প্রথম সাংবাদিক সম্মেলনে ‘নিরুত্তর’ মোদী

ঢাকা অফিস ॥ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী তার শাসনামলের ৫ বছর মেয়াদে প্রথমবারের মত একটি সাংবাদিক সম্মেলন করেছেন। কিন্তু সেখানে তিনি একটি প্রশ্নও গ্রহণ না করে নিরুত্তর থেকেছেন। সাংবাদিকদের সব প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) সভাপতি অমিত শাহ। ২০১৪ সালে মোদী প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ নেওয়ার পর এখন আরেকটি লোকসভা নির্বাচন শেষ হওয়ার মুখে। এ সময়ে এসে প্রথমবারের মতো সাংবাদিক বৈঠক করেও তাই ধরাছোঁয়ার বাইরেই থেকে গেলেন তিনি । সাংবাদিক বৈঠকের নিয়ম মেনে মোদী প্রশ্নের জবাব দেবেন বলে মনে করা হলেও তা গুড়ে বালি হয়েছে। সাংবাদিকদের প্রশ্ন আসতেই হাত দিয়ে অমিতের দিকে ইশারা করতেও দেখা গেছে প্রধানমন্ত্রীকে। লোকসভার সপ্তম তথা শেষ দফার ভোটের আগে শুক্রবার অমিত শাহকে নিয়ে সাংবাদিকদের মাঝে হাজির হন নরেন্দ্র মোদী। চলতি ভোটপ্রক্রিয়ার মাঝে চ্যানেলে চ্যানেলে সাক্ষাত্কার দিলেও সাংবাদিক বৈঠক এর আগে করেননি তিনি। এনিয়ে মোদীকে প্রশ্নও করেছিলেন বিরোধীরা। কেন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হতে ভয় পান মোদী? উঠেছিল এমন প্রশ্ন। এরপরই সংবাদ সম্মেলনে দেখা গেল মোদীকে। কিন্তু সম্মেলনে কোনো প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার বদলে মোদী কেবল নিজের সরকারের অর্জনগুলোই বলে গেছেন বলে জানিয়েছে বিবিসি। তিনি বলেন, “আমাকে আশীর্বাদ করার জন্য দেশকে ধন্যবাদ জানাতে এসেছি। আমি অনেক উত্থান-পতন দেখেছি। কিন্তু দেশ আমার পাশে থেকেছে।” ভারতের গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া নিয়ে নিজের গর্বের কথা তুলে ধরার পাশাপাশি গণতন্ত্রের ব্যাপ্তিটাও বিশ্বের সামনে তুলে ধরার প্রয়োজনীয়তার কথা বলেন তিনি। বিজেপি’র সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ সংবাদ সম্মেলনে প্রথমে কথা শুরু করেন। মোদী সরকারের ১৩৩টি প্রকল্পে কীভাবে দেশের প্রান্তিক মানুষ উপকৃত হয়েছে, শক্তিশালী সরকার থেকে বিজেপির প্রচারের জৌলুস তুলে ধরেন তিনি। দীপ্ত কণ্ঠে  ঘোষণা করেন, তিনশ’র বেশি আসন নিয়ে ফিরছে মোদী সরকার। অমিতের পরই কথা বলতে শুরু করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনিও দাবি করেন, লোকসভা ভোটে এবার ৩০০-র বেশি আসন পাচ্ছে বিজেপি। ফের সরকার গড়বে এনডিএ।  কিছুক্ষণ সরকার নিয়ে কথা বলেই থেমে যান মোদী। সম্মেলনে দর্শক হয়ে থেকে সাংবাদিকদের হতাশ করেছেন তিনি। ঘণ্টাখানেকের সাংবাদিক সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী বক্তব্য রেখেছেন মাত্র মিনিট দশেক। বাকি সময়ে তিনি ছিলেন শ্রোতার ভূমিকায়। কোনও প্রশ্নেই মুখ খোলেননি তিনি। এর ব্যাখ্যায় মোদী বলেছেন, দলের দায়বদ্ধ কর্মী তিনি। সভাপতি অমিতের ডাকা বৈঠকে তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাব দেবেন না। প্রশ্ন করে মোদী বলেন, পার্টির সভাপতি উপস্থিত থাকতে আমি কেন? মোদীর এ প্রশ্নেরও উত্তর দিয়েছেন অমিত শাহ। তিনি বলেন, “সব প্রশ্নের উত্তরই মোদীজিকে দিতে হবে তার মানে নেই। আর প্রশ্নগুলোও সব বোগাস।”

আরো খবর...