ভেড়ামারায় স্বামীর পরকিয়ার জেরে গৃহবধূর উপর হামলায় আহত-২

ভাড়া করা বিএনপি ক্যাডার লিটন ও তার সহযোগী কর্তৃক হামলা

আল-মাহাদী ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার জুনিয়াদহ ইউনিয়নের দোলুয়া গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা তোফাজ্জেল হোসেনের লম্পট পূত্র কুয়েত প্রবাসী (স্বামী) মোঃ রাকিবুল ইসলামের পরকিয়ার জের ধরে তার স্ত্রী রোজিনা খাতুনের উপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। গুরুতর আহতাবস্থায় ওই গৃহবধূসহ তার মা ও তার প্রবাসী ভাই ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছে। এই ঘটনায় গৃহবধূর স্বামীর পরকিয়া প্রেমিকা মঞ্জুয়ারা ভাড়া করে বিএনপি ক্যাডার লিটনসহ তার সহযোগীদের। সরেজমিনে হাসপাতালে গিয়ে  দেখা যায়, ওই গৃহবধূর মুখমন্ডল, কানে ও গলায় একাধিক কাটা জখম রয়েছে। নির্যাতিতা গৃহবধূ রোজিনা খাতুন জানান, প্রায় ২০ বছর পূর্বে তার সাথে উপজেলার দোলুয়া গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা তোফাজ্জেল হোসেনের ছেলে মোঃ রাকিবুল ইসলামের পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। কিছুদিন আগে সে জানতে পারে তার স্বামী রাকিবুলের সাথে ভেড়ামারা বাহাদুরপুর ইউনিয়নের কুচিয়ামোড়া গ্রামের কুয়েত প্রবাসী মোঃ সাগর হোসেনের স্ত্রী মঞ্জুয়ারার পরকিয়া সম্পর্ক রয়েছে। এ নিয়ে গৃহবধূর স্বামীর সাথে গত ৮ মাস যাবৎ মনমালিন্য চলে আসছিলো। কুয়েত থেকে (প্রবাসী স্বামী) রাকিবুল স্ত্রীর সাথে যোগাযোগ না করে তার পরকিয়া প্রেমিকা মঞ্জুয়ারা বেগমের এর সাথে মোবাইলে যোগাযোগ  রেখে চলছে। এই ঘটনার জের ধরে গতকাল মঙ্গলবার দুপুর ২টার দিকে ওই গৃহবধূ, তার প্রবাসী ভাই মকলেচুর রহমান ও তার মা মোমেনা খাতুন সহ গৃহবধূ’র শুশুরবাড়ীতে উপস্থিত হলে পূর্বে থেকে লুকিয়ে থাকা পরকিয়া প্রেমিকা মঞ্জুয়ারা বেগমের ভাড়াকৃত গুন্ডাবাহিনীর প্রধান দোলুয়া গ্রামের বিএনপি’র চিহ্নিত ক্যাডার মোঃ শহিদুলের ছেলে মোঃ লিটন সহ তার সহযোগীরা হত্যার উদ্দেশ্যে গৃহবধূসহ তার মা ও ভাই এর উপর হামলা চালিয়ে শরীরের বিভিন্ন অংশে গুুতর জখম করে। এই ঘটনায় ওই গৃহবধূ রোজিনা খাতুন বাদী হয়ে দোলুয়া গ্রামের মোঃ শহিদুলের পূত্র মোঃ লিটন (৩০), মোঃ বইদুলের স্ত্রী তাসলিমা খাতুন (৪০), মৃত মফেজ উদ্দিনের পূত্র মোঃ তোফাজ্জেল হোসেন (৬৮), মোঃ তোফাজ্জেল হোসেনের স্ত্রী মোছাঃ কোহিনুর (৪৫), কুচিয়ামোড়া গ্রামের কুয়েত প্রবাসী মোঃ সাগরের স্ত্রী (পরকীয়া প্রেমিকা) মঞ্জুয়ারা (৪৫),  মঞ্জুয়ারা’র স্বামী মোঃ সাগর (৫০), মোঃ সাগরের পূত্র মুন্না (২০) এর নামে ভেড়ামারা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করে। উল্লেখ্য, বিএনপি ক্যাডার লিটন গৃহবধুর ভাই মকলেছুর রহমানের কাছ থেকে নগদ টাকা ৪০ হাজার, গৃহবধূ রোজিনা’র ৮ আনা ওজনের স্বর্নের কানের দুল ও ১২ আনা ওজনের স্বর্নের চেইন লুট করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ব্যাপারে  ভেড়ামারা থানার ডিউটি অফিসার এস.আই মাসুদ জানান, স্বামীর পরকিয়ার পারিবারিক কলহের জেরে এক গৃহবধূ সহ দুই জনকে নির্যাতন করার বিষয়ে একটি অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরো খবর...