গাংনীতে নারী ঘটিত বিষয় নিয়ে সংঘর্ষে  আহত-৭

গাংনী প্রতিনিধি ॥ মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার হোগলবাড়ীয়া গ্রামে নারী ঘটিত বিষয় নিয়ে সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ৭জন আহত হয়েছে। আহতরা হলেন- নজু পক্ষের  নামাজ আলীর ছেলে নজরুল ইসলাম ওরফে নজু (৪৫), আজাহার আলী (৩০), আবু তাহের (৫৫), ইজারুল হক (২৭), এবং রিপন পক্ষের মৃত বাছের আলীর ছেলে খোরশেদ আলী (৪০),মৃত আঃ সাত্তারের ছেলে ইদবার আলী (২৮) ও নবীছদ্দীনের ছেলে ইব্রাহীম হোসেন (২০)। গত বুধবার রাতে  হোগলবাড়ীয়া গ্রামের ফকিরপাড়ায় সংঘর্ষ ঘটে। একটি নারী ঘটিত বিষয় নিয়ে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় কালে উভয় পক্ষের মধ্যে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষ ঘটে। আহতদের গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। গাংনী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. এম কে রেজা জানান,এদের মধ্যে মাথায় ও হাতে মারাত্মক আহত নজু ও তাহের এর অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাদের কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে। ঘটনার বিবরণে জানা গেছে, বুধবার সন্ধ্যায় হোগলবাড়ীয়া ফকিরপাড়া গ্রামে  আঃ সাত্তারের ছেলে রিপন প্রতিবেশী নজুর ছেলে সাকিলকে নারী ঘটিত অপবাদ দেয়। এসময় প্রমাণ চাই নজুর পরিবার। এনিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে সংঘর্ষের সূচনা হয়। পরে রাতে উভয় পক্ষ দেশীয় লাঠিসোটা , ধারালো অস্ত্র দিয়ে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ ঘটে।

 

আরো খবর...