উপজেলা রিসোর্স সেন্টারের ইন্সট্রাক্টর ফিরোজা পারভীন, পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির ডিজিএম এনামুল হক, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা নূরুল ইসলাম নান্নু, উপজেলা সহকারী মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা হোসনে মোবারক, উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা শেখ ফরিদ, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা তমান্নাজ খন্দকার, উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা নাজনীন আক্তার, উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শিরিনা আক্তার বানু, উপজেলা বিআরডিবির প্রকল্প পরিচালক আব্দুর রাজ্জাক, কুষ্টিয়া পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির এলাকা পরিচালক ও প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি কাঞ্চন কুমার, সাধারন সম্পাদক রাশেদুজ্জামান রিমন, আমলা প্রেসক্লাবের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হাবিবুর রহমান, উপজেলা শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান মিঠু, পৌর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস ওয়াহেদ জোয়ার্দ্দার, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হালিম, সহ সরকারি-বেসরকারি কর্মকর্তা, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের কর্মী, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহন করেন। শোভাযাত্রা শেষে উপজেলা কাঁঠাল বাগানে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান   ও আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, অমানবিক অশুভ অপশক্তির ভিত্তি নাড়িয়ে  দেয়ার বৈশাখ এসেছে পহেলা বৈশাখ। বাঙালীর শেকড়ের শক্তি নিয়ে এগিয়ে যাওয়ার শপথ নিতে হবে। মানুষের ভেতরে শুভ বোধ মানবিক  চেতনা জাগ্রত করতে হবে। পেছনের যত ভুলে এ সময় ঘুরে দাঁড়ানোর স্বপ্ন দেখে বাঙালী। মুছে যাক গ্লানি, ঘুচে যাক জরা/অগ্নিস্নানে শুচি হোক ধরা…। পুরনো দিনের শোক-তাপ-বেদনা-অপ্রাপ্তি-আপে ভুলে অপার সম্ভাবনার দিকে এগিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ঘোষণা করে নতুন বছর। ধর্ম-বর্ণ-নির্বিশেষে দেশের সব শ্রেণী-পেশার মানুষ আজ একাত্মা হয়ে স্বাগত জানায় নতুন বছরকে। এসো, এসো, এসো হে বৈশাখ …। এর আগে উপস্থিত সকলকে পান্তা ভাতসহ বাঙালী খাবার দিয়ে দিয়ে আপ্যায়ন করা হয়। এছাড়াও বাংলা নববর্ষ ১৪২৬ বরণ ও উদযাপন উপলক্ষে বর্ষ বরণ নিয়ে নানা আয়োজন, গ্রামীণ মেলা, খেলাধূলা, র‌্যাফেল ড্র এবং পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

আরো খবর...